পাটকল শ্রমিকদের আন্দোলন স্থগিত

ঢাকা, রবিবার, ১৬ জুন ২০১৯ | ২ আষাঢ় ১৪২৬

পাটকল শ্রমিকদের আন্দোলন স্থগিত

খুলনা ব্যুরো ৭:৪৩ অপরাহ্ণ, মে ২১, ২০১৯

পাটকল শ্রমিকদের আন্দোলন স্থগিত

ফাইল ছবি

তিনটি শর্তে পাটকল শ্রমিকদের চলমান আন্দোলন এক সপ্তাহের জন্য স্থগিত করা হয়েছে।

মঙ্গলবার দুপুরে খুলনার জেলা প্রশাসন, বিজেএমসি ও শ্রমিকদের মধ্যে ত্রিপক্ষীয় বৈঠকে টানা ১৫ দিন চলার পর এ আন্দোলন স্থগিত করা হলো।

বৈঠক শেষে পাটকল শ্রমিক লীগের খুলনা ও যশোর অঞ্চলের আহ্বায়ক মুরাদ হোসেন এ ঘোষণা দেন।

সে মোতাবেক মঙ্গলবার সন্ধ্যা ছয়টা থেকে শ্রমিকরা কাজে যোগদান করেছেন।

সূত্র জানায়, খুলনা ও যশোর অঞ্চলের নয়টি সরকারি পাটকলে শ্রমিক আন্দোলন নিয়ে বৈঠক অনুষ্ঠিত হয় জেলা প্রশাসকের সম্মেলন কক্ষে।

৪ ঘণ্টা আলোচনার পর শ্রমিকরা চলতি সপ্তাহে দুটি বকেয়া এবং এক সপ্তাহের মধ্যে পুরো বকেয়া প্রদানের পাশাপাশি বুধবার বন্ধ মিলগুলোতে কর্মরতর শ্রমিকদের হাতে মজুরি কমিশন বাস্তবায়ন করে পে স্লিপ প্রদানের শর্তে আন্দোলন স্থগিতের ঘোষণা দেন।

বাংলাদেশ পাটকল কর্পোরেশন (বিজেএমসি)’র সূত্র জানান, বিগত পনের দিনে খুলনা-যশোর অঞ্চলের নয়টি রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকলে উৎপাদন ক্ষতি হয়েছে প্রায় ১৫ মেট্রিকটন পাটজাত পণ্য। অর্থাৎ যার বিক্রয়মূল্য হিসাব করলে দাঁড়ায় ১৫ কোটি টাকা। খুলনা-যশোর অঞ্চলের নয়টি রাষ্ট্রায়ত্ত পাটকলে এ পর্যন্ত শুধুমাত্র শ্রমিকদের মজুরি বকেয়া পড়েছে ৪২ কোটি আর কর্মকর্তা-কর্মচারীদের এপ্রিল মাস পর্যন্ত বকেয়া বেতনের পরিমাণ ১৬ কোটি টাকা। অর্থাৎ প্রায় ৬০ কোটি টাকা বকেয়া পড়েছে শুধুমাত্র মজুরি ও বেতন। পক্ষান্তরে নয় মিলের উৎপাদিত পণ্য মজুদ রয়েছে তিনশ’ কোটি টাকারও বেশি।

উল্লেখ্য, গত ৫ মে থেকে খুলনা-যশোর অঞ্চলের নয়টি পাটকলে কর্মবিরতি শুরু হয়। ১৩ মে থেকে সারাদেশের ২৬টি পাটকলে এ কর্মবিরতি ছড়িয়ে পড়ে।

এসবি