‘ইসকোকে নিতে চাও, দিবালাকে দাও’—জুভেন্টাসকে রিয়াল

ঢাকা, রবিবার, ১৬ জুন ২০১৯ | ২ আষাঢ় ১৪২৬

‘ইসকোকে নিতে চাও, দিবালাকে দাও’—জুভেন্টাসকে রিয়াল

পরিবর্তন ডেস্ক ১১:৪৮ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১৩, ২০১৯

‘ইসকোকে নিতে চাও, দিবালাকে দাও’—জুভেন্টাসকে রিয়াল

কোচ সান্তিয়াগো সোলারির সঙ্গে ইসকোর সম্পর্কটা পুরোপুরিই ভেঙে পড়েছে। আর জোড়া লাগার কোনো সম্ভাবনাই নাকি নেই! কথা শোনা দূরের কথা, কেউ কারো মুখই নাকি দেখছেন না। ফল, ইসকো এই জানুয়ারিতেই রিয়াল মাদ্রিদ ছাড়তে মরিয়া। রিয়ালও ‘অতি আবেগী’ ইসকোকে ঘর ছাড়া করতে চাইছে। 

কিন্তু এই চাওয়াটা পূরণ হবে কিভাবে? রিয়ালের সুচতুর সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজ এঁটেছেন দারুণ এক পরিকল্পনা। ইসকোর সঙ্গে পাওলো দিবালার অদলবদল করতে চাইছেন তিনি। মানে ইসকোকে দিয়ে দিবালাকে চাইছেন তিনি।

শুধু চাওয়া নয়, এই দু’জনের অদলবদলের জন্য দিবালার ক্লাব জুভেন্টাসের কাছে বার্তাও পাঠিয়েছেন রিয়াল সভাপতি। অদলবদল চেয়ে বার্তাটা পাঠিয়েছেন তিনিই। মানে চাওয়াটা তারই। কিন্তু বাকপটু রিয়াল সভাপতি ছোট্ট বার্তাটা এমন কূটনৈতিক ভাবে লিখেছেন, যেন জুভেন্টাসই ইসকোকে পাওয়ার জন্য মরিয়া! রিয়াল জুভিদের সেই আকাঙ্খা পূরণ করবে দিবালাকে দিলে।

জুভেন্টাসকে পাঠানো বার্তায় পেরেজ লিখেছেন, ‘তোমরা ইসকোকে নিতে চাও? তাহলে দিবালাকে দিতে হবে।’ অথচ অনেক দিন ধরেই রিয়ালের রাডারে দিবালা। জুভেন্টাসের এই আর্জেন্টাইন তারকার সঙ্গে এর আগে বেশ কয়েকবার যোগাযোগ করারও চেষ্টা করেছে রিয়াল। কিন্তু জুভেন্টাসের গ্রিন সিগন্যাল না পাওয়ায় আলোচনা আলোর মুখ দেখেনি।

এদিকে ইসকোকে নিয়েও বিপদে পড়েছে রিয়ালই। ঘর রক্ষা করতে তারা যেকোনো মূল্যে ২৫ বছর বয়সী এই মিড ফিল্ডারকে বিক্রি করতে চাইছে। মানে দুটো চাওয়াই রিয়ালের। অথচ রিয়াল সভাপতি কূটনৈতিক ভাষায় বুঝিয়ে দিলেন, ইসকোকে পাওয়ার জন্য জুভেন্টাসের আকাঙ্খা প্রবল।

জুভেন্টাস অবশ্য রিয়াল সভাপতির এই বার্তার প্রতিক্রিয়ায় এখনো কিছু বলেনি। ইতালির জনপ্রিয় ক্রীড়া দৈনিক তাত্তোস্পোর্টসের খবর অন্তত সেরকমই। কে জানে, হয়তো ইতালিয়ান চ্যাম্পিয়নরা প্রস্তাবটি পেয়ে ভাবনার সাগরে ডুবে গেছে।

কেআর/পিএ