চামড়ার দরে ব্যবসায়ীদের স্বার্থই দেখল সরকার

ঢাকা, মঙ্গলবার, ২৩ অক্টোবর ২০১৮ | ৮ কার্তিক ১৪২৫

চামড়ার দরে ব্যবসায়ীদের স্বার্থই দেখল সরকার

সচিবালয় প্রতিবেদক ৫:১১ অপরাহ্ণ, আগস্ট ০৯, ২০১৮

চামড়ার দরে ব্যবসায়ীদের স্বার্থই দেখল সরকার

ঈদুল আযহা সামনে রেখে বরাবরের মতো কোরবানির পশুর চামড়ার দাম ঠিক করে দিয়েছে সরকার। বৃহস্পতিবার সচিবালয়ে ব্যবসায়ীদের সঙ্গে বৈঠক করে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমদ এ দাম ঠিক করে দেন।

৫ টাকা কমিয়ে এবার ঢাকায় প্রতি বর্গফুট গরুর লবণযুক্ত চামড়ার দাম ঠিক করা হয়েছে ৪৫ থেকে ৫০ টাকা। ঢাকার বাইরে একই চামড়ার দাম ৩৫ থেকে ৪০ টাকা।

একইভাবে ২ টাকা কমিয়ে সারাদেশে খাসির চামড়ার দাম ১৮ থেকে ২০ টাকা এবং বকরির চামড়ার দাম ১৩ থেকে ১৫ টাকা নির্ধারণ করা হয়েছে।

গতবছর সরকার ঢাকায় প্রতি বর্গফুট গরুর চামড়ার দাম নির্ধারণ করেছিল ৫০ থেকে ৫৫ টাকা, ঢাকার বাইরে ৪০ থেকে ৪৫ টাকা। আর সারাদেশে খাসির ২০ থেকে ২২ ও বকরির চামড়ার দাম ধরা হয়েছিল ১৫ থেকে ১৭ টাকা।

দাম কমানোর বিষয়ে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, ‘আন্তর্জাতিক বাজারে চামড়ার দাম কম। সাভারে ট্যানারি স্থানান্তরের পর থেকে চামড়া শিল্প এখনো স্বয়ংসম্পূর্ণ হতে পারেনি। তাছাড়া গতবছর চামড়া রফতানি ১২ শতাংশ কম হয়েছে। এজন্য এবার দাম কমানোর বিকল্প ছিল না।’

তবে ৫ টাকা কম, তেমন কিছু নয় বলেও জানান তিনি।

তোফায়েল আহমদ বলেন, ‘দাম বাড়ানোর প্রস্তাব দেয়া হলে ব্যবসায়ীরা অপারগতা প্রকাশ করেন। বাস্তবতা হলো, ব্যবসায়ীরা যদি চামড়া কিনতে না পারেন, তাহলে আমরা চামড়া কার কাছে বিক্রি করব? এজন্য আমরা বাস্তবসম্মত সিদ্ধান্ত নিয়েছি। এখন তারা সঠিকভাবে মূল্যায়ন করে তা বাস্তবায়ন করবেন।’

এ সময় আসন্ন ঈদুল আযহা উপলক্ষে বাজারে চাহিদার তুলনায় পণ্যদ্রব্যের সরবরাহ বেশি আছে জানিয়ে তিনি বলেন, ‘আশঙ্কার কোনো কারণ নেই। বাজার পরিস্থিতি স্বাভাবিক থাকবে।’

এসএস/এএল/আইএম