অগ্নিকাণ্ডে ভস্মীভুত রান্নাঘরে মিলল পুড়ে ছাই হওয়া শিশুর লাশ

ঢাকা, ১৭ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | 2 0 1

অগ্নিকাণ্ডে ভস্মীভুত রান্নাঘরে মিলল পুড়ে ছাই হওয়া শিশুর লাশ

দিনাজপুর প্রতিনিধি ৬:৩৯ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২১, ২০১৯

অগ্নিকাণ্ডে ভস্মীভুত রান্নাঘরে মিলল পুড়ে ছাই হওয়া শিশুর লাশ

দিনাজপুরের চিরিরবন্দরে অগ্নিকাণ্ডে ভস্মীভুত রান্নাঘরে নিজ সন্তানকে খুঁজতে গিয়ে মিলল ১০ মাস বয়সের শিশু মুরাদ ইসলামের পুড়ে ছাই হওয়া লাশ।

জলজ্যান্ত রেখে যাওয়া সন্তানের ছাই হওয়া লাশ দেখে মাকসুদা বেগম দুলালীর কান্না আর আহাজারীতে ভারি হয়ে উঠে এলাকার পরিবেশ।

চিরিরবন্দর উপজেলার আব্দুলপুর ইউনিয়নের তেলীপাড়া গ্রামে মঙ্গলবার এই ঘটনাটি ঘটে।

নিহত মুরাদ ইসলাম তেলীপাড়া গ্রামের দিনমজুর মো. আলমগীর ইসলামের ছেলে।

মুরাদ ইসলামের নানা মোফাজ্জল হোসেন জানান, বেশ কিছুদিন ধরে তাদের বাড়ীতেই থাকতো শিশু মুরাদ ইসলাম। মঙ্গলবার রান্না ঘরে রান্না চলছিল।

এসময় মুরাদ ঘরের বারান্দায় বসে ছিল। রান্না শেষ করে সবাই বাড়ী থেকে বের হয়ে গেলে হঠাৎ রান্না ঘরের চুলা থেকে রান্না ঘরে আগুন লেগে যায়। এলাকাবাসী চিৎকার শুরু করলে সবাই এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে নিয়ে আসে।

এসময় মুরাদের মা মাকসুদা বেগম দুলালী এসে জিজ্ঞেস করে আমার সন্তান মুরাদ কই? চারিদিকে খোঁজাখুঁজির পর এক পর্যায়ে দেখা যায় রান্না ঘরের আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেছে শিশু মুরাদ। এসময় মা মাকসুদা বেগম দুলালীর কান্না আর আহজারীতে এলাকার পরিবেশ ভারি হয়ে উঠে।

আগুন লাগা ও শিশু মৃত্যুর কথা নিশ্চিত করে চিরিরববন্দর প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. মনোয়ার হোসেন জানান, অসাবধানতাবশত রান্না ঘরে আগুন লেগে যায়। এই আগুনে মুরাদ নামে একটি শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু ঘটেছে। ঘটনাটি দুঃখ জনক।

তিনি জানান, খবর পেয়ে তিনিসহ চিরিরবন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা গোলাম রব্বানী  ঘটনাস্থলে যান। তাৎক্ষনিকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারকে ৫ হাজার টাকা অনুদান দেয়া হয়।

এমএইচ

 

রংপুর: আরও পড়ুন

আরও