কুড়িগ্রামে নদী তীরবর্তী ১০ হাজার মানুষ পানিবন্দী

ঢাকা, ১৯ জুলাই, ২০১৯ | 2 0 1

কুড়িগ্রামে নদী তীরবর্তী ১০ হাজার মানুষ পানিবন্দী

কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি ৭:০৬ অপরাহ্ণ, জুলাই ১১, ২০১৯

কুড়িগ্রামে নদী তীরবর্তী ১০ হাজার মানুষ পানিবন্দী

আষাঢ়ের বর্ষণধারা ও উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে কুড়িগ্রামের নদ-নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত রয়েছে। এই পানি বৃদ্ধিতে নদী তীরবর্তী নিম্নাঞ্চলের ঘর-বাড়িতে পানি ঢুকে পড়ায় পানিবন্দী হয়ে পড়েছে ২০টি গ্রামের প্রায় ১০ হাজার মানুষ।

নদ-নদীর পানি বৃদ্ধিতে নদী তীরবর্তী এলাকার রাস্তাঘাট তলিয়ে যাওয়ায় চলাচলে দুর্ভোগে পড়েছে এসব মানুষজন। কুড়িগ্রাম-যাত্রাপুর হাট সড়কের শুলকুর বাজার এলাকায় নির্মাণাধীণ ব্রিজের পাশের বাঁশের সাঁকো তলিয়ে উত্তরবঙ্গের ঐতিহ্যবাহী হাট যাত্রাপুরের সাথে যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে। ওই ব্রিজ দিয়ে এখন এলাকাবাসী নৌকায় পারাপার করছেন।

নদ-নদীর পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকলে আগামী ২৪ ঘন্টার মধ্যে পানি বিপদসীমা অতিক্রম করে ভয়াবহ বন্যা দেখা দিতে পাওে এমন আশঙ্কা করছেন এলাকাবাসী।

কুড়িগ্রাম পানি উন্নয়ন বোর্ডের নির্বাহী প্রকৌশলী আরিফুল ইসলাম জানিয়েছেন, গত ২৪ ঘন্টায় ধরলা নদীর পানি সেতু পয়েন্টে ৩৭ সেন্টিমিটার, তিস্তার পানি কাউনিয়া পয়েন্টে ১৩ সেন্টিমিটার, ব্রহ্মপুত্রের পানি নুনখাওয়া পয়েন্টে ৪৫ সেন্টিমিটার ও চিলমারী পয়েন্টে ৩৩ সেন্টিমিটার বৃদ্ধি পেয়েছে।

ওয়াইএএ/এএসটি

 

রংপুর: আরও পড়ুন

আরও