ব্রাজিলের নবম নাকি পেরুর তৃতীয়?

ঢাকা, ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯ | 2 0 1

ব্রাজিলের নবম নাকি পেরুর তৃতীয়?

পরিবর্তন ডেস্ক ২:০৫ অপরাহ্ণ, জুলাই ০৭, ২০১৯

ব্রাজিলের নবম নাকি পেরুর তৃতীয়?

কোপা আমেরিকার শিরোপা জিতবে কে? ব্রাজিল নাকি পেরু? এই প্রশ্নে আপনার দ্বিধাদ্বন্দ্ব থাকতে পারে। কিন্তু লিওনেল মেসির মনে কোনো দ্বিধাদ্বন্দ্ব নেই। তার কাছে উত্তরটা স্পষ্ট, শিরোপা জিতবে ব্রাজিল!

না, হঠাৎই শুভাকাঙ্খী সেজে আন্তরিকভাবে ব্রাজিলের সাফল্য কামনায় এই ভবিষ্যদ্বাণী করেননি আর্জেন্টিনার অধিনায়ক। মেসি কথাটা বলেছেন মনের ক্ষোভে। বিতর্কিত রেফারিংয়ের প্রতিবাদে। সেমিফাইনালে ব্রাজিলের কাছে ২-০ গোলে হেরেই শিরোপা দৌড় থেকে ছিটকে পড়ে মেসির আর্জেন্টিনা। মেসি সেদিনই অভিযোগ করেন, ব্রাজিলকে জিতিয়েছেন রেফারি। রেফারি তাদের দুটো ন্যায্য পেনাল্টি থেকে বঞ্চিত করেছে।

তবে মেসি এর চেয়েও বিস্ফোরক মন্তব্য করেছেন গত রাতে তৃতীয় স্থান নির্ধারণী ম্যাচের পর। ম্যাচে চিলিকে ২-১ গোলে হারিয়ে তৃতীয় স্থান অর্থাৎ ব্রোঞ্জ মেডেল পেয়েছে আর্জেন্টিনা। কিন্তু সাও পাওলোর অ্যারেনা করিন্থিয়ান্সের এই ম্যাচের ৩৭ মিনিটে লালকার্ড পেয়েছেন মেসি। দুর্ভাগ্যজনক হলো, মেসির এই লালকার্ডটা ছিল বিতর্কিত। রাগে-ক্ষোভে, প্রতিবাদে মেসি পুরস্কার নিতে অস্বীকৃতি জানিয়েছেন। আর্জেন্টিনা দলের বাকিরা নিলেও মেসি পুরস্কারটা শেষ পর্যন্ত নেননি।

কেন নেননি? গণমাধ্যমের সামনে সেই কারণ ব্যাখ্যা করতে গিয়েই বিস্ফোরক মন্তব্য করেছেন মেসি। বলেছেন, ব্রাজিলকে শিরোপা পাইয়ে দেওয়ার মিশনের অংশ হিসেবেই কনমেবল রেফারিদের দিয়ে তাদের বিরুদ্ধে এমন দুর্নীতি করছে। ব্রাজিলকে শিরোপা জেতাতে হবে, এটা নাকি কনমেবল আগে থেকেই ঠিক করে রেখেছে!

যাই হোক, মেসির অভিযোগের প্রসঙ্গটি অন্য। ব্রাজিলিয়ানদের জন্য তা অসম্মানেরও। তবে শেষ পর্যন্ত সত্যিই যদি শিরোপা জেতে ব্রাজিল, তাহলে দীর্ঘ ১২ বছরের অপেক্ষার অবসান হবে তাদের।

ব্রাজিল সর্বশেষ কোপা আমেরিকার শিরোপা জিতেছে ২০০৭ সালে। এর পর কোপ মানেই ব্রাজিলিয়ানদের হতাশার গল্প। সর্বশেষ ২০১৬ সালের বিশেষ কোপায় তো গ্রুপপর্ব থেকেই ছিটকে পড়ে ব্রাজিল। সেই হতাশা মুছে এবার ফাইনালে উঠেছে তিতের দল। আজ রাতে পেরুর মুখোমুখি হচ্ছে শিরোপার লড়াইয়ে।

এস্তাদিও মারাকানার ফাইনালে যুদ্ধে নিরঙ্কুশ ফেভারিট ব্রাজিল। প্রথমত, সেলেসাওরা খেলছে নিজেদের মাঠে। ইতিহাস, ঐতিহ্য, পরিসংখ্যান, এমনকি দলীয় শক্তিমত্তা-সব দিক থেকেই এগিয়ে ব্রাজিল। এই গ্রুপপর্বেই মুখোমুখি হয়েছিল দুই দল। দুই সপ্তাহ আগের সেই লড়াইয়ে পেরুকে ৫-০ গোলে ভাসিয়েছিল তিতের শিষ্যরা।

সেদিন ৫-০ গোলে জিতলে আজ কেন নয়? কুতিনহো-ফিরমিনো-জেসুসরা হয়তো আজও পেরুকে গোল-বন্যায় ভাসানোর পরিকল্পনা নিয়েই নামবে। তবে পেরুও ছেড়ে কথা বলার পাত্র নয়। এমনিতে ব্রাজিলের বিপক্ষে তাদের পরিসংখ্যান যেমনই হোক, কোপার নকআউট পর্বে পেরু কিন্তু সেলেসাওদের সমানে সমান! বিশেষ করে সেমিফাইনালে।

এর আগে দুবার কোপার সেমিফাইনালে মুখোমুখি হয়েছিল ব্রাজিল-পেরু। তাতে একবার পেরু জিতেছে, একবার ব্রাজিল। তবে ফাইনালে মুখোমুখি হতে যাচ্ছে এই প্রথম। ফলে আজ যারা জিততে, মুখোমুখি সাক্ষাতে এগিয়ে থাকার পাশাপাশি কোপার শিরোপা সংখ্যাটাও বাড়িয়ে নিতে পারবে।

এর আগে কোপায় মোট ৮ বার শিরোপা জিতেছে ব্রাজিল। পেরু জিতেছে দুবার। ফলে ফাইনাল যুদ্ধের আগে মারাকানার বাতাসে এই প্রশ্নটাই ভাসছে, ব্রাজিলের নবম নাকি পেরুর তৃতীয়?

উল্লেখ্য, মারাকানায় ফাইনাল ম্যাচটা শুরু হবে বাংলাদেশ সময় আজ রাত ২টায়। ম্যাচটি সরাসরি দেখাবে বেইনস্পোর্টস ও পিপিটিভি।

কেআর/আরপি

 

ফুটবল: আরও পড়ুন

আরও