সড়কে নতুন আইন বাস্তবায়ন শুরু

ঢাকা, শনিবার, ১৪ ডিসেম্বর ২০১৯ | ৩০ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

সড়কে নতুন আইন বাস্তবায়ন শুরু

পরিবর্তন প্রতিবেদক ১:৪৫ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ০২, ২০১৯

সড়কে নতুন আইন বাস্তবায়ন শুরু

ফাইল ছবি

নতুন ‘সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮’ গত ১ নভেম্বর থেকে কার্যকর হলেও এতদিন এই আইনে মামলা করা হয়নি। গত দুই-তিনদিন ধরে সড়কে নতুন এই আইনের প্রয়োগ করা হচ্ছে।

ডিএমপির ট্রাফিক বিভাগ জানিয়েছে, তাদের আওতায় থাকা ২৩টি অঞ্চলের প্রতিটিতে একটি করে দল গঠন করে

প্রাথমিকভাবে নতুন এই আইনের প্রয়োগ করা শুরু হয়েছে। আপাতত সাবধানতার সঙ্গে মামলা দেওয়া হচ্ছে। তবে ধীরে ধীরে মামলার কার্যক্রম বাড়ানো হবে।

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, গত বৃহস্পতিবার থেকে ঢাকায় নতুন সড়ক আইনের প্রয়োগ শুরু করে ডিএমপির ট্রাফিক পূর্ব বিভাগ। গতকাল রোববার পর্যন্ত এই বিভাগটি নতুন আইনে ১০/১২ টি মামলা করেছে।

অন্যদিকে গত শনিবার থেকে ট্রাফিক পশ্চিম বিভাগ মামলা দেওয়া শুরু করেছে। প্রথম দিন বিজয় সরণি মোড়ে তারা পাঁচটি মামলা দিয়েছেন। উল্টোপথে চলাচল করা এবং ড্রাইভিং লাইসেন্স নেই এমন মোটরসাইকেল, প্রাইভেট কার ও পিকআপকে এই মামলা দেওয়া হয়েছে।

এছাড়া রোববার মিরপুর, গাবতলী, পল্লবী ও শ্যামলীতে মামলা দেওয়া হয়েছে। এ ক্ষেত্রে যারা বাস স্টপেজ থাকা সত্ত্বেও মানছে না বা যেখান সেখান থেকে যাত্রী তুলছে, তাদের আইনের আওতায় আনা হয়েছে।

ট্রাফিক উত্তর বিভাগেও রোববার থেকে মামলা দেয়া শুরু হয়েছে। তবে ব্যাতিক্রম দক্ষিণ বিভাগ। ট্রাফিকের এই বিভাগে এখনও নতুন সড়ক আইনে মামলা দেয়ার কাজ শুরু হয়নি। মামলা দেওয়ার বই এই বিভাগের প্রতিটি পয়েন্টে পৌঁছে দেয়া হচ্ছে। এই কার্যক্রম শেষ হলেই মামলা দেওয়া শুরু হবে।

ট্রাফিক পশ্চিম বিভাগের অতিরিক্ত উপকমিশনার মো. মনজুর মোর্শেদ বলেন, আমরা খুব সতর্কতারা সাথে নতুন সড়ক আইনের করছি। ব্যস্ত সময়গুলোতে মামলা দেয়ার বিষয়টি আমরা আপাতত এড়িয়ে চলছি। রাস্তায় যখন যানচলাচল কম এমন সময় কেউ আইনভঙ্গ করলে আমরা সতর্কতার সাথে মামলা করছি। মামলার বিষয়টি এখনও সরাসরি ট্রাফিক সার্জেন্টদের কাছে ছেড়ে দেয়া হয়নি। অন্তত একজন সহকারী কমিশনার ঘটনাস্থলে থাকছেন, তার উপস্থিতিতেই পুরো কার্যক্রম চলছে।

ট্রাফিক পূর্ব বিভাগের উপকমিশনার মইনুল হাসান বলেন, আমরা শনিবার থেকে নতুন আইনের প্রয়োগ শুরু করেছি। রোববার পর্যন্ত ১০/১২ মামলা হয়েছে। তবে পুরোপুরিভাবে নতুন আইন প্রয়োগের কার্যক্রম এখনও শুরু হয়নি।

পিএসএস/এইচকে

 

জাতীয়: আরও পড়ুন

আরও