ডাকসু নির্বাচন ইনশাআল্লাহ হবে

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ জুলাই ২০১৮ | ২ শ্রাবণ ১৪২৫

ডাকসু নির্বাচন ইনশাআল্লাহ হবে

ঢাবি প্রতিনিধি ৭:৪৯ পূর্বাহ্ণ, ডিসেম্বর ১৪, ২০১৭

print
ডাকসু নির্বাচন ইনশাআল্লাহ হবে

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক আখতারুজ্জামান বলেন, দীর্ঘ ২৭ বছর ধরে ডাকসু নির্বাচন হচ্ছে না। তার অনেকগুলো যৌক্তিক কারণ ও আছে । তবে আমরা নির্বাচন না হওয়ার সংষ্কৃতি থেকে বের হয়ে আসতে চাই। ইনশাআল্লাহ ডাকসু নির্বাচন হবে।

১৩ ডিসেম্বর ২০১৭ বুধবার ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতি (ডুজা) ‘গণমাধ্যম বনাম সামাজিক মাধ্যম’ শীর্ষক সেমিনার ও দায়িত্ব হস্তান্তর অনুষ্ঠানে তিনি এ কথা বলেন। সকালে ছাত্র-শিক্ষক কেন্দ্র ক্যাফেটেরিয়ায় এই অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়। এতে বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক ড. মো. আখতারুজ্জামান প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন।

এসময় তিনি ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সাংবাদিক সমিতির বিভিন্ন গণতান্ত্রিক যাত্রায় এই সংগঠনের ভ’মিকার প্রশংসা করেন্ এবং বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিবাচক দিকগুলো তুলে ধরার আহ্বান জানান।

এতে গণমাধ্যম বনাম সামাজিক মাধ্যম’ প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন গণ যোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের অধ্যাপক রোবায়েত ফেরদৌস। এই সময় তিনি বলেন, মূলধারার তথা প্রথাসিদ্ধ গণমাধ্যমের অন্যতম শক্তি হলো বেশিরভাগ মানুষের কাছে এর বিশ্বাসযোগ্যতা, গ্রহণযোগ্যতা। এই গণমাধ্যমগুলো সংবাদ সংগ্রহ ও বাছাই থেকে শুরু করে সংবাদ সম্পাদনা ও প্রকাশ বা প্রচারের সব পর্যায়ই সম্ভবপর সব ধরনের সতর্কতা অবলম্বন করে। কিন্তু এর বিপরীতে সোশ্যাল মিডিয়ায় কোনটি খবর আর কোনটি নয় এবং স্থার-কাল-পাত্র বিবেচনায় না নিয়ে অসমর্থিত সুত্রের খবর ও সবার সামনে তুলে ধরে। ফলে সংবাদ মাধ্যমে প্রচারিত খবরে যে গুরুত্ব বা রেফারেন্স ভ্যালু তৈরী হয় তা সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রকাশিত খবরে বেলায় হয়না। এটিকে অবশ্যই সোশ্যাল মিডিয়ায়ার দূর্বলতা হিসেবে ধরা হয়।

আয়োজিত অনুষ্ঠানে সাংবাদিক সমিতির ৯ সদস্য বিশিষ্ট কার্যকরীকমিটির হাতে দায়িত্ব হস্তান্তর করে সাবেক কমিটি। এতে ডুজা এর বর্তমান সভাপতি আসিফ তাসিন এর সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক মাহমুদুল হাসান নয়ন এর সঞ্চালনায় অন্যন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক ড. এ এস এম মাকসুদ কামাল, নিউজ টোয়েন্টিফোর এর বার্তা সম্পাদক বোরহানুল সম্রাটসহ বিভিন্ন জাতীয় দৈনিকের সিনিয়র সাংবাদিকবৃন্দ এবং বিভিন্ন ছাত্রসংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

ওএইচ/এএস

 
.



আলোচিত সংবাদ