৬৪ শতাংশ প্রতিষ্ঠানের দর বৃদ্ধিতে সপ্তাহের ব্যবধানে বেড়েছে সূচক

ঢাকা, রবিবার, ১৬ জুন ২০১৯ | ২ আষাঢ় ১৪২৬

৬৪ শতাংশ প্রতিষ্ঠানের দর বৃদ্ধিতে সপ্তাহের ব্যবধানে বেড়েছে সূচক

পরিবর্তন প্রতিবেদক ৪:৪৫ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ০৮, ২০১৮

৬৪ শতাংশ প্রতিষ্ঠানের দর বৃদ্ধিতে সপ্তাহের ব্যবধানে বেড়েছে সূচক

সদ্য সমাপ্ত সপ্তাহে দেশের প্রধান পুঁজিবাজার ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের (ডিএসই) সার্বিক লেনদেন না বাড়লেও বেড়েছে সূচক। বাজারের ৬৪.১৮ শতাংশ কোম্পানির দর বৃদ্ধি পাওয়ায় ডিএসই’র সার্বিক মূল্যসূচক বেড়েছে। ডিএসই’র সপ্তাহিক বাজার পর্যালোচনায় এ তথ্য জানা গেছে।

বাজার পর্যালোচনায় দেখা যায়, সমাপ্ত সপ্তাহে (২ ডিসেম্বর থেকে ৬ ডিসেম্বর) ডিএসইতে ৩ হাজার ৩ কোটি ৫৩ লাখ ৬ হাজার ৭৮১ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছে। এর আগের সপ্তাহে ডিএসইতে  ৩ হাজার ১৫৩ কোটি ৮৮ লাখ ৭১ হাজার ৬৬২ টাকার শেয়ার ও ইউনিট লেনদেন হয়েছিল। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে ডিএসই’র লেনদেন কমেছে  ৪.৭৭ শতাংশ।

গত সপ্তাহে ডিএসইতে দৈনিক গড় লেনদেন হয়েছে ৬০০ কোটি ৭০ লাখ টাকা। এর আগের সপ্তাহে ডিএসইতে দৈনিক গড় লেনদেন হয়েছে ৬৩০ কোটি ৭৭ লাখ টাকা। অর্থাৎ সপ্তাহের ব্যবধানে গড় লেনদেন কমেছে ৪.৭৭ শতাংশ।

সদ্য সমাপ্ত সপ্তাহে ডিএসইতে লেনদেন হওয়া ৩৪৯টি কোম্পানি ও ফান্ডের মধ্যে দর বেড়েছে ২২৪টির বা ৬৪.১৮ শতাংশের, দর কমেছে ১০০টির ও দর অপরিবর্তিত ছিল ২২টি প্রতিষ্ঠানের। এর আগের সপ্তাহে ডিএসইতে লেনদেন হওয়া কোম্পানি ও ফান্ডগুলোর ১১৭টির দর বেড়েছিল। ওই সময় দর কমেছিল ২০৬টির ও দর অপরিবর্তিত ছিল ২৩টি প্রতিষ্ঠানের।

বিক্রয় চাপ কমায় গত সপ্তাহে ডিএসই’র সার্বিক মূল্যসূচক বেড়েছে ৫১.৫৫ পয়েন্ট। সপ্তাহের শুরুতে ডিএসই’র সার্বিক মূল্যসূচক ছিল ৫২৮১.২৫ পয়েন্ট। সপ্তাহের ব্যবধানে তা ৫৩৩২.৮১ পয়েন্টে স্থিতি পেয়েছে। এসময় শরীয়াহ্ ভিত্তিক কোম্পানির মূল্য সূচক ০.৭৩ পয়েন্ট বেড়েছে।

সপ্তাহ শেষে ডিএসইতে টার্নওভার তালিকায় শীর্ষে উঠে এসেছে সায়হাম কটন। এসময় কোম্পানিটির ৭৯ কোটি ১১ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এসময় কোম্পানিটির শেয়ার দর বেড়েছে ২.৬ টাকা।

টার্নওভার তালিকায় দ্বিতীয় অবস্থানে ছিল ড্রাগন সুয়েটার। কোম্পানিটির ৭২ কোটি ৬০ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। ৬৯ কোটি ৪৭ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেনের মধ্যে দিয়ে টার্নওভার তালিকায় তৃতীয় অবস্থানে ছিল অ্যাডভেন্ট ফার্মা।

টার্নওভার তালিকায় থাকা অন্যান্য কোম্পানিগুলো হলো-প্যারামাউন্ট টেক্সটাইল, ইউনাইটেড পাওয়ার, এমএল ডাইং, খুলনা পাওয়ার, ইন্দো-বাংলা ফার্মা, ওয়েস্টার্ন মেরিন শিপইয়ার্ড ও এসকে ট্রিমস অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজ।

জেডএস/