আরেকটা বঙ্গভঙ্গ হতে দেব না: মমতা

ঢাকা, ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | 2 0 1

আরেকটা বঙ্গভঙ্গ হতে দেব না: মমতা

পরিবর্তন ডেস্ক ৯:১৬ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৯

আরেকটা বঙ্গভঙ্গ হতে দেব না: মমতা

আসামে জাতীয় নাগরিকপঞ্জির (এনআরসি) তালিকা থেকে বাদ পড়েছে ১৯ লক্ষ মানুষের নাম। শুরু থেকেই এই নাগরিকপঞ্জির বিরোধীতা করে আসছে তৃণমূল। এইবার সেই ইস্যুতে প্রথমবার পথে নামলেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

আজ বৃহস্পতিবার কলকাতার পদযাত্রায় নেতৃত্ব দেন তৃণমূল নেত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

সিঁথি থেকে শ্যামপুর পর্যন্ত মিছিলে অংশ নেন তিনি। সেখানে তিনি এনআরসি থেকে শুরু করে ধর্ম ইস্যু নিয়ে বিজেপি নেতৃত্বাধীন কেন্দ্রীয় সরকারকে তীব্র আক্রমণ করেন।

পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বলেন, আসামে যে ১৯ লক্ষ মানুষ এনআরসিতে বাদ পড়েছেন তার মধ্যে ১২ লক্ষ হিন্দু রয়েছেন। ১৯ লক্ষ মানুষের মধ্যে রয়েছেন বৌদ্ধ, মুসলিম ও গোর্খারাও।

তিনি অভিযোগ করেন, অনেকে জন্মের প্রশংসাপত্র দিয়েও এনআরসিতে ঠাঁই পাননি।

লোকসভা নির্বাচনের আগে দেশ জুড়ে এনআরসি করার ‘প্রতিশ্রুতি’ দিয়েছিল বিজেপি। মোদি সরকার দ্বিতীয় বার ক্ষমতায় আসার পর আসামে জাতীয় নাগরিকপঞ্জি প্রকাশিত হয়।

এ রাজ্যেও এনআরসি করার ‘হুঁশিয়ারি’ দিচ্ছেন বিজেপির কেন্দ্রীয় ও রাজ্য স্তরের নেতারা। তা নিয়ে এ দিন কেন্দ্রকে পাল্টা চ্যালেঞ্জ ছুড়ে দিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়।

এনআরসির সঙ্গে ব্রিটিশ আমলে, ভাইসরয় লর্ড কার্জনের বঙ্গভঙ্গের সিদ্ধান্তের তুলনা করেছেন তিনি।

সম্প্রতি রাজ্যে এনআরসি করে দু’কোটি মানুষের নাম বাদ দেওয়ার কথা বলেন বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপ ঘোষ।

তা নিয়ে এ দিন চ্যালেঞ্জের সুরে মমতা বলেন, আর একটা বঙ্গভঙ্গের চেষ্টা করলে চলবে না, আগুন নিয়ে খেলবেন না। ক্ষমতা থাকলে বাংলার গায়ে হাত দিয়ে দেখান। দু’কোটি কেন, দু’জনের গায়ে হাত দিয়ে দেখান।

কয়েক দিন আগে বিধানসভায় দাঁড়িয়ে এনআরসি নিয়ে কড়া প্রতিক্রিয়া দেন মুখ্যমন্ত্রী। রাজ্যে এনআরসি যে মানবেন না তা সাফ জানিয়ে দেন তিনি। তার পরেই এনআরসি নিয়ে পথে নেমে রাজনৈতিক কর্মসূচি পালন তৃণমূল নেত্রীর।

এসবি

 

দক্ষিণ এশিয়া: আরও পড়ুন

আরও