গুনাহমুক্ত হতে নিন পাঁচ পদক্ষেপ

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯ | ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

গুনাহমুক্ত হতে নিন পাঁচ পদক্ষেপ

লেকচার : সাদ তাসলীম ৬:৫৮ অপরাহ্ণ, জুলাই ০৪, ২০১৯

গুনাহমুক্ত হতে নিন পাঁচ পদক্ষেপ

আমরা মানুষ। ভুল করি, ভুল হয়ে যায়। জেনে না জেনে আমরা অনেক গুনাহই করে ফেলি। অনেকসময় সাময়িক আবেগ বা প্রয়োজনের বশে আমাদের দ্বারা এই গুনাহগুলো হয়। আবার গুনাহ করার পরেই আমাদের মনে অনুশোচনাও জাগে। আমরা গুনাহ থেকে মুক্ত হতে চাই। গুনাহ থেকে আল্লাহর কাছে ক্ষমা চাই।

কিন্তু আমরা অনেকসময়ই গুনাহ থেকে মুক্ত হওয়ার কোন পথ বা উপায় খুঁজে পাই না। অধিক গুনাহের ফলে কখনো হতাশা আমাদের গ্রাস করে নেয় যে আল্লাহ হয়তো আর ক্ষমা করবেন না। এই ভেবে গুনাহ থেকে ফিরে আসি না বা আসলেও আল্লাহর সঙ্গে সম্পর্কটা নতুনভাবে গড়ে নেই না। ভালো কাজ থেকে নিজেকে দূরে সরিয়ে রাখি। ইবাদতে নিস্ক্রিয় হয়ে পড়ে থাকি। আসলে এমনটা আমাদের অনেকেরই হয়।

কিন্তু আল্লাহ পরম ক্ষমাশীল। তিনি বান্দার ফিরে এসে ক্ষমা চাওয়ার দৃশ্য খুবই পছন্দ করেন। তিনি আশাহত হতে নিষেধ করেছেন। তিনি বলেছেন, “সমস্ত গুনাহ তিনি ক্ষমা করে দিবেন।” (সূরা যুমার, আয়াত:৫৩)

নিম্নে গুনাহ মুক্ত হতে ৫টি পদক্ষেপ পেশ করা হল।

১. গুনাহকে ছোট মনে করবেন না
কোন গুনাহকেই কখনো ছোট মনে করবেন না। গুনাহ গুনাহই, তা মানুষকে অকল্যানের দিকেই নিয়ে যায়। ছোট হোক বা বড়, সকল প্রকার গুনাহ মানুষের জন্য ধ্বংস ডেকে আনে।

২. গুনাহর কাজ থেকে তাৎক্ষনিকভাবেই বিরত হোন

যখনই আপনার মনের মধ্যে গুনাহের জন্য অনুশোচনাবোধ করবেন, তৎক্ষনাৎ গুনাহের কাজটি বন্ধ করে দিন। কোন অজুহাতেই গুনাহের কাজে নিজেকে লিপ্ত রাখবেন না। একটার পর একটা গুনাহের চক্রে নিজেকে জড়ানো থেকে বিরত রাখুন।

৩. তাওবা করুন
গুনাহের অনুশোচনা থেকে তাওবার মাধ্যমে আপনি আল্লাহর কাছে আপনার গুনাহের ক্ষমা ও ঐ গুনাহটি দ্বিতীয়বার না করার প্রতিজ্ঞা করেন। দুই রাকাত নামাজ আদায় করে আল্লাহর কাছে নিজের গুনাহের ক্ষমার জন্য কান্নাকাটি করুন। পাশাপাশি মনে মনে দৃঢ় প্রতিজ্ঞা করুন, তাওবা করা গুনাহটি জীবনে আর দ্বিতীয়বার করবেন না।

৪. আল্লাহর শোকর করুন
গুনাহ থেকে মুক্ত হয়ে আল্লাহ আপনাকে তাওবা করার সুযোগ দিচ্ছেন, এর জন্য আল্লাহর কাছে শোকর করুন। আল্লাহ ইচ্ছা করলে আপনাকে তাওবাবিহীন মৃত্যু দিতে পারতেন। কিন্তু তিনি আপনাকে সংশোধনের জন্য একটি সুযোগ দান করছেন। এজন্য বেশি বেশি আল্লাহর প্রশংসা ও শোকর আদায় করুন।

৫. আল্লাহর থেকে নিরাশ হবেন না
আল্লাহর ক্ষমা থেকে কখনোই আশাহত হবেন না। তার ক্ষমার শক্তির উপর বিশ্বাস রাখুন। আপনি যতবার, যতবড় গুনাহই করুন না কেন, নিজে নিজে কখনোই ভেবে নেবেন না যে আল্লাহ আপনাকে ক্ষমা করবেন না। বরং, যতবারই গুনাহ হয়ে যাক না কেন, আন্তরিকভাবে আল্লাহর কাছে ক্ষমার প্রত্যাশা নিয়ে তাওবা করুন।

আল্লাহ আমাদের সকলকে সকল প্রকার গুনাহ থেকে মুক্ত করুন। নিশ্চয় তিনি ক্ষমাশীল, পরম দয়ালু।

এমএফ/

 

বয়ান: আরও পড়ুন

আরও