হযরত উসমানের শাহাদাতকালে রক্তমাখা কুরআন

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৭ অক্টোবর ২০১৯ | ২ কার্তিক ১৪২৬

হযরত উসমানের শাহাদাতকালে রক্তমাখা কুরআন

পরিবর্তন ডেস্ক ৭:০৯ অপরাহ্ণ, আগস্ট ০২, ২০১৯

হযরত উসমানের শাহাদাতকালে রক্তমাখা কুরআন

হযরত উসমান (রা.) এর শাহাদাতকালে তাঁর রক্তে রঞ্জিত কুরআন।

উজবেকিস্তানের রাজধানী তাসখন্দের এক মাদরাসায় সপ্তম শতাব্দীর একটি কুরআনের পান্ডুলিপি সংরক্ষিত আছে। বিশ্বের অন্যতম প্রাচীন কুরআনের পাণ্ডুলিপি এটি।

বিশ্বাস করা হয়, পান্ডুলিপিটি নবীজি (সা.) এর জামাতা ও ইসলামের তৃতীয় খলীফা হযরত উসমান ইবনে আফফান (রা.) এর ব্যক্তিগত এবং তাঁর শাহাদাতকালে তিনি এই কুরআন থেকে তিলাওয়াত করছিলেন। এমতাবস্থায় বিদ্রোহীদের আঘাতে এটি তাঁর রক্তে রঞ্জিত হয়।

উজবেকিস্তানের রাজধানী তাসখন্দের ধর্মীয় কেন্দ্র ‘খাস্ত-ইমাম কমপ্লেক্স’।

তাসখন্দের খাস্ত-ইমাম কমপ্লেক্সের অর্ন্তভুক্ত এই মাদরাসার গ্রন্থাগারে একটি কাঁচের বাক্সের মধ্যে কুরআনের পান্ডুলিপিটি সংরক্ষিত আছে। এই গ্রন্থাগারে কুরআনের এই পান্ডুলিপিটি ছাড়াও তিন হাজারের মত প্রাচীন পান্ডুলিপি সংরক্ষিত আছে। এছাড়া কুরআনের তাফসীর, ফিকাহ, হাদীস, ইতিহাস, জ্যোতির্বিজ্ঞান, চিকিৎসাশাস্ত্রসহ বিভিন্ন বিষয়ের উপর ২০ হাজারের মত বই এই গ্রন্থাগারটিতে রয়েছে।   

 প্রাচীন ইসলামী স্থাপত্য নকশায় খাশত-ইমাম কমপ্লেক্সের সংস্কার পরবর্তী ফটক।

দশম শতাব্দীর আলেম ও তাসখন্দের ইমাম আবু বকর আশ-শাশি’র নামে নির্মিত এই কমপ্লেক্সটি তার মাজারকে কেন্দ্র করে গড়ে উঠেছে। দুইটি মাদরাসা, তিনটি মসজিদ, আল-বুখারি ইসলামি বিশ্ববিদ্যালয় এবং উজবেকিস্তানের মুসলিম বোর্ড এই কমপ্লেক্সের মধ্যে অর্ন্তভুক্ত রয়েছে। 

২০০৭ সালে এই কমপ্লেক্সটিকে তার মূল নকশা অনুযায়ী সংস্কার করা হয়। তবে এই প্রাচীন স্থাপনাটি ৫০০ বছরেরও অধিক পুরনো।    

সূত্র : ilmfeed.com

এমএফ/

 

তাহজিব / মুসলিম ঐতিহ্য : আরও পড়ুন

আরও