নিরাপদ সড়ক আন্দোলন থেকে ফিরে গাড়ির নিচে জবি ছাত্রী

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৮ জুন ২০১৯ | ৪ আষাঢ় ১৪২৬

নিরাপদ সড়ক আন্দোলন থেকে ফিরে গাড়ির নিচে জবি ছাত্রী

জবি প্রতিনিধি ১০:২০ পূর্বাহ্ণ, মার্চ ২১, ২০১৯

নিরাপদ সড়ক আন্দোলন থেকে ফিরে গাড়ির নিচে জবি ছাত্রী

নিরাপদ সড়ক দাবিতে আন্দোলন শেষে ফেরার পথে শিক্ষকের গাড়ির ধাক্কায় আহত হয়েছেন জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের দুই শিক্ষার্থী।

বুধবার দুপুর আড়াইটার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রধান ফটকের সামনে এ ঘটনা ঘটে। আহত দুই শিক্ষার্থীর একজনকে গুরুতর আহত অবস্থায় প্রথমে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ও পরে অ্যাপোলো হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। এ ঘটনায় বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা ওই শিক্ষকের গাড়ি ভাঙচুর করেন।

আহতরা হলেন−ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের ১০ম ব্যাচের ইমা আক্তার এবং ১৪তম ব্যাচের আয়শা মোমেনা।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, পুরান ঢাকার রায়সাহেব বাজার মোড়ে নিরাপদ সড়ক আন্দোলন কর্মসূচি শেষে জবি শিক্ষার্থীরা ক্যাম্পাসে ফেরার সময় এ ঘটনা ঘটে। এ সময় প্রধান ফটকের সামনে বিশ্ববিদ্যালয়ের আইন বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মো. মোফাজ্জল হোসেনের গাড়ি দুই শিক্ষার্থীকে ধাক্কা দেয়। গাড়ির ধাক্কায় ইমা দূরে ছিটকে পড়েন। কিন্তু আয়েশা গাড়ির ধাক্কায় গাড়ির সামনে পরলে তার পায়ের ওপর দিয়ে গাড়ির চাকা উঠে যায়। এ সময় বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা গাড়িটি ভাঙচুর করেন।

আয়েশাকে উদ্ধার করে বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাম্বুলেন্সে করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়া হয়। প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে জরুরি বিভাগে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা জানান, তার বাম পায়ের হাড় ভেঙে গেছে। বাম পায়ে ব্যান্ডেজ করার পর ব্যথা বেড়ে যাওয়ায় তাকে অ্যাপোলো হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়।

অধ্যাপক মো. মোফাজ্জল হোসেনের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে বলেন, গাড়ির সামনে রিকশা ছিল, দেখতে পাইনি। আমি ওই শিক্ষার্থীর চিকিৎসার দায়িত্ব নিয়েছি। আমি এখনো শিক্ষার্থীর সঙ্গেই আছি।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টর ড. নূর মোহাম্মদ বলেন, অভিযুক্ত শিক্ষক নিজেও অনুতপ্ত। তিনি নিজেই চিকিৎসার দায় নিয়েছেন। যেহেতু শিক্ষক এবং মেয়েটি উভয়ে আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়ের। তাই বিষয়টি সেভাবেই মীমাংসা করা হবে।

জেটিএ