সাবেকদের পদচারণায় মুখরিত হবে জহুরুল হক হল

ঢাকা, রবিবার, ২১ অক্টোবর ২০১৮ | ৫ কার্তিক ১৪২৫

সাবেকদের পদচারণায় মুখরিত হবে জহুরুল হক হল

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক ১২:২৭ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১৪, ২০১৮

সাবেকদের পদচারণায় মুখরিত হবে জহুরুল হক হল

কর্মজীবনে এসে বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস, হলের জীবন সবাইকে কমবেশি আবেগাপ্লুত করে। স্মৃতির পাতা উল্টে অনেক সময় চোখে পানিও চলে আসে। জীবনের শেষ দিকে হলে তো কথাই নাই। সেই তারুণ্য, জীবনের সোনালী সময়টুকু কাটানো মুহূর্ত, ক্যারিয়ারের স্বপ্ন নিয়ে অবিরাম ছুটে চলার ছোট স্মৃতি সবাইকে আবেগে ভাসায়। স্মৃতির সে সময়টুকুকে বারবার মন্থন করতেই অ্যালমনাইসহ নানা নামে সাবেকদের পূনর্মিলনী বা পদচারণা হয় ক্যাম্পাসে।

তেমনি স্মৃতিমধুর সময় আসছে এই প্রথম ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সার্জেট জহুরুল হক হলের। এখানে পড়েছেন রাজনীতি, বাংলা ও বাঙালির ইতিহাসের জীবিত কিংবদন্তী বর্তমানে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমদ, সংস্কৃতির অন্যতম পুরোধা সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নুর, শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ, একসময়ের মাঠ কাপানো ছাত্রনেতা, জেএসডির সভাপতি আসম আব্দুর রব, আওয়ামী লীগ নেতা মহিউদ্দিন আহমদ, ঢাবির সাবেক ভিসি একে আজাদ চৌধুরী, ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক মো আব্দুর রহমান এমপি, নুরে আলম সিদ্দীকী, ইসমত কাদির গামা, আব্দুর রশিদসহ অনেকে।

আগামী ২৭ জানুয়ারি শনিবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ঐতিহ্যবাহী সেই হল এসব সাবেকদের পদরাণায় মুখরিত হবে। ইতিমধ্যে শহীদ সার্জেন্ট জহুরুল হক হল অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন তাদের প্রথম পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানের নানা আয়োজন ইতিমধ্যে সমাপ্ত করেছে।

১৯৫৭ সালে প্রতিষ্ঠিত এই হলের নাম ছিল ইকবাল হল। পরে পরিবর্তিত হয়ে হয় সার্জেন্ট জহুরুল হক হল। বাঙালি জাতীয়তাবাদী আন্দোলন ও মহান মুক্তিযুদ্ধের গৌরবদীপ্ত ইতিহাসের সাক্ষী হয়ে হয়ে আছে এই হল। দীর্ঘ ৬০ বছর পর ‘জহুরুল হক হল অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন’নামে প্রাক্তন শিক্ষার্থীদের এই সংগঠনের শুভ সূচনা হয় গত বছরের ২৯ জুলাই।

সিনেট ভবনের অ্যালামনাই অ্যাসোসিয়েশন ফ্লোরে সেদিনের সভায় র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদকে আহ্বায়ক ও আওয়ামী যুবলীগের প্রকাশনা সম্পাদক ব্যবসায়ী ইকবাল মাহমুদ বাবলুকে সদস্য সচিব করে আহ্বায়ক কমিটি গঠিত হয়। পরবর্তীকালে আলোচনার ভিত্তিতে ১৮ সদস্য বিশিষ্ট আহ্বায়ক কমিটি ২৭ জানুয়ারি পুনর্মিলনী অনুষ্ঠানের সিদ্ধান্ত নেয়।

সদস্য সচিব ইকবাল মাহমুদ বাবলু পরিবর্তন ডটকমকে জানান, জহুরুল হক হলের সাবেক ছাত্রদের মধ্য থেকে বর্তমান সরকারের একাধিক মন্ত্রী, সচিব, বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক, রাজনীতিবিদ, কবি, সাহিত্যিক, সাংবাদিকসহ সরকারি-বেসরকারি নানা পর্যায়ে কর্মরত ঊধ্বর্তন কর্মকর্তাবৃন্দ ইতিমধ্যে এই আয়োজনে যুক্ত হয়েছেন। হল লাইব্রেরি থেকে শুক্র ও শনিবারসহ প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে রাত ৮টা পর্যন্ত সদস্য-নিবন্ধন ফরম বিতরণ চলছে। এছাড়া ঢাকার একাধিক পয়েন্ট ও অনলাইন থেকে ফরম সংগ্রহের সুযোগ রয়েছে।

ইতিপূর্বে বিভিন্ন টেলিভিশনের স্ক্রলে প্রচারিত ঘোষণায় দেশের নানা প্রান্ত থেকে সাগ্রহে সদস্য-ফরম সংগ্রহ করছেন হলের প্রাক্তন শিক্ষার্থীবৃন্দ।

এসইউজে/এএস