হ্যাটট্রিক করে বার্সেলোনার দুঃখ কমালেন মেসি

ঢাকা, রবিবার, ৮ ডিসেম্বর ২০১৯ | ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

হ্যাটট্রিক করে বার্সেলোনার দুঃখ কমালেন মেসি

পরিবর্তন ডেস্ক ৯:১০ পূর্বাহ্ণ, নভেম্বর ১০, ২০১৯

হ্যাটট্রিক করে বার্সেলোনার দুঃখ কমালেন মেসি

শনিবার লা লিগায় পুঁচকে লেভান্তের কাছে ৩-১ গোলের হার। এরপর মঙ্গলবার উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগে আরেক পুঁচকে স্লাভিয়া প্রাগের বিপক্ষে গোলশূন্য ড্র। গত সপ্তাহটি পুরোই হতাশায় কেটেছে বার্সেলোনার। বার্সেলোনার হতাশাজনক পারফরম্যান্স দেখে যায় যায় রবও উঠে যায়!

বাইরের সেই রব বন্ধ হবে কিনা বলা মুশকিল। তবে বার্সেলোনার হতাশা-দুঃখ অনেকটাই কমালেন লিওনেল মেসি। গতকাল শনিবার সেল্টা ভিগোর বিপক্ষে দুর্দান্ত এক হ্যাটট্রিক করে আর্জেন্টাইন তারকা ক্লাব বার্সেলোনাকে এনে দিয়েছেন ৪-১ গোলের জয়। আপাতত বন্ধ করেছেন কোচ আর্নেস্তো ভালভার্দেকে ছা্টাইয়ের স্লোগান।

মৌসুমটা মোটেই ভালো যাচ্ছে না বার্সেলোনার। যদিও লা লিগার পয়েন্ট তালিকার শীর্ষেই রয়েছে বার্সা। উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগেও নিজেদের গ্রুপে শীর্ষে তারা। তবে বার্সার মাঠের পারফরম্যান্স মোটেই বার্সেলোনা সূলভ নয়। এরই মধ্যে লা লিগায় হেরেছে ৩টি ম্যাচ। চ্যাম্পিয়ন্স লিগেও ৪ ম্যাচের মধ্যে দুটিতে ড্র হতাশায় পুড়তে হয়েছে। সব মিলে বার্সেলোনা তাদের কারিশমা হারিয়ে ফেলেছে বলেই রব উঠেছে।

আর দলের এই ব্যর্থতা, বাজে পারফরম্যান্স শঙ্কায় ফেলে দিয়েছে কোচ ভালভার্দের চাকরিটাকে। কাল ন্যু-ক্যাম্পে অসাধারণ হ্যাটট্রিকটি করে সব হতাশা, সমালোচনাই হালকা করলেন মেসি। সমর্থকদের বিষাদঢাকা মুখে ফুটিয়েছেন হাসি।

সেল্টা ভিগোর বিপক্ষে হ্যাটট্রিকটি করে চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর রেকর্ডে ভাগ বসিয়েছেন মেসি। রিয়াল মাদ্রিদের হয়ে রোনালদো লা লিগায় রেকর্ড ৩৪টি হ্যাটট্রিক করেছেন। কালকেরটি নিয়ে মেসির লা লিগায় হ্যাটট্রিক হলো ৩৪টি। রোনালদোকে ছুঁতে কাল মেসি ৩টি গোলই করেছেন সেট-পিচ থেকে। একটি পেনাল্টি থেকে, দুটি নিজের ‘ট্রেডমার্ক’ ফ্রি-কিকে। মেসির সঙ্গে বার্সেলোনার অন্য গোলটি করেছেন মিডফিল্ডার সার্জিও বুসকেটস।

টানা দুই ম্যাচের হতাশা দুর করতে কাল ম্যাচের শুরু থেকেই উজ্জীবিত হয়ে খেলতে থাকে বার্সেলোনা। তার ফলও পায় ২৩ মিনিটে। বক্সের মধ্যে সেল্টা ভিগোর ডিফেন্ডার জোসেফ আইদোর হ্যান্ডবল হলে পেনাল্টি পায় বার্সেলোনা। তা থেকে অত্যন্ত ঠাণ্ডা মাথায় গোল করে দলকে এগিয়ে দেন অধিনায়ক মেসি। তবে ম্যাচের ৪২ মিনিটে মেসির গোলটি শোধ করে দেন সেল্টা ভিগোর মিডফিল্ডার ‍লুকাস ওলাজা। অসাধারণ এক ফ্রি কিক থেকে সেল্টাকে সমতায় ফেরান মেসি।

প্রতিপক্ষ লুকাস ওলাজাকে দেখে অনুপ্রাণিত হয়েই কিনা ৪৫ মিনিটে মেসিও ফ্রি কিক থেকে দুর্দান্ত এক গোল করেন। বক্সের বাইরে ফ্রি কিক পায় বার্সা। তাপ থেকে বা পায়ের দুর্দান্ত এক বাঁকানো শটে নিজের এবং দলের দ্বিতীয় গোলটি করেন মেসি। বিরতি থেকে ফিরেই আবার ফ্রি কিক পায় বার্সেলোনা। এবারও মেসির বাঁকানো শট সেল্টার গোলরক্ষককে ফাঁকি দিয়ে জড়িয়ে যায় জালে। মেসি মেতে উঠেন হ্যাটট্রিক উৎসবে। ৮৫ মিনিটে সেল্টার কফিনে শেষ পেরেকটি ঠুকেছেন সার্জিও বুসকেটস।

রোনালদোর রেকর্ড ছোঁয়া হ্যাটট্রিকের দিনে মেসির গায়ে একটু কলঙ্কের দাগও লেগেছে। ম্যাচের ৪০ মিনিটে প্রতিপক্ষ খেলোয়াড়কে অহেতুক পেছন থেকে ট্যাকল করে দেখেছেন হলুদকার্ড। তবে দলের স্বস্তির জয় এবং নিজের হ্যাটট্রিক আনন্দে হলুদকার্ড হতাশা ভেসেই গেছে!

কাল বড় জয় পেয়েছে স্পেনের আরেক দৈত্য রিয়াল মাদ্রিদও। এইবারের মাঠে গিয়ে এইবারকে জিনেদিন জিদানের দল হারিয়েছে ৪-০ গোলে। ফলে ১২ ম্যাচ শেষে বার্সা-রিয়াল, দুই দলেরই পয়েন্ট সমান ২৫ করে। তবে গোল ব্যবধানে এগিয়ে থাকায় শীর্ষে বার্সেলোনা। রিয়াল দুইয়ে।

কেআর

 

ফুটবল: আরও পড়ুন

আরও