খালেদার জামিন ইস্যুতে কর্মসূচি থেকে পিছু হটলো বিএনপি

ঢাকা, বুধবার, ২২ জানুয়ারি ২০২০ | ৯ মাঘ ১৪২৬

খালেদার জামিন ইস্যুতে কর্মসূচি থেকে পিছু হটলো বিএনপি

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক ১:১৯ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ০৪, ২০১৯

খালেদার জামিন ইস্যুতে কর্মসূচি থেকে পিছু হটলো বিএনপি

কারাবন্দী দলনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার জামিন ইস্যুতে আপাতত সবধরনের কর্মসূচি থেকে সরে এসেছে বিএনপি। বুধবার দলটির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী এক সংবাদ সম্মেলেনে কোন ধরনের কর্মসূচী ঘোষণা না করেই আইনী প্রক্রিয়া দেখে পরবর্তীতে কর্মসূচি ঘোষণার সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে বলে জানান।

রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে ড্যাব ঢাকা মহানগর উত্তর এ সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করে।

এসময় খালেদা জিয়ার জামিন না হলে বিএনপির কী কর্মসূচি হবে, সাংবাদিকদের এমন প্রশ্নের জবাবে রিজভী বলেন, দেখি না আগামীকাল কী হয়? আমরা আর কতদিন অপেক্ষা করবো? তিনি বলেন, আইনী প্রক্রিয়া দেখে কর্মসূচির সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। যখন গণতন্ত্রের জায়গা বন্ধ হয়ে যায়, তখন রাজপথেই তার সমাধান করতে হয়।

রুহুল কবির রিজভী বলেন, বাংলাদেশের মানুষের আস্থার প্রতীক দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়াকে সম্পূর্ণ বিনা অপরাধে ৬৬৫ দিন হলো অবৈধ ক্ষমতার জোরে কারারুদ্ধ করে রেখেছে। আইন-আদালত, ন্যায় বিচার , সংবিধান, মানবাধিকার, মৌলিক অধিকার, বয়স, অসুস্থতাসহ সকল বিবেচনায় চারবারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার জামিন পাওয়া আইনগত অধিকার। দেশ-বিদেশের আইনজ্ঞরা বলছেন, এই মামলায় জামিন না পাওয়া বিস্ময়কর। তিনি নিশ্চিতভাবেই জামিনের হকদার। গোটা বাংলাদেশের মানুষ অব্যাহতভাবে দাবী জানাচ্ছে তার জামিনের। অথচ স্বাভাবিক এই জামিন নিয়ে কত রকমের তালবাহানা করা হচ্ছে! সরকারদলীয় লোকেরা প্রকাশ্যে হুমকিও ঘোষনা দিয়ে জামিনে বাধা দিচ্ছে। দেশনেত্রীকে জেলে রেখে হত্যার হুমকীও দেয়া হচ্ছে।

তিনি বলেন, আগামীকাল বৃহস্পতিবার সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের পূর্ণাঙ্গ বেঞ্চ দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার জামিন শুনানি করবেন। আগামীকালের মধ্যে তার শারীরিক অবস্থার সবশেষ প্রতিবেদন দিতে বিএসএমএমইউ কর্তৃপক্ষকে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। ৭৫ বছর বয়সী দেশনেত্রীর স্বাস্থ্যের অবস্থা এতো ভয়ঙ্কর যে, এই মূহুর্তে তাকে মুক্তি দিয়ে উন্নত চিকিৎসার ব্যবস্থা করা না হলে জীবনহানীর চরম ঝুঁকি রয়েছে।

রিজভী বলেন, দেশনেত্রীকে নিয়ে সরকারের অশুভ ষড়যন্ত্রের আরেকটি জলজ্যান্ত প্রমান হলো গত ২৫ দিন ধরে তার সঙ্গে স্বজনদের সাক্ষাৎ করতে দেয়া হচ্ছে না। এটি জেলকোডের চরম লঙ্ঘন।

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব বলেন, আমরা বিশ্বাস করি-উচ্চ আদালত থেকে দেশনেত্রী ন্যায়বিচার পাবেন। বেগম খালেদা জিয়া দেশের সিনিয়র সিটিজেন, চারবারের সাবেক প্রধানমন্ত্রী, দুইবারের বিরোধী দলীয় নেতা ও দেশের জনপ্রিয় শীর্ষ রাজনীতিবিদ এবং গুরুতর অসুস্থ।

এমএইচ/এফএ

 

রাজনীতি: আরও পড়ুন

আরও