ছাতকে দু’গ্রুপের সংঘর্ষে ওসিসহ আহত ৩০

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২১ মে ২০১৯ | ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

ছাতকে দু’গ্রুপের সংঘর্ষে ওসিসহ আহত ৩০

সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি ১১:৫৫ অপরাহ্ণ, মে ১৪, ২০১৯

ছাতকে দু’গ্রুপের সংঘর্ষে ওসিসহ আহত ৩০

সুরমা নদীতে চাঁদাবাজিকে কেন্দ্র করে সুনামগঞ্জের ছাতকে দুপক্ষের সংঘর্ষে ছাতক থানার ওসি, মোস্তফা কামাল ও ৫ পুলিশসহ অন্তত ৩০ জন আহত হয়েছে।

মঙ্গলবার রাত ৯টা থেকে ১০টা পর্যন্ত সংঘর্ষ চলে।

সংঘর্ষ নিয়ন্ত্রণে আনতে পুলিশ বেশ কিছু টিয়ার শেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করেছে।

আহতদের ছাতক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

ছাতক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের চিকিৎসক ডা. আজাদ জানান, গুলিবিদ্ধ ৭ জনকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

তাৎক্ষণিকভাবে আহতদের নাম পরিচয় জানাযায়নি।

স্থানীয়রা ও পুলিশ জানায়, বেশ কয়েক দিন ধরে সুরমা নদীর ছতক এলাকায় চাঁদাবাজিকে কেন্দ্র  করে ছাতক পৌরসভার কাউন্সিলর তাপস চৌধুরী ও একই পৌরসভার মেয়র কালাম চৌধুরী ভাই ছাতক লাইমস্টোন ইমপোর্টাস এন্ড সাপ্লাই গ্রুপের প্রেসিডেন্ট সেলিম চৌধুরীর লোকজনের মধ্যে বিরোধ চলে আসছে।  মঙ্গলবার দিনগত রাত ৯টার দিকে ছাতক বাসস্ট্যান্ড এলাকায় উভয় পক্ষের লোকজন অস্ত্র-সস্ত্র নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। সংঘর্ষ থামাতে পুলিশ টিয়ার শেল ও রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে পরিস্থিতি।

ছাতক সার্কেলের সহকারি পুলিশ সুপার মো. বিল্লাল হোসেন ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, ওসিসহ আহত পুলিশ সদস্যদের ছাতক উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। 

সুনামগঞ্জের পুলিশ সুপার মো.বরকতুল্লাহ খান জানান, ওসিসহ ৩/৪ জন পুলিশ সদস্যের গায়ে স্প্লিন্টার লেগেছে। পুলিশ ছাতক শহরের অভিযান চালাচ্ছে।

এআরই