ঈদে সাতক্ষীরার চমক ‘রাজা ও বাবু’ (ভিডিও)

ঢাকা, সোমবার, ১৪ অক্টোবর ২০১৯ | ২৯ আশ্বিন ১৪২৬

ঈদে সাতক্ষীরার চমক ‘রাজা ও বাবু’ (ভিডিও)

ইব্রাহিম খলিল, সাতক্ষীরা ১১:২১ পূর্বাহ্ণ, আগস্ট ০৬, ২০১৯

নাম রাজা ও বাবু। দেখতে রাজার মতোই। খাওয়া-দাওয়ার হালও রাজারই।

আসন্ন ঈদুল আযহা উপলক্ষে সাতক্ষীরা জেলায় সবচেয়ে বড় গরু এই রাজা ও বাবু। গরু দুটি ওজন প্রায় ৫০ মণ।

ঈদুল আযাহা উপলক্ষে সাতক্ষীরায় খামারিরা শেষ মুহূর্তে পশুগুলোর যত্ন নিচ্ছেন। আকার এবং ওজন দেখে দাম কম-বেশি হাকছেন। যার গরু সবচেয়ে বড় ও ওজনে বেশি, তারই কদর বেশি।

সাতক্ষীরা সদরের গোয়ালপোতা গ্রামের কৃষ্ণপদ সরকার দীর্ঘ ৪ বছর ধরে পালন করে আসছে  হলস্টেইন ফিজিয়ান জাতের ২টি গরু, যার একটির নাম রাজা, অন্যটি বাবু।

কোরবানির ঈদকে সামনে রেখে খামারি কৃষ্ণপদ সরকার  গরু ২টির দাম হাঁকছেন ২০ লাখ টাকার উপরে। এই গরু দুটিই সাতক্ষীরার সবচেয়ে বড় আকারের ও বেশি ওজনের বলে দাবি তার।

কিছুদিন দিন আগে ঢাকার এক বেপারি এসে গরু ২টির দাম ১৩ লাখ টাকা করে বললেও রাজি হননি কৃষ্ণপদ। ঈদের বাকি আর কয়েক দিন, গরু দুটি দেখতে আসছেন অনেকেই। খামার মালিকের আশা ন্যায্য মূল্যই তিনি পাবেন।

কৃষ্ণপদ সরকার বলেন, উত্তরাঞ্চলে বন্যার কারণে এবার গরুর তেমন দাম পাওয়া যাচ্ছে না। বিশাল আকারের গরু দুটির পরিচর্যা করতে খুবই কঠিন সময় গেছে। এখন ন্যায্য দাম পেলে মন শান্ত হবে।’

তিনি বলেন, ‘রাজার ওজন ২৫ মণ। আর বাবুর ওজন ২০ মণ। বর্তমানে দিনে ৩বার গোসল করাতে হয়। সারা দিনই তাদের যত্নে লোক থাকতে হয়।’

কৃষ্ণপদ জানান, রাজা ও বাবু ছাড়াও তার খামারে আরও ১০টি গরু আছে। কিন্তু, শুধু রাজা ও বাবুর পেছনেই বছরে ৫ থেকে ৩ লাখ টাকা খরচ হয়েছে।

তিনি আরও জানান, এক বস্তা ভুসিতে মাত্র দু’দিন হয় রাজা ও বাবুর। দেখতে যেমন, তারা খাবারও রাজার মতোই খাই। এই কারণেই তাদের নাম রাজা ও বাবু রেখেছেন বলে জানান কৃষ্ণপদ সরকার।

আইকে/আইএম

 

পরিবর্তন বিশেষ: আরও পড়ুন

আরও