বিজেপিকে ভোট, অনুশোচনায় আঙুল কাটলো যুবক

ঢাকা, সোমবার, ২০ মে ২০১৯ | ৬ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬

বিজেপিকে ভোট, অনুশোচনায় আঙুল কাটলো যুবক

পরিবর্তন ডেস্ক ৩:৩৬ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ১৯, ২০১৯

বিজেপিকে ভোট, অনুশোচনায় আঙুল কাটলো যুবক

বিএসপিকে ভোট দিতে চেয়েছিলেন। কিন্তু, ভুলে ভোট দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির বিজেপিকে। আর এই ভুলের শাস্তি দিতে নিজের আঙুল কেটে ফেললেন এক ভোটার।

ভারতে চলমান লোকসভা নির্বাচনে ইভিএমে ভোট দেয়ার সময় ভুলে নিজের পছন্দের দলের বদলে বিজেপিকে ভোট দিয়ে ফেলেন পবন কুমার। এরপরই অনুশোচনায় তিনি নিজের আঙুল কেটে ফেলেন বলে খবর দিয়েছে ভারতীয় গণমাধ্যম।

ব্রিটিশ গণমাধ্যম বিবিসি শুক্রবার জানায়, পবন কুমার সামাজিক মাধ্যমে পোস্ট করে এমন দাবি করেছেন। পরে তার এই ভিডিও সামাজিক মাধ্যমে ভাইরাল হয়।

কলকাতার আনন্দবাজার পত্রিকার খবরে বলা হয়, লোকসভা নির্বাচনে অংশ নিচ্ছে বিএসপি ও বিজেপি। মাঝখানের অক্ষরটি বাদ দিলে দুটো দলের নামে মিল আছে। কিন্তু, রাজনীতির ময়দানে সেই পার্থক্য পাহাড়প্রমাণ। সামান্য ভুলেও ঘটে যেতে পারে বিরাট ‘বিপর্যয়’। উত্তরপ্রদেশের বুলন্দশহরের বাসিন্দা পবন কুমারও সেই ফারাকটা বোঝেন।

তবু ভুলটা করেই ফেলেছিলেন বুথের ভেতরে ইভিএমের সামনে দাঁড়িয়ে। ‘বিএসপি’র বদলে টিপে দিয়েছিলেন ‘বিজেপি’র বোতাম। আর তার জন্য নিজেই ‘শাস্তি’ দেন নিজেকে। বুথ থেকে ফিরে কেটে ফেলেন নিজের বাম হাতের তর্জনির মাথা।

এবার লোকসভা ভোটে উত্তরপ্রদেশে বহুজন সমাজ পার্টি (বিএসপি), সমাজবাদী পার্টি (এসপি) ও রাষ্ট্রীয় লোকদল (আরএলডি) একজোট হয়ে লড়াই করছে।

বুলন্দশহর কেন্দ্রে এসপি এবং আরএলডি সমর্থিত বিএসপি প্রার্থী হয়েছেন যোগেশ বর্মা। উল্টো দিকে বিজেপির প্রার্থী ভোলা সিংহ।

এই কেন্দ্রেরই শান্তিপুর থানার আবদুল্লাপুর-হুলাসপুর গ্রামের বাসিন্দা পবন কুমার বরাবরই বিএসপি সমর্থক। গতকাল বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় দফায় বুলন্দশহরেও ভোট হয়েছে। সেখানেই পরিবারের লোকজনের সঙ্গে ভোট দিতে গিয়ে এই অঘটন ঘটান পবন কুমার।

পরে পরিবারের সদস্যরা হাসপাতালে নিলে চিকিৎসক হাতে ব্যান্ডেজ আর ওষুধপত্র দিয়ে ছুটি দিয়ে দেন।

এমআর/আইএম