ঢাকা মহানগর উত্তর সেবকলীগে আসছে নতুন মুখ

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯ | ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

ঢাকা মহানগর উত্তর সেবকলীগে আসছে নতুন মুখ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক ৭:৫৩ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ০৬, ২০১৯

ঢাকা মহানগর উত্তর সেবকলীগে আসছে নতুন মুখ

আসছে ১২ নভেম্বর রাজধানীর খামারবাড়িতে ঢাকা মহানগর উত্তর স্বেচ্ছাসেবক লীগের সম্মেলন। এই সম্মেলনকে ঘিরে যাবতীয় প্রস্তুতি নেয়া হচ্ছে।

জানা গেছে, পরিচ্ছন্ন ইমেজ ও দুর্দিনের সারথীদের সামনে আনতে চায় দল। কর্মীবান্ধব ও সাবেক ছাত্রনেতাদের নেতৃত্বে চায় নেতাকর্মীরা।

সে অনুযায়ী নেতৃত্ব বাছাইয়ে আভ্যন্তরীণ কাজ শেষের পথে। ইতিমধ্যে সংগঠনের নেতারা নিজেদের অবস্থান জানান দিয়েছেন।

পাশাপাশি কৃষিবিদ ইনস্টিটিউশনের বাইরের মাঠে সম্মেলন মঞ্চ তৈরি, প্রধান অতিথি থাকবেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরসহ সবাইকে দাওয়াত দেয়াসহ নানা প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে।

এসবের পাশাপাশি নেতাদের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন প্রার্থীরা। তবে আওয়ামী লীগের সহযোগী সংগঠন স্বেচ্ছাসেবক লীগের ঢাকার এই গুরুত্বপূর্ণ শাখায় সাবেক ছাত্রনেতারদের প্রাধান্য দেয়া হবে বলে সূত্র নিশ্চিত করেছে।

জানা যায়, স্বেচ্ছাসেবক লীগের গুরুত্বপূর্ণ এই ইউনিটের সভাপতি-সম্পাদকের দায়িত্বে আসতে ডজনখানেক নেতা জোর চেষ্টা চালাচ্ছেন। তাদের মধ্যে বেশ এগিয়ে ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি ইসহাক মিয়া, স্বেচ্ছাসেবক লীগ ঢাকা মহানগর উত্তরের বর্তমান সাধারণ সম্পাদক ফরিদুর রহমান খান ইরান, সহ-সভাপতি গোলাম রাব্বানী ও সাংগঠনিক সম্পাদক মনোয়ারুল ইসলাম বিপুল। এছাড়াও পদের জন্য জোর চেষ্টা চালাচ্ছেন মোহাম্মদপুর থানা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহিদুল হক বাবু, মহানগর উত্তর স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম সম্পাদক আফরোজ হাবীব জুয়েল ও হাবিবুর রহমান পান্না।

এ বিষয়ে সাবেক ছাত্রনেতা ও স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মনোয়ারুল ইসলাম বিপুল পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর শুদ্ধি অভিযানকে স্বাগত জানিয়ে যারা শুদ্ধ রাজনীতিচর্চায় সহাসিকতার সঙ্গে এগিয়ে আসবে, তারাই নেতৃত্বে আসুক, এটা আমরা চাই।’

তিনি বলেন, ‘ব্যক্তিগতভাবে ছাত্রলীগ থেকে বিদায় নেয়ার পর থেকে গত ৯ বছর এই সংগঠনে সক্রিয়ভাবে কাজ করে যাচ্ছি। কোথাও কোনো গ্যাপ হয়নি, হারিয়েও যাইনি। আমাদের নেতারা সবই জানেন। তারা যদি দায়িত্ব দেন বিগত দিনের মতোই সক্রিয় থেকে সততা ও নিষ্ঠার সঙ্গে দায়িত্ব পালন করবো।’

মোহাম্মদপুর থানা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক জাহিদুল হক বাবু বলেন, ‘ঢাকা মহানগর উত্তর ছাত্রলেীগের আইন সম্পাদক ছিলাম। ছাত্রজীবন থেকে এই মহানগরে রাজনীতি করছি। সংগঠনের প্রয়োজনে যেকোনো ডাকে আমি সাড়া দিয়েছি। সামনের দিকেও যেকোনো দায়িত্ব দিলে যথাযথভাবে দায়িত্ব পালন করবো।’

স্বেচ্ছাসেবক লীগের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও আওয়ামী লীগের সাংগঠনকি সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, ‘আগামী দিনে নেতৃত্ব বাছাইয়ের ক্ষেত্রে আমরা গুরুত্ব দেবো- যাকে নিয়ে কোনো বিতর্ক নাই, নীতি আদর্শের প্রতি নির্ভেজাল, এমন নেতাদের। আমরা চাই, সৎ ও জননেত্রী শেখ হাসিনার সারথী হিসেবে থাকার মতো এবং দীর্ঘদিন এ সংগঠন করে পরীক্ষিত, এমন নেতৃত্ব আসুক। ’

এসইউজে/এইচআর

 

পরিবর্তন বিশেষ: আরও পড়ুন

আরও