নতুন খেলোয়াড় কিনতেই হবে, রিয়ালকে বোঝাল অ্যাতলেতিকো!

ঢাকা, বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮ | ৩০ কার্তিক ১৪২৫

নতুন খেলোয়াড় কিনতেই হবে, রিয়ালকে বোঝাল অ্যাতলেতিকো!

পরিবর্তন ডেস্ক ৩:৪৬ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৬, ২০১৮

নতুন খেলোয়াড় কিনতেই হবে, রিয়ালকে বোঝাল অ্যাতলেতিকো!

উয়েফা সুপার কাপের এই হারটা রিয়াল মাদ্রিদের জন্য শুধুই একটি হার নয়। বরং বড় একটা সতর্কবার্তাও। মৌসুমসূচক সুপার কাপে ৪-২ গোলে হারিয়ে অ্যাতলেতিকো মাদ্রিদ প্রতিবেশী রিয়াল মাদ্রিদকে এই বার্তাটাই দিয়ে দিল, ইউরোপে রাজত্ব অব্যাহত রাখতে হলে, শিরোপা সাফল্যের ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে হলে অবশ্য অবশ্যই নতুন তারকা খেলোয়াড় কিনতে হবে। এ ছাড়া রিয়াল মাদ্রিদের কোনো উপায় নেই। বর্তমানের এই ল্যাংড়া দলের উপর ভরসা করে চললে, সিংহাসন থেকে পতন অনিবার্য।

শুধু এই তাগিদ বার্তাই কেন। এস্তোনিয়ার তালিনে জিনেদিন জিদান এবং ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর শূন্যতাটাও টের পেয়েছে খুব ভালো করে। গতকাল রাতে ম্যাচ শুরুর আগে অধিনায়ক সার্জিও রামোস গলা উঁচু করে বলেছিলেনৈ, ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোকে ছাড়াও শিরোপা জিততে পারবে রিয়াল। কিন্তু তালিনে অ্যাতলেতিকো মাদ্রিদ রামোসকে ভালো করেই বুঝিয়ে দিল, রোনালদোর শূন্যতা পূরণ হবার নয়। রোনালদোবিহিন রিয়াল সত্যিকার রিয়াল নয়!

তালিনের উয়েফা সুপার কাপ রিয়ালকে এটাও বুঝিয়ে দিল, কোচের পদ থেকে জিদানকে চলে যেতে দিয়ে বড় ভুল করে ফেলেছে তারা। সেই ভুলের জন্য চড়া মাশুলই দিতে হবে রিয়ালকে। রিয়ালের সাম্প্রতিক সাফল্যই সে কথা বলছে।

জিদান-রোনালদো জুটির কাঁধে চেপে গত তিন মৌসুমে ইউরোপিয়ান ক্লাব ফুটবলে একচ্ছত্র রাজত্ব করেছে রিয়াল। টানা তিন বারই জিতেছে ক্লাব ফুটবলের সবচেয়ে মর্যাদার, সবচেয়ে আকর্ষণীয় টুর্নামেন্ট উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শিরোপা। এই উয়েফা সুপার কাপের শিরোপাও জিতেছিল সর্বশেষ দুই মৌসুমেই। সব মিলে গত তিন বছরে আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টে সর্বশেষ ১২টি শিরোপা নির্ধারণী ম্যাচেই জিতেছিল রিয়াল। মানে নিজেরা অংশ নেওয়া সর্বশেষ ১২টি আন্তর্জাতিক টুর্নামেন্টেই শিরোপা জিতেছিল মাদ্রিদ জায়ান্টরা।

রিয়ালের সেই অবিশ্বাস্য শিরোপা সাফল্যের ধারায় ছেড় পড়ল জিদান-রোনালদোবিহিন জামানার শুরুতেই। জিদান-রোনালদো চলে যাওয়ার পর বুধবারই প্রথম শিরোপার মিশনে নেমেছিল রিয়াল। আর তাতে খেতে হলো বড় এক ধাক্কা। নগর প্রতিদ্বন্দ্বী অ্যাতলেতিকোর কাছে হার মানতে হলো ৪-২ ব্যবধানে।

এই হারে রিয়াল বুঝে গেছে জিদান-রোনালদোর শূন্যতা পূরণ হবার নয়। তবে রিয়াল এখন চাইলেও তাদের ফেরাতে পারবে না। রিয়ালের সামনে এখন একটাই-কিনতে হবে তারকা খেলোয়াড়। কোচ জিদানের জায়গায় জুলিয়েন লোপেতেগুইকে নিয়োগ দিয়েই ফেলেছে রিয়াল। এখন খুঁজে নিতে হবে রোনালদোর যোগ্য বিকল্প। একজনে সম্ভব না হলে কিনতে হবে একাধিক খেলোয়াড়।

কিন্তু রিয়াল কিনবে কাকে? যে দুজনকে কেনার জন্য মরিয়া ছিল রিয়াল, সেই নেইমার ও কিলিয়ান এমবাপে ‘না’ শুনিয়ে দিয়েছে। এখন রিয়ালের ক্রয় তালিকায় আছেন এডেন হ্যাজার্ড, হ্যারি কেনরা। কিন্তু কাউকেই রাজি করাতে পারছে না। এটা নিশ্চিত করেই বলা যায়, বুধবার রাতে উয়েফা সুপার কাপের এই হার রিয়াল কর্তাদের ঘুম হারাম করে ছাড়বে। নতুন খেলোয়াড় কেনার বিষয়ে আরও বেশি তৎপর করে তুলবে।

সর্বাই যে তাড়িয়ে বেড়াবে ‘নতুন খেলোয়াড় কিনতেই হবে’ তাড়না!

কেআর