সবার নজর হাইকোর্টের তৃতীয় বেঞ্চে

ঢাকা, রবিবার, ২৪ মার্চ ২০১৯ | ৯ চৈত্র ১৪২৫

সবার নজর হাইকোর্টের তৃতীয় বেঞ্চে

আদালত প্রতিবেদক ১২:০০ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ১৩, ২০১৮

সবার নজর হাইকোর্টের তৃতীয় বেঞ্চে

পক্ষ-বিপক্ষসহ সব মানুষের নজর এখন হাইকোর্টের তৃতীয় বেঞ্চের দিকে। আজ বৃহস্পতিবার এই তৃতীয় বেঞ্চেই ফয়সালা হবে বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার নির্বাচনে অংশ নিতে পারবেন কি না।

দুপুর ২টার পর বিচারপতি জে বি এম হাসানের নেতৃত্বাধীন বেঞ্চে এই শুনানি হতে পারে। তবে তৃতীয় বেঞ্চের রায়ে প্রার্থিতা ফেরত না পেলে আপিল বিভাগে যেতে পারবেন খালেদা জিয়া।

সেক্ষেত্রে নির্বাচন কমিশনও তাদের সিদ্ধান্তের (খালেদার প্রার্থিতা বাতিল) পক্ষে আপিল বিভাগে যাওয়ার সুযোগ কাজে লাগাতে পারে।

তিনটি আসনে প্রার্থিতা ফিরে পেতে খালেদা জিয়ার করা পৃথক রিট শুনানি ও নিষ্পত্তির জন্য গতকাল বুধবার বিকেলে ওই তৃতীয় বেঞ্চ ঠিক করে দেন প্রধান বিচারপতি সৈয়দ মাহমুদ হোসেন।

প্রসঙ্গত, গত মঙ্গলবার বিচারপতি সৈয়দ রেফাত আহমেদ ও বিচারপতি মো. ইকবাল কবিরের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চে বিভক্ত আদেশ হয়। বেঞ্চের জ্যেষ্ঠ বিচারপতি রুল জারি করে মনোনয়নের পক্ষে মত দেন। বেঞ্চের অপর বিচারপতি মো. ইকবাল কবির তা গ্রহণের পক্ষে ছিলেন না। গতকাল এ বিভক্ত আদেশের নথি প্রধান বিচারপতির দপ্তরে পৌঁছানো হয়। কিন্তু দুপুরের দিকে সেই নথি বিভক্ত আদেশদানকারী বিচারপতি সৈয়দ রেফাত আহমেদ ও বিচারপতি মো. ইকবাল কবিরের সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চে ফেরত পাঠানো হয়। বিভক্ত আদেশের কারণ স্পষ্ট করার জন্য নথি ফেরত পাঠালে তা দ্রুত তামিল হয়।

নথি পুনরায় ফেরত পাওয়ার পর পরই তৃতীয় বেঞ্চ গঠনের উদ্যাগ নেন প্রধান বিচারপতি।

উল্লেখ্য, ফেনী-১ এবং বগুড়া-৬ ও ৭ আসন থেকে নির্বাচনে অংশ নিতে মনোনয়নপত্র সংগ্রহ করেছেন কারাবন্দী খালেদা জিয়া।

তফসিল অনুযায়ী আগামী ৩০ ডিসেম্বর একাদশ জাতীয় নির্বাচনের ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

ওএস/আরপি