বিশ্বের সবচেয়ে বড় সাতটি স্মার্টফোন সংস্থা

ঢাকা, শনিবার, ১৮ আগস্ট ২০১৮ | ২ ভাদ্র ১৪২৫

বিশ্বের সবচেয়ে বড় সাতটি স্মার্টফোন সংস্থা

পরিবর্তন ডেস্ক ১০:৩৬ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ১৯, ২০১৮

print
বিশ্বের সবচেয়ে বড় সাতটি স্মার্টফোন সংস্থা

এখন সবার হাতে হাতে স্মার্টফোন। এই স্মার্টফোনের দৌলতে মানুষ জীবনযাত্রাতেও অনেক পরিবর্তন এসেছে। এই কথা মাথায় রেখে স্মার্টফোন সংস্থাগুলোও নিত্য নতুন টেকনোলজির ফোন বাজারে নিয়ে আসছে। আপনারা সেই স্মার্টফোন ব্যবহারও করছেন, কিন্তু কথা হচ্ছে আপনি কি জানেন বিশ্বের সব স্মার্টফোন সংস্থা কোনগুলি? সম্প্রতি কাউন্টারপয়েন্ট নামের একটি গবেষণা ও বিশ্লেষণ প্রতিষ্ঠানের সর্বশেষ রিপোর্ট মতে, বিশ্বের সবচেয়ে বড় সাতটি স্মার্ট কম্পানির মধ্যে চারটিই চিনের। এই বছরের দ্বিতীয় প্রান্তিকে (এপ্রিল-জুন) বিশ্ববাজারে কোন কম্পানির তরফে কতসংখ্যক স্মার্টফোন সরবরাহ করা হয়েছে সে নিরিখে কম্পানিগেুলোর র‌্যাঙ্কিং করে একটি তালিকাও তৈরি করেছে কাউন্টারপয়েন্ট। বিশ্ব স্মার্টফোন বাজারের প্রায় অর্ধেক, ৪৮ শতাংশই এখন চীনা কম্পানিগুলোর দখলে।

১. স্যামসাং

এবারও কাউন্টারপয়েন্টের তালিকার শীর্ষে রয়েছে দক্ষিণ কোরিয়ার এই সংস্থাটির নাম। এশিয়া ছাড়া বিশ্বের আর সব অঞ্চলের স্মার্টফোনের বাজারেই রেসের শীর্ষে আছে স্যামসাং। ল্যাটিন আমেরিকা, মধ্যপ্রাচ্য এবং আফ্রিকা, উত্তর আমেরিকা ও ইউরোপ সবজায়গাতেই স্যামসাংয় শীর্ষস্থানটি দখল করে রেখেছে। আর এশিয়াতে চিনা তিন সংস্থা অপ্পো, হুয়াওয়ে এবং ভিভোর পর চতুর্থ স্থানে রয়েছে স্যামসাং। বিশ্ববাজারে মোট সরবরাহকৃত স্মার্টফোনের ২২% শেয়ার স্যামসাংয়ের দখলে রয়েছে।

২. অ্যাপল

স্যামসাংয়ের সরবরাহকৃত স্মার্টফোনের অর্ধেক পরিমাণ স্মার্টফোন সরবরাহ করেছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অ্যাপল। আইফোন নির্মাতা এই প্রতিষ্ঠানটি উত্তর আমেরিকা এবং ইউরোপের স্মার্টফোন বাজারের দ্বিতীয় স্থান দখল করে রেখেছে। ল্যাটিন আমেরিকা এবং মধ্যপ্রাচ্য ও ইউরোপের বাজারের ৪% এবং ৫% এর দখলে রয়েছে। আর বিশ্ব বাজারের মোট ১১% এর দখলে।

৩. হুয়াওয়ে+অনার

চিনা কম্পানি হুয়াওয়ে এবং এর সাব-ব্র্যান্ড অনার প্রায় অ্যাপলের সমপরিমাণ স্মার্টফোন বাজারে সরবরাহ করেছে। এশিয়া এবং মধ্যপ্রাচ্য ও আফ্রিকার বাজারে দ্বিতীয় স্থানে আছে কোম্পানিটি। ইউরোপে এর অবস্থান তৃতীয়। আর ল্যাটিন আমেরিকায় আছে চার নম্বরে। আর বিশ্ববাজারের মোট ১১% এর দখলে। তবে জুন এর পর থেকে জুলাই এবং আগস্টে অ্যাপলকেও ছাড়িয়ে গেছে হুয়াওয়ের স্মার্টফোন বিক্রি। মধ্য ও পুর্ব ইউরোপে চীনা এই কম্পানিটি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের অ্যাপলকে ছাড়িয়ে গিয়েছে।

৪. অপ্পো

বিশ্ববাজারের ৮% সরবরাহ আরেক চিনা স্মার্টফোন কোম্পানি অপ্পোর দখলে। তবে এশিয়ায় এটি একেবারে শীর্ষে রয়েছে। এশিয়ার বাজারে স্মার্টফোন সরবরাহের ১৫% অপ্পোর দখলে। তবে বিশ্বের আরো কোনো অঞ্চলের বাজারে কম্পানিটি শীর্ষ পাঁচে উঠতে পারেনি। এশিয়া ছাড়া আর সবখানেই এটি পাঁচ এর পরে রয়েছে।

৫. ভিভো

সিস্টার কম্পানি অপ্পো থেকে মাত্র ১% কম সরবরাহ করে বিশ্ববাজারে স্মার্টফোনের মোট সরবরাহের ৭% নিজের দখলে রেখেছে চিনা সংস্থা ভিভো। এশিয়ার বাজারে অপ্পোর পরপরই কোম্পানিটি দ্বিতীয় শীর্ষস্থানে আছে। এশিয়ার বাজারে মোট স্মার্টফোন সরবরাহের ১৩% ভিভোর দখলে।

৬. জিয়াওমি

চিনা সংস্থা জিয়াওমি বিশ্ব বাজারের মোট স্মার্টফোন সরবরাহের ৬% শেয়ার দখল করে রেখেছে। আর শুধুমাত্র এশিয়ার বাজারেই কোম্পানিটি শীর্ষ পাঁচের মধ্যে রয়েছে। এশিয়ার বাজারে অপ্পো, হুয়াওয়ে, ভিভো এবং স্যামসাংয়ের পরই আছে জিয়াওমি।

৭. এলজি

দক্ষিণ কোরিয়ার অপর স্মার্টফোন কোম্পানি এলজি বিশ্ববাজারের ৪% দখল করে রেখেছে। এছাড়া ইউরোপের বাজারের মোট স্মার্টফোন সরবরাহের ৩% এবং ল্যাটিন আমেরিকার বাজারের ১০% রয়েছে এলজির দখলে।

তথ্য ও ছবি: কেএন

ইসি/

 
.


আলোচিত সংবাদ