জমি লিখে না দেওয়ায় ‘বাপকে পিটিয়ে হত্যা’

ঢাকা, সোমবার, ২২ অক্টোবর ২০১৮ | ৭ কার্তিক ১৪২৫

জমি লিখে না দেওয়ায় ‘বাপকে পিটিয়ে হত্যা’

পাবনা প্রতিনিধি ৪:১২ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১২, ২০১৬

জমি লিখে না দেওয়ায় ‘বাপকে পিটিয়ে হত্যা’

পাবানায় জমিজমা সংক্রান্ত বিরোধে বৃদ্ধ বাবাকে পিটিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে সন্তানদের বিরুদ্ধে। শনিবার ভোরে ভাঙ্গুড়া উপজেলার বোয়ালমারী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। পুলিশ অভিযুক্ত ছেলেমেয়েকে আটক করেছে।

নিহত বৃদ্ধের নাম তোরাব সর্দার (৭০)। তিনি একই উপজেলার মণ্ডুতোষ গ্রামের মৃত ফয়েজ সর্দারের ছেলে। আটক দুই সন্তানের নাম সাদ্দাম হোসেন (২৪) ও মেয়ে ছাবিনা খাতুন (২০)।

ভাঙ্গুড়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আব্দুর রউফ জানান, তোরাব সরদার ও তার দুই সন্তানের মধ্যে জমিজমা নিয়ে কিছুদিন ধরে দ্বন্দ্ব চলছিল। শুক্রবার রাত ১০টার দিকে জমি লিখে দিতে বাবা তোরাব সর্দারকে চাপ দেন তারা। এ নিয়ে কথা কাটাকাটির একপর্যায়ে বাবা তোরাব সরদারকে বেদম মারধর করতে শুরু করে। এরই একপর্যায়ে গুরুতর আহত হলে স্থানীয়রা তোরাব সরদারকে উদ্ধার করে প্রথমে ভাঙ্গুড়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে শনিবার ভোরে রাজশাহী মেডিকেলে নেওয়ার পথে মারা যান বৃদ্ধ তোরাব সরদার।

ওসি রউফ আরো জানান, ঘটনার পরপরই জড়িত অভিযোগে ছেলে সাদ্দাম ও মেয়ে ছাবিনাকে আটক করেছে পুলিশ। তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে। পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাবনা জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

আরজে/একে