তিন স্থলবন্দরে ৯ দিন বন্ধ আমদানি-রফতানি

ঢাকা, রবিবার, ৮ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

তিন স্থলবন্দরে ৯ দিন বন্ধ আমদানি-রফতানি

কুড়িগ্রাম, দিনাজপুর ও লালমনিরহাট প্রতিনিধি ৯:১৩ অপরাহ্ণ, আগস্ট ০৯, ২০১৯

তিন স্থলবন্দরে ৯ দিন বন্ধ আমদানি-রফতানি

উত্তরবঙ্গের তিনটি গুরুত্বপূর্ণ স্থলবন্দরে আসন্ন ঈদুল আযহার ছুটি ঘিরে ৯ দিন সব ধরনের পণ্য আমদানি-রফতানি বন্ধ থাকবে।

শুক্রবার থেকে আগামী ১৭ আগস্ট পর্যন্ত বন্দরগুলো বন্ধ ঘোষণা করেছে সংশ্লিষ্ট কাস্টমস ক্লিয়ারিং অ্যান্ড ফরোয়ার্ডিং এজেন্ট এসোসিয়েশন (সিএন্ডএফ)।

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি জানান, ঈদুল আযহা উপলক্ষ্যে জেলার সোনাহাট স্থলবন্দর দিয়ে শুক্রবার থেকে ১৭ আগস্ট পর্যন্ত টানা ৯ দিন আমদানি-রফতানি বন্ধ ঘোষণা করেছে সিএন্ডএফ।

সোনাহাট সিএন্ডএফ’র সাধারণ সম্পাদক মোস্তফা জামান জানান, ঈদুল আযহা উপলক্ষে বন্দরের কর্মকর্তাসহ বিভিন্ন সংগঠনকর্মীরা ছুটিতে থাকায় কার্যক্রম ৯ দিনের জন্য বন্ধ ঘোষণা করেছি।

১৮ আগস্ট থেকে যথারীতি আমদানি-রফতানি কার্যক্রম শুরু হবে বলেও জানান তিনি।

দিনাজপুর প্রতিনিধি জানান, পবিত্র ঈদুল আযহা এবং জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে টানা ৯ দিনের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা হয়েছে জেলার হিলি স্থলবন্দরের আমদানি-রফতানি কার্যক্রম।

শুক্রবার থেকে এই কার্যক্রম বন্ধ। তবে বন্দরের ইমিগ্রেশন চেকপোস্ট দিয়ে পাসপোর্টধারী যাত্রী পারাপার অব্যাহত থাকবে।

হিলি স্থলবন্দরের আমদানি-রফতানিকারক গ্রুপের সাধারণ সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান জানান, আগামী ১৭ আগস্ট সকাল থেকে যথারীতি আমদানি-রফতানি কার্যক্রম শুরু হবে।

লালমনিরহাট প্রতিনিধি জানান, ঈদুল আযহা উপলক্ষে টানা ৮ দিন ছুটিতে থাকবে লালমনিরহাটের পাটগ্রাম উপজেলার বুড়িমারী স্থলবন্দর।

শুক্রবার থেকে ১৬ আগস্ট পর্যন্ত বন্ধ থাকবে বন্দরের যাবতীয় আমদানি-রফতানি।

বুড়িমারী স্থলবন্দর আমদানি-রফতানিকারক এসোসিয়েশনের সভাপতি রুহুল আমীন বাবুল জানান, ঈদুল আযহা উপলক্ষে বুড়িমারী স্থলবন্দর ও ভারতের চ্যাংড়াবান্দা শুল্ক স্টেশন উভয় দেশের আমদানি-রফতানিকারক এসোসিয়েশনের যৌথ সিদ্ধান্তে ৯ থেকে ১৬ আগস্ট পর্যন্ত টানা ৮দিন ছুটি থাকবে। এজন্য টানা ৮ দিন বন্ধ থাকবে বন্দরের আমদানি-রফতানি কার্যক্রম। ১৭ আগস্ট যথারীতি সচল হবে বন্দরের যাবতীয় কার্যক্রম।

আইএম

 

রংপুর: আরও পড়ুন

আরও