সাইবার অপরাধ দমনে পুলিশকে দক্ষ হতে হবে : প্রধানমন্ত্রী

ঢাকা, শুক্রবার, ১৭ আগস্ট ২০১৮ | ২ ভাদ্র ১৪২৫

সাইবার অপরাধ দমনে পুলিশকে দক্ষ হতে হবে : প্রধানমন্ত্রী

রাজশাহী ব্যুরো ১:৫২ অপরাহ্ণ, মে ১৬, ২০১৮

print
সাইবার অপরাধ দমনে পুলিশকে দক্ষ হতে হবে : প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘বিশ্বব্যাপী অপরাধের ধরনের পরিবর্তন হয়েছে। নিত্যনতুন অপরাধ দমনে পুলিশ সদস্যদের আরো তৎপর হতে হবে। বিশেষ করে সাইবার অপরাধ দমনে পুলিশকে আরো দক্ষ হতে হবে। এ জন্য বর্তমান সরকার ২০০৯ সাল থেকে পুলিশের আধুনিকায়নে বিভিন্ন পরিকল্পনা গ্রহণ করে তা বাস্তবায়ন করছে।’

বুধবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে রাজশাহী চারঘাটের সারদায় বাংলাদেশ পুলিশ অ্যাকাডেমিতে ৩৫তম বিসিএসসের এএসপিদের সমাপনী কুচকাওয়াজ পরিদর্শন ও অভিবাদন গ্রহণ শেষে নবীন পুলিশ কর্মকর্তাদের উদ্দেশে দিকনির্দেশনামূলক বক্তব্য রাখতে গিয়ে তিনি এসব কথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘জঙ্গিবাদ সারা বিশ্বের সমস্যা। আমরা দক্ষতার সাথে জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসবাদ নিয়ন্ত্রণ করতে সক্ষম হয়েছি। জঙ্গিবাদ দমনে বাংলাদেশ পুলিশের অব্যাহত সাফল্য শুধু দেশই নয়, আন্তর্জাতিক অঙ্গনেও ব্যাপক প্রশংসিত হয়েছে। আগামীতে এদেশের মাটিতে জঙ্গি, সন্ত্রাসী ও যুদ্ধাপরাধীদের ঠাই হবে না।’

তিনি বলেন, ‘দেশের পুলিশেরা অভ্যন্তরীণ শান্তি-শৃঙ্খলা, জননিরাপত্তা বিধান, আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা, সন্ত্রাস ও অপরাধ দমন, গণতন্ত্র ও মানবাধিকার সমুন্নত রাখার পাশাপাশি বিনিয়োগবান্ধব পরিবেশ বজায় রাখতে নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছেন। দুই যুগেরও বেশী সময় ধরে বাংলাদেশ পুলিশ জাতিসংঘে শান্তি মিশনে দক্ষতা ও পেশাদারিত্বের সঙ্গে দায়িত্ব পালন করে বহির্বিশ্বে প্রশংসা অর্জন করেছে।’

প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, ‘মানুষ বিপদের সময় সাহায্যের জন্য পুলিশের কাছে আসেন। তাই সেবা ও মানবিক আচরণের মাধ্যমে মানুষের আস্থা অর্জনে সচেষ্ট থাকতে হবে। দায়িত্ব পালনের সময় জনগণের মৌলিক অধিকার, মানবাধিকার ও আইনের শাসনকে সর্বাধিক গুরুত্ব দিতে হবে।’

তিনি আরো বলেন, ‘আমরা দেশের আইনের শাসন ও ন্যায়বিচার নিশ্চিত করে উন্নয়নকে টেকসই করতে চাই। এ ক্ষেত্রে পুলিশের ভূমিকা সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ। বাংলাদেশ পুলিশের নবীন কর্মকর্তারা সততা ও নিষ্ঠার সঙ্গে প্রশিক্ষণলব্ধ জ্ঞান ও অভিজ্ঞতাকে কাজে লাগিয়ে ‘রূপকল্প’-২০১২ এবং ‘রূপকল্প’-২০৪১ বাস্তবায়নে আগ্রহী ভূমিকা পালন করবেন।’

এর আগে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা একদিনের সরকারি সফরে বেলা ১১টা ২০ মিনিটে বিমান বাহিনীর একটি বিশেষ হেলিকপ্টারে রাজশাহীর চারঘাট উপজেলার সারদায় পৌঁছান।

৩৫তম বিসিএস (পুলিশ) ক্যাডারের ১২৩ জন সহকারী পুলিশ সুপার প্রশিক্ষণ শেষে কর্মক্ষেত্রে যোগ দেবেন। এর মধ্যে ১৮ জন নারী রয়েছেন। 

শিক্ষানবিস সহকারি পুলিশ সুপারদের সমাপনী কুচকাওয়াজে উপস্থিত ছিলেন- স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল, পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) মোহাম্মদ জাবেদ পাটোয়ারী।

অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা এইচ টি ইমাম, পাট ও বস্ত্রমন্ত্রী ইমাজ উদ্দিন প্রামানিক, পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম, আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কমিটির অন্যতম সদস্য এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনসহ বিভিন্ন পর্যায়ের পুলিশের কর্মকর্তারা।

বিএইচএস/এসএফ/এএসটি

 
.


আলোচিত সংবাদ