টেক্সটাইল মিলের বিরুদ্ধে ৩১ লাখ টাকার শুল্ক ফাঁকি অভিযোগ

ঢাকা, সোমবার, ২৩ জুলাই ২০১৮ | ৮ শ্রাবণ ১৪২৫

টেক্সটাইল মিলের বিরুদ্ধে ৩১ লাখ টাকার শুল্ক ফাঁকি অভিযোগ

পরিবর্তন প্রতিবেদক ২:৪৭ পূর্বাহ্ণ, মে ২৪, ২০১৮

print
টেক্সটাইল মিলের বিরুদ্ধে ৩১ লাখ টাকার শুল্ক ফাঁকি অভিযোগ

গাজীপুরের একটা টেক্সটাইল মিলের বিরুদ্ধে মিথ্যা ঘোষণা দিয়ে ব্যাপক শুল্ক ফাঁকি দেয়ার প্রমাণ পেয়েছে শুল্ক মূল্যায়ন ও অডিটের একটা দল। মোশাররফ টেক্সটাইল মিলস লি. নামের ওই প্রতিষ্ঠান ফার্মাসিউটিক্যালস পণ্য ঘোষণা দিয়ে জেনারেটর পার্টস এনে সরকারের প্রায় ৩১ লাখ টাকা শুল্ক ফাঁকি দিয়েছেন।

সিভিএ’র কমিশনার ড. মইনুল খান বুধবার পরিবর্তন ডটকমকে এ তথ্য জানিয়েছেন। তিনি বলেন, টেক্সটাইল মিলটি ঢাকা কাস্টম হাউসে ফার্মাসিউটিক্যালস পণ্য ঘোষণা দিয়ে বিল অব এন্ট্রি দাখিল করে। এতে আমদানিকারক ০% হারে শুল্ক প্রদান করে তা খালাস নেন। ঢাকা কাস্টম হাউসের বিল অব এন্ট্রি নং সি-৫৯৮৯৩৮, তারিখ: ০৯/০৭/২০১৭। কিন্তু ব্যাংক তথ্য পর্যালোচনা করে দেখা যায়, তিনি প্রকৃত অর্থে জেনারেটর পার্টস এনেছেন। এই পণ্যের উপর ২৬.২৭% শুল্ককর প্রযোজ্য। অডিটে আরো দেখা যায় তিনি ব্যাংকের মাধ্যমে জেনারেটর হিসেবে এলসি খুলেছেন এবং সে হিসেবে রপ্তানিকারককে বিল পরিশোধ করেছেন।

সিভিএ কমিশনার বলেন, এই জালিয়াতির মাধ্যমে তিনি উদ্দেশ্যমূলকভাবে শুল্ক ফাঁকি দিয়েছেন বলে সিভিএর অডিটে প্রমাণ পাওয়া গেছে। আমদানিকারকের এই মিথ্যা ঘোষণার কারণে সরকার প্রায় ৩১ লাখ টাকা শুল্ক হারিয়েছে। পণ্যচালানটির মোট আমদানি মূল্য প্রায় এক কোটি টাকা।

তিনি বলেন, চালানটি জাপান থেকে এসকিউ ৪৪৬ এর মাধ্যমে ২১ জুন ২০১৭ এ আমদানি করা হয়। অনিয়ম উদঘাটন অনুযায়ী আইনানুগ ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

এফএ/এএস

 
.



আলোচিত সংবাদ