‘চরমপন্থি ধারণাকে দৃঢ়ভাবে প্রত্যাখ্যান করেছে বাংলাদেশ’

ঢাকা, শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮ | ৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৫

‘চরমপন্থি ধারণাকে দৃঢ়ভাবে প্রত্যাখ্যান করেছে বাংলাদেশ’

সিলেট ব্যুরো ১০:২৯ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৪, ২০১৮

‘চরমপন্থি ধারণাকে দৃঢ়ভাবে প্রত্যাখ্যান করেছে বাংলাদেশ’

বাংলাদেশে নিযুক্ত ভারতীয় হাইকমিশনার হর্ষবর্ধন শ্রিংলা বলেছেন, বাংলাদেশ চরমপন্থি ধারণাকে দৃঢ়ভাবে প্রত্যাখ্যান করেছে। বঙ্গবন্ধু ও ইন্দিরা গান্ধী অতীতে সম্পর্কের যে বীজ বপন করেছিলেন তা আজ বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী এক অনন্য উচ্চতায় পৌঁছে দিয়েছেন।

শুক্রবার সকালে আন্তর্জাতিক কৃষ্ণভাবনামৃত সংঘ (ইসকন) মন্দিরের ২৫০ কক্ষ বিশিষ্ট ৫ তলা ভবন ছাত্রাবাসের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে একথা বলেন হাইকমিশনার।

এসময় বিশেষ অতিথি হিসেবে শাহজালাল বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (শাবি) উপাচার্য অধ্যাপক ফরিদ উদ্দিন আহমেদ, আন্তর্জাতিক কৃষ্ণভাবনামৃত সংঘ (ইসকন) বাংলাদেশের সহ-সভাপতি শ্রীমদ ভক্তিপ্রিয়ম গধাঘর গোস্বামী মহারাজ, ইসকন বাংলাদেশের সাধারণ সম্পাদক শ্রীপদ চারুচন্দ্র দাস ব্রহ্মচারী।

শুদ্ধসত্য গোবিন্দ দাসের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে ভারতীয় হাইকমিশনার আরো বলেন, আজ ভারতের প্রধানমন্ত্রীর কথা ধরে বলতে চাই আগে আমরা একে অপরের পাশাপাশি ছিলাম এখন আমরা এক অপরের আরো কাছাকাছি এসেছি।

বাংলাদেশের সঙ্গে ভারতের যে বন্ধুত্বপূর্ণ সম্পর্ক আছে সেটি দিনদিন আরো গভীর হচ্ছে, এমন মন্তব্য করে তিনি বলেন, সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির দেশ বাংলাদেশ। এধরনের সহযোগিতা ভবিষ্যতেও অব্যাহত থাকবে। এদেশের সকল ভালো কাজে আমরা সহযোগিতা করবো।

উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে স্বাগতিক বক্তব্য রাখেন আন্তর্জাতিক কৃষ্ণভাবনামৃত সংঘ (ইসকন) সিলেটের অধ্যক্ষ নবদ্বীপ দ্বিজ গৌরাঙ্গ দাস ব্রহ্মচারী। আরো বক্তব্য রাখেন শ্রীধাম মায়াপুরের শিক্ষক শ্রীপাদ আনন্দবর্ধন দাস ব্রহ্মচারীসহ প্রমুখ।

ডিএস/আরজি