মনোনয়নপত্র নিলেন আতিকুল

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ জুলাই ২০১৮ | ২ শ্রাবণ ১৪২৫

মনোনয়নপত্র নিলেন আতিকুল

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক ৩:৪০ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১৩, ২০১৮

print
মনোনয়নপত্র নিলেন আতিকুল

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের (ডিএনসিসি) উপ-নির্বাচনে অংশ নিতে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগ থেকে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন বিজিএমই’র সাবেক সভাপতি আতিকুল ইসলাম। শনিবার সকাল থেকে মনোনয়ন ফরম দেয়া শুরু করে আওয়ামী লীগ। চলবে ১৫ জানুয়ারি পর্যন্ত। শনিবার বিকেলে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ধানমন্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এসে আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক আবদুস সোবাহান গোলাপের কাছ থেকে আতিকুল ইসলামের পক্ষে তার পিএস মিজানুর রহমান মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করেন। এ সময় আতিকুল ইসলামের ভাই জাহাঙ্গির কবির যুবরাজ উপস্থিত ছিলেন। বিকেল পর্যন্ত ফরম সংগ্রহ করেন রাসেল আশেকী, আদম তমিজি হক, মনিপুরী স্কুলের অধ্যক্ষ ফরহাদ হোসেন ও অধ্যক্ষ শাহ আলম।

এর আগে গত বুধবার আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক আবদুস সোবাহান গোলাপ স্বাক্ষরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন উপ-নির্বাচনে মেয়র পদে বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশীদের আগামী ১৩, ১৪ ও ১৫ জানুয়ারি ২০১৮ যথাক্রমে শনি, রোব ও সোমবার সকাল ১১টা থেকে বিকাল ৫টার মধ্যে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করার আহবান জানানো হয়েছে।

২০১৫ সালের ২৮ এপ্রিল ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে ভোট হয়। আওয়ামী লীগের সমর্থনে ওই নির্বাচনে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশনের মেয়র নির্বাচিত হন ব্যবসায়ী নেতা আনিসুল হক। লন্ডনে চিকিৎসাধীন অবস্থায় গতবছরের ৩০ নভেম্বর তিনি মারা যান। এরপর স্থানীয় সরকার বিভাগ ১ ডিসেম্বর থেকে ওই পদটি শূন্য ঘোষণা করে।

গত ৯ জানুয়ারি ডিএনসিসি’র মেয়র পদে উপ-নির্বাচন, সম্প্রসারিত ১৮টি ওয়ার্ডে সাধারণ কাউন্সিলর ও ৬টি সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর এবং ডিএসসিসি’র সম্প্রসারিত ১৮টি ওয়ার্ডে সাধারণ কাউন্সিলর ও ৬টি সংরক্ষিত নারী কাউন্সিলর পদে নির্বাচনের জন্য তফসিল ঘোষণা করেন প্রধান নির্বাচন কমিশনার (সিইসি) কে এম নূরুল হুদা।

তফসিল অনুযায়ী, এই নির্বাচনে প্রার্থী হতে মনোনয়নপত্র কেনা ও জমা দেওয়া যাবে আগামী ১৮ জানুয়ারি পর্যন্ত। আবেদনকারী প্রার্থীদের মনোনয়নপত্র বাছাই হবে ২১ ও ২২ জানুয়ারি। তা প্রত্যাহারের শেষ তারিখ ২৯ জানুয়ারি।

নির্বাচনী আচরণবিধি অনুযায়ী, প্রতীক বরাদ্দের আগে কোনো প্রচার চালানো যায় না। সে অনুযায়ী ৩০ জানুয়ারি থেকে প্রার্থীরা প্রচারণা শুরু করতে পারবেন।

নির্বাচন কমিশনের তথ্যানুযায়ী, ডিএনসিসিতে বর্তমান ভোটার সংখ্যা ২৯ লাখ ৪৮ হাজার ৫৯০ জন। এর মধ্যে পুরুষ ১৫ লাখ ২২ হাজার ৭২৬ জন এবং নারী ভোটার ১৪ লাখ ২৫ হাজার ৭৮৪ জন। এর আগে ২০১৫ সালের নির্বাচনে এই সিটিতে মোট ভোটার ছিল ২৩ লাখ ৪৫ হাজার ৩৭৪ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ছিল ১২ লাখ ২৪ হাজার ৭০১ জন এবং নারী ভোটার ছিল ১১ লাখ ২০ হাজার ৬৭৩ জন।

কেইবিডি/আরপি

 
.



আলোচিত সংবাদ