শৈলকুপায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে সংঘর্ষে নারীসহ আহত ১০

ঢাকা, শনিবার, ৯ নভেম্বর ২০১৯ | ২৪ কার্তিক ১৪২৬

শৈলকুপায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে সংঘর্ষে নারীসহ আহত ১০

ঝিনাইদহ প্রতিনিধি ৬:৫৪ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৯, ২০১৯

শৈলকুপায় আধিপত্য বিস্তার নিয়ে সংঘর্ষে নারীসহ আহত ১০

ঝিনাইদহের শৈলকুপায় সামাজিক আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দু’দল গ্রামবাসীর সংঘর্ষে ৩ নারীসহ অন্তত ১০ জন আহত হয়েছে। আতদের উদ্ধার করে শৈলকুপা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করা রয়েছে। এ ঘটনায় ৩ জনকে আটক করেছে পুলিশ। শনিবার উপজেলার সারুটিয়া ইউনিয়নের তেঘড়িয়া গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, তেঘড়িয়া গ্রামের মৃত আলিম উদ্দিনের ছেলে ফিরোজ ও মিরাজ দুই ভাই দুটি সামাজিক দলে বিভক্ত। সারুটিয়া ইউনিয়নের পরাজিত চেয়ারম্যান প্রার্থী জুলফিকার কাইসার টিপুর প্রতিনিধি ঝন্টু মাতব্বরের সামাজিক দলে রয়েছে মিরাজ ও বর্তমান চেয়ারম্যান মাহমুদুল হাসান মামুনের প্রতিনিধি শাফিক মাতব্বরের দলে রয়েছে তার ভাই ফিরোজ।

শনিবার দুপুরে দুই ভাইয়ের মধ্যে পারিবারিক কলহের জের ধরে বাকতিবতন্ডার সৃষ্টি হয়। এরই সূত্র ধরে ঝন্টু ও শফিক মাতব্বরের লোকজনের মধ্যে সংঘর্ষ শুরু হয়। এ সময় উভয় পক্ষের লোকজন দেশীয় তৈরী ঢাল, সুড়কি, রামদা ও বল্লভ নিয়ে সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে।

সংঘর্ষে রুমি, সোনিয়া, লতিফা, রুবেল, আব্দুল হাকিম, ইউনুস ও মিরাজসহ অন্তত ১০ জন আহত হয়।

শৈলকুপা থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) বজলুর রহমান জানান, তেঘড়িয়া গ্রামে দু’দল গ্রামবাসীর সংঘর্ষে মহিলাসহ বেশ কয়েকজন আহত হয়েছে। ঘটনাস্থলে পুলিশ মোতায়েন করায় পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। ঘটনাস্থল থেকে আটক হওয়া ৩ জনের কাছ থেকে ঢাল, সুড়কি ও রামদা উদ্ধার করা হয়েছে।

এসএএস/এসএস

 

খুলনা: আরও পড়ুন

আরও