মা গিয়ে দেখেন মৃতদেহটি তার ছেলের

ঢাকা, বুধবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৯ | ২৯ কার্তিক ১৪২৬

মা গিয়ে দেখেন মৃতদেহটি তার ছেলের

নড়াইল প্রতিনিধি ১:৩৬ অপরাহ্ণ, জুন ১৭, ২০১৯

মা গিয়ে দেখেন মৃতদেহটি তার ছেলের

নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার কাশিপুর ইউনিয়নের গিলাতলা গ্রামে নাজমুল ইসলাম দুখু (৪৫) নামে এক ব্যক্তির মৃতদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

সোমবার (১৭ জুন) সকালে ওই গ্রামের মকছেদ মল্লিকের নির্মাণাধীন বাড়ীর সামনে থেকে মৃতদেহটি উদ্ধার করে।

নাজমুল গিলাতলা গ্রামের মোসলেম শেখের ছেলে। তিনি পেশায় একজন কৃষক। পুলিশ ও এলাকাবাসী মনে কারছেন পরকীয়া সম্পর্কের কারণে এ খুনের ঘটনা ঘটতে পারে।

নাজমুলের মা অতিরণ বেগম পরিবর্তন ডটকমকে অভিযোগ করেন বলেন, পাশের বাড়ীর গোলাম নবীর স্ত্রীর সাথে নাজমুলের পরকীয়া ছিল। এ নিয়ে অনেক সালিশ বিচার হয়েছে। এসব ঝামেলার কারণে আমার ছেলে নলদী ইউনিয়নের নোয়াপাড়া গ্রামে গিয়ে বসবাস করে। সেখানে কৃষি কাজ করে স্ত্রী সন্তান নিয়ে বসবাস করত।

তিনি আরো বলেন, নাজমুল রোববার সকালে বাড়ী থেকে বের হয়। তার পর থেকে তার আর খোঁজ পাওয়া যায়নি। আমি ভোরে বাড়ি থেকে বসুপটি যাবার সময় মোকছেদের নির্মাণাধীন বাড়ির সামনে একটি মৃতদেহ দেখতে পাই। তখন পাশের বাড়ি গিয়ে আরো লোকজন ডেকে এনে দেখতে পাই আমার ছেলে পড়ে আছে।’ 

লোহাগড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মোকাররম হোসেন পরিবর্তন ডটকমকে জানান, স্থানীয় লোকজনের ফোনের মাধ্যমে ঘটনা জানতে পারি। সকালে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে মৃতদেহের সুরতহাল প্রতিবেদন শেষে ময়নাতদন্তের জন্য নড়াইল সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে।

ওসি জানান, মৃতদেহের শরীরে কোনো আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। তবে তার পরিহিত কাপড় ভিজা ছিল। ধারণা করা হচ্ছে পানিতে ডুবিয়ে হত্যা করা হতে পারে। তবে ময়নাতদন্ত প্রতিবেদন পেলে মৃত্যুর সঠিক কারণ জানা যাবে।

এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

এএস/এএসটি

 

খুলনা: আরও পড়ুন

আরও