বামজোটের কর্মসূচিতে পুলিশের লাঠিচার্জ

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ ডিসেম্বর ২০১৮ | ২৯ অগ্রহায়ণ ১৪২৫

বামজোটের কর্মসূচিতে পুলিশের লাঠিচার্জ

পরিবর্তন প্রতিবেদক ৩:৩৪ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২০, ২০১৮

বামজোটের কর্মসূচিতে পুলিশের লাঠিচার্জ

জনগণের ভোটাধিকার রক্ষা ও সুষ্ঠু নির্বাচনের দাবিতে বাম গণতান্ত্রিক জোটের নির্বাচন কমিশন (ইসি) ঘেরাও কর্মসূচিতে বাধা দিয়েছে পুলিশ।

এসময় পুলিশের লাঠিচার্জে গণসংহতি আন্দোলনের সমন্বয়ক জোনায়েদ সাকি ও ছাত্র ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি গোলাম মোস্তফাসহ বেশ কয়েকজন আহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার দুপুর দেড়টার দিকে রাজধানীর শাহবাগ থেকে নির্বাচন কমিশনে যাওয়ার সময় কারওয়ানবাজার ক্রসিংয়ের কাছে ব্যারিকেড দিয়ে তাদের বাধা দেয় পুলিশ। তখন নেতাকর্মীরা ব্যারিকেড ভেঙে এগিয়ে যেতে চাইলে পুলিশের সঙ্গে ধস্তাধস্তি ও ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এক পর্যায়ে পুলিশ নেতাকর্মীদের লাঠিচার্জ করে ছত্রভঙ্গ করে দেয়।

গণসংহতি আন্দোলনের প্রধান সমন্বয়ক জুনায়েদ সাকি পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, পূর্বঘোষিত নির্বাচন কমিশন ঘেরাও কর্মসূচি অনুযায়ী মিছিল নিয়ে কারওয়ান বাজার এলাকায় গেলে পুলিশ আমাদের বাধা দেয়। এক পর্যায়ে পুলিশ কেন্দ্রীয় নেতাদের ওপর লাঠিচার্জ করে। এ ঘটনায় অন্তত ৫০ থেকে ৬০ জন আহত হয়েছেন। 

ছাত্র ফেডারেশনের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য শুভ দেব পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, দুপুরে পূর্ব ঘোষিত কর্মসূচির অংশ হিসেবে নির্বাচন কমিশন ঘেরাওয়ের মিছিল নিয়ে যাত্রা করা হয়। প্রেসক্লাব থেকে শাহবাগ মোড় হয়ে কারওয়ান বাজার মোড়ে গেলে মিছিল পুলিশি বাধার মুখে পড়তে হয়। এসময় পুলিশ নেতাকর্মীদের লাঠিচার্জ করে। এতে জোনায়েদ সাকি, গোলাম মোস্তফাসহ অনেক আহত হন।

তেজগাঁও জোনের সহকারী কমিশনার (এসি) সালমান হাসান পরিবর্তন ডটকমকে বলেন, মিছিল নিয়ে নেতাকর্মীরা এগিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করলে নিরাপত্তার স্বার্থে পুলিশ তাদের যেতে নিষেধ করে। এ সময় তারা যাওয়ার চেষ্টা করলে সামান্য উত্তেজনার সৃষ্টি হয়। তবে কিছুক্ষণের মধ্যেই পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়ে আসে।

পিএসএস/এএসটি