গাড়ি চালিয়েই তার আয় ৪১১৯ কোটি টাকা!

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯ | ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

গাড়ি চালিয়েই তার আয় ৪১১৯ কোটি টাকা!

পরিবর্তন ডেস্ক ১:২১ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ০৫, ২০১৯

গাড়ি চালিয়েই তার আয় ৪১১৯ কোটি টাকা!

হ্যাঁ, তিনি একজন গাড়ি চালকই বটে। তবে যাত্রীবাহী সাধারণ বাস নয়, তিনি ফর্মুলা ওয়ানের চালক। তিনি গাড়ি চালান প্রতিযোগিতার ময়দানে, জীবন বাজি রেখে। যেখানে প্রতিটা রেস জিতলেই প্রাইজমানি হিসেবে পকেটে ঢোকে কাড়ি কাড়ি টাকা। প্রাইজমানি, বোনাসের কথা বাদ দিন। নিজ প্রতিষ্ঠান থেকে ব্রিটিশ ফর্মূলা ওয়ান তারকা লুইস হ্যামিল্টনের বার্ষিক বেতনই ৪০ মিলিয়ন ইউরো। আর এই হিসেবে তিনি ক্যারিয়ারে শুধু বেতন খাতেই এ পর্যন্ত কামিয়েছেন ৪৩৫ মিলিয়ন ইউরো! বাংলাদেশি মুদ্রায় অঙ্কটা ৪১১৯ কোটি ৪০ লাখ ৩১ হাজার ৬৩৫ টাকা!

যা তাকে বানিয়েছে ফর্মুলা ওয়ানের ইতিহাসে সর্বোচ্চ আয়কারী। সত্যিই তাই। জার্মান কিংবদন্তি মাইকেল শুমাখারকে টপকে ফর্মুলা ওয়ানে এখন সর্বোচ্চ আয়কারী ৫ বারের ফর্মুলা ওয়ানের বিশ্বকাপজয়ী লুইস হ্যামিল্টন। যুক্তরাষ্ট্র ভিত্তিক বিশ্বখ্যাত অর্থনৈতিক সাময়িকী ফোর্বস জানিয়েছে এই তথ্য।

সম্প্রতি ফর্মুলা ওয়ানের ইতিহাসে সর্বোচ্চ আয়কারী ১০ জনের একটা তালিকা প্রকাশ করেছে ফোর্বস। শুমাখারকে পেছনে ফেলে তালিকার এক নম্বরে উঠে এসেছে ৩৪ বছর বয়সী হ্যামিল্টন। ২০০৭ সালে পেশাদার ফর্মুলা অভিষেকের পর গত ১২ বছরে এই টাকা কামিয়েছেন তিনি।

বছরে ৪০ মিলিয়ন করে ধরে হিসাব করলে অবশ্য ১২ বছরে অঙ্কটা দাঁড়ায় ৪৮০ মিলিয়ন ইউরো। কিন্তু শুরুর দিকে বেতনের অঙ্কটা কম ছিল। সব কিছু হিসাব করেই ফোর্বস জানিয়েছে বেতন খাতে হ্যামিল্টনের মোট আয় ৪৩৫ মিলিয়ন ইউরো।

আয়ে তার পরই রয়েছেন শুমাখার। ১৯৯১ থেকে ২০১২— ২১ বছরের ক্যারিয়ারে ৫০ বছর বয়সী শুমাখার কামিয়েছেন ৪১২ মিলিয়ন ইউরো। বাংলাদেশি মুদ্রায় ৩৯০১ কোটি ৫৯ লাখ ৬৬ হাজার ৩৯৯ টাকা। ভয়ঙ্কর দুর্ঘটনার পর যিনি বর্তমানে মৃত্যুর সঙ্গে লড়াই করছেন।

শুমাখার ২১ বছরে যত আয় করেছেন, হ্যামিল্টন ১২ বছরেই আয় করেছেন তার চেয়ে বেশি। ইংল্যান্ডের এই ফর্মুলা ওয়ান চালকের আয়ের হিসাবটা শেষ পর্যন্ত কোথায় গিয়ে ঠেকবে কে জানে!

তালিকার ৩ নম্বরে রয়েছেন স্পেনের সাবেক তারকা ফার্নান্দো আলোনসো। ২০০১ থেকে ২০১৮— ১৭ বছরে তিনি কামিয়েছেন ৪০৭ মিলিয়ন ইউরো বা ৩৮৫৪ কোটি ২৪ লাখ ৬১ হাজার ৭৮৩ টাকা।

৪ নম্বরে আছেন সেবাস্তিন ভেটল। জার্মানির ৩১ বছর বয়সী এই ফর্মুলা ওয়ান চালক ২০০৭ থেকে ২০১৯— ১২ বছরে কামিয়েছেন ৩১৮ মিলিয়ন ইউরো বা ৩০১১ কোটি ৪২ লাখ ৫৭ হাজার ৬০৯ টাকা।

৫ নম্বরে কিমি রেইকোনেন। ‘আইসম্যান’ হিসেবে বিশেষ পরিচিতি পাওয়া ফিনল্যান্ডের ৩৯ বছর বয়সী এই ফর্মুলা ওয়ান তারকা ২০০১ থেকে ২০১৯— ১৮ বছরে কামিয়েছেন ২৯৪ মিলিয়ন ইউরো। বাংলাদেশি মুদ্রায় অঙ্কটা ২৭৮৪ কোটি টাকারও বেশি।

৬ নম্বরে জেনসন বাটন। ৩৯ বছর বয়সী এই ইংলিশ ফর্মুলা ওয়ান তারকা ২০০০ থেকে ২০১৭— ১৭ বছরে কামিয়েছেন ১৩০ মিলিয়ন ইউরো। বাংলাদেশি মুদ্রায় অঙ্কটা ১২৩১ কোটি ৮ লাখ ৬০ হাজার ২৯ টাকা।

৭ নম্বরে মাইকেল শুমাখারের ছোটভাই রালফ শুমাখার। ৪৩ বছর বয়সী এই জার্মান ফর্মুলা ওয়ান তারকা ১৯৯৭ থেকে ২০০৭— ১০ বছরে আয় করেছেন ১০৭ মিলিয়ন ইউরো বা ১০১৩ কোটি ২৭ লাখ ৮৪ হাজার ৭৯৩ টাকা!

৮ নম্বরে রয়েছেন কানাডিয়ান ফর্মুলা ওয়ান তারকা জ্যাকুয়েস ভিলেনেউভে। ৪৭ বছর বয়সী এই সাবেক তারকা ১৯৯৬ থেকে ২০০৬— ১০ বছরে আয় করেছেন ১০২ মিলিয়ন ইউরো বা ৯৬৫ কোটি ৯২ লাখ ৯০ হাজার ১৭৬ টাকা।

সর্বোচ্চ আয় তালিকার ৯ নম্বর আসনটি নিজের করে নিয়েছেন ব্রাজিলিয়ান ফর্মুলা ওয়ান ড্রাইভার ফিলেপে মাসা। ৩৭ বছর বয়সী ফর্মূলা ওয়ানের এই চালক ২০০২ থেকে ২০১৭— ১৫ বছরে কামিয়েছেন ৯৭ মিলিয়ন ইউরো। বাংলাদেশি মুদ্রায় ৯১৮ কোটি ৫৭ লাখ ৯৫ হাজার ৫৬০ টাকা।

শীর্ষ ১০-এর শেষ আসনটিতে আছেন আরেক ব্রাজিলিয়ান ফর্মুলা ওয়ান তারকা রুবেন বারিচেলো। ৪৬ বছর বয়সী ব্রাজিলের সাবেক এই তারকাও আয় করেছেন ফেলিপে মাসার সমান ৯৭ মিলিয়ন ইউরো। তবে তার সময় লেগেছে বেশি, ১৯৯৩ থেকে ২০১১— ১৮ বছরে এই টাকা কামিয়েছেন তিনি।

কি সবকিছু বাদ দিয়ে ফর্মুলা ওয়ানে ক্যারিয়ার গড়বেন নাকি? যদি চান, জীবন বাজি রাখার চ্যালেঞ্জটা আপনাকে নিতে হবে, এই আর কি!

কেআর

 

 

 

অন্যান্য: আরও পড়ুন

আরও