মেসি ১০ : ৪ রিয়াল মাদ্রিদ

ঢাকা, ১৭ জুলাই, ২০১৯ | 2 0 1

মেসি ১০ : ৪ রিয়াল মাদ্রিদ

পরিবর্তন ডেস্ক ৮:৩৮ পূর্বাহ্ণ, এপ্রিল ১৩, ২০১৯

মেসি ১০ : ৪ রিয়াল মাদ্রিদ

শিরোপা সাফল্যে এই গ্রহের সবচেয়ে সফল দল রিয়াল মাদ্রিদ। বিশ্ব মঞ্চে তো বটেই, স্পেনের ঘরোয়া লিগেরও সবচেয়ে সফল দল রিয়াল। স্পেনের লা লিগায় রেকর্ড ৩৩ বার শিরোপা জিতেছে তারা। কিন্তু হিসাবটা যদি করা হয় মেসি-জামানায়, সেই রিয়াল কেমন যেন ছন্নছাড়া, বিবর্ণ! মেসির ছায়ায় ম্লান!

পরিসংখ্যানেই বিষয়টা স্পষ্ট। বার্সেলোনার মূল দলের হয়ে মেসির অভিষেকের পর থেকে গত ১৫ বছরে রিয়াল লিগ শিরোপা জিতেছে মাত্র ৪ বার। বিপরীতে মেসি তার ক্যারিয়ারে বার্সেলোনাকে লিগ জিতিয়েছেন ১০ বার! মানে রিয়াল ৪, মেসি ১০!

মেসির মেসি হয়ে ওঠার পরের পরিসংখ্যানটা রিয়ালের জন্য আরও বেশি হতাশার। মেসি বিশ্বসেরা হয়ে ওঠার পর গত ১০ বছরে ৭ বারই লিগ জিতেছে বার্সেলোনা। রিয়াল জিতেছে মাত্র দুবার। এবারও লিগ শিরোপাটা উঠতে যাচ্ছে মেসির বার্সেলোনার হাতেই। মানে রিয়াল বনাম মেসির অনুপাতটা হতে যাচ্ছে ৪ : ১১!

এই পরিসংখ্যান স্পষ্ট করেই বলে দিচ্ছে, লিওনেল মেসিই রিয়ালের লিগ শিরোপা জয়ের পথে বড় বাঁধা। প্রশ্ন উঠছে, মেসি-যুগে লিগ শিরোপা জিততে হলে কী কী করতে হবে? এই প্রশ্নকে সামনে নিয়েই বিশেষ এক গবেষণা চালিয়েছিলেন স্পেনের জনপ্রিয় ক্রীড়া দৈনিক মার্কার বিশেষজ্ঞ ফুটবল লেখক মিগুয়েল অ্যাঙ্গেল গার্সিয়া।

মাথার ঘাম পায়ে ফেলে ৫টি বিশেষ কারণ খুঁজেও বের করেছেন তিনি। মার্কায় প্রকাশিত এক প্রতিবেদনে তিনি তুলে ধরেছেন, ৫টি বিষয় নিশ্চিত করতে পারলেই মেসির ছায়া এড়িয়ে লিগ শিরোপা জিততে পারবে রিয়াল।

মেসির মেসি হয়ে ওঠার পর থেকে এ পর্যন্ত যে দুবার লিগ শিরোপা জিতেছে রিয়াল, সেই দুই মৌসুমের রিয়ালের ম্যাচ পরিসংখ্যান ঘেঁটেই কারণ ৫টি উদঘাটন করেছেন মিগুয়েল অ্যাঙ্গেল গার্সিয়া। সেই কারণ ৫টি কী, পরিবর্তন পাঠকদের জন্য তুলে ধরা হলো এখানে—

১. মৌসুমে অন্তত ৯০ পয়েন্ট অর্জন করতে হবে

মেসির মেসি হয়ে ওঠার পর যে দুবার লিগ জিতেছে রিয়াল, সেই দুবারই তাদের পয়েন্ট অর্জন ছিল ৯০ এর ওপরে। ২০১১-১২ মৌসুমে জিতেছিল কাঁটায় কাঁটায় ১০০ পয়েন্ট পেয়ে। ২০১৬-১৭ মৌসুমে অর্জন ছিল ৯৩ পয়েন্ট। এছাড়া আরও ৪ মৌসুমে ৯০ বা তার বেশি পয়েন্ট অর্জন করেও লিগ শিরোপা জিততে পারেনি।

২০০৯-১০ মৌসুমে অর্জন ছিল ৯৬ পয়েন্ট, ২০১০-১১ ও ২০১৪-১৫ মৌসুমে সমান ৯২ করে এবং ২০১৫-১৬ মৌসুমে অর্জন করেছিল ৯০ পয়েন্ট। পরিসংখ্যান স্পষ্ট করেই বলে দিচ্ছে, লিগ জিততে হলে রিয়ালকে অবশ্যই ৯০-এর বেশি পয়েন্ট অর্জন করতে হবে।

২. অন্তত ২৭ ম্যাচে জিততে হবে

গত এক দশকে যে দুবার লিগ জিতেছে রিয়াল, তার মধ্যে ২০১১-১২ মৌসুমে জিতেছিল ৩২ ম্যাচে। ২০১৬-১৭ মৌসুমে জিতেছিল ২৯ ম্যাচে। এছাড়াও উপরে উল্লেখিত ৪ মৌসুমে ২৭-এর বেশি ম্যাচ জিতেও শিরোপার স্বাদ পায়নি। যে পরিসংখ্যান চোখে আঙুল দিয়েই দেখিয়ে দিচ্ছে শিরোপা জিতলে হলে রিয়ালকে অন্তত ২৭টি ম্যাচ জিততেই হবে।

৩. ৪ ম্যাচের বেশি ম্যাচ হারা যাবে না

সর্বশেষ যে দুটি লিগ জিতেছে রিয়াল, তার কোনোটিতেই ৩-এর বেশি ম্যাচ হারেনি। সুতরাং রিয়ালকে শিরোপা জিততে হলে পুরো মৌসুমে ৪টির বেশি ম্যাচ হারা যাবে না।

৪. অন্তত ১৫টি অ্যাওয়ে ম্যাচে জিততে হবে

২০১১-১২ মৌসুমে শিরোপা জয়ের পথে ১৬টি অ্যাওয়ে ম্যাচে জিতেছিল রিয়াল। দুটিতে ড্র এবং হেরেছিল মাত্র একটি অ্যাওয়ে ম্যাচে। ২০১৬-১৭ মৌসুমে পেয়েছিল ১৫টি অ্যাওয়ে জয়। এবার দুটিতে ড্রয়ের পাশাপাশি হেরেছিলও দুটি ম্যাচে। গত এক দশকে যে বারই ১৫-এর কম অ্যাওয়ে জয় পেয়েছে রিয়াল, তার প্রতিবারই শিরোপা হাতছাড়া হয়েছে। এই পরিসংখ্যান তাই স্পষ্ট করেই বলছে, লিগ জিততে হলে রিয়ালকে অন্তত ১৫টি অ্যাওয়ে জয় পেতে হবে।

৫. শীতকালীন চ্যাম্পিয়ন হতে হবে

শীতকালে পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে থাকা মানেই হয়তো রিয়ালের লিগ শিরোপা নিশ্চিত নয়। ২০১৪-১৫ মৌসুমে যেমন শীতকালীন ছুটির সময় পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে থাকার পরও শিরোপা খুইয়েছিল রিয়াল। তবে গত এক দশকে যে দুবার শিরোপা জিতেছে, সে দুবারই শীতকালীন বিরতির সময় পয়েন্ট তালিকার শীর্ষে ছিল তারা। যে কয়বার শীতকালীন বিরতিতে শীর্ষে থাকতে পারেনি, তার একবারও শিরোপা ছুঁয়ে দেখতে পারেনি। সুতরাং লিগ জিততে হলে রিয়ালকে শীতকালীন চ্যাম্পিয়ন হতেই হবে।

রিয়াল পারবে এই ৫ শর্ত পূরণ করে মেসির বার্সেলোনার লিগ-রাজত্বে হানা দিয়ে আগামী মৌসুমে শিরোপা জিততে?

কেআর

 

 

ফুটবল: আরও পড়ুন

আরও