পগবার বিনিময়ে বার্সার দুজনকে চায় ইউনাইটেড!

ঢাকা, শনিবার, ১৭ নভেম্বর ২০১৮ | ৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৫

পগবার বিনিময়ে বার্সার দুজনকে চায় ইউনাইটেড!

পরিবর্তন ডেস্ক ৬:০০ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৪, ২০১৮

পগবার বিনিময়ে বার্সার দুজনকে চায় ইউনাইটেড!

দলবদলে বার্সেলোনার শেষ টার্গেট একজন বিশ্বমানের মিডফিল্ডার। অধিনায়ক লিওনেল মেসি নামটাও নিশ্চিত করে দিয়েছেন। ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের ফরাসি মিডফিল্ডার পল পগবাকে দলে চাই তার। মেসি ক্লাব কর্তাদের স্পষ্ট করেই জানিয়ে দিয়েছেন, পগবাকে আনা হোক। মেসির পছন্দের পেছনে ছুটছেও বার্সা। কিন্তু শেষ পর্যন্ত অধিনায়ক মেসিকে খুশি করতে পারবে বলে মনে হচ্ছে না। পগবার জন্য যে অসম্ভব এক দাবি করে বসল ইউনাইটেড। এক পগবার বিনিময়ে ইংলিশ ক্লাবটি চাইছে বার্সেলোনার দুজনকে!

তা পগবার মতো তারকার বিনিময়ে দুজনকে চাওয়াটা খুব বেশি বেমানান হয়তো নয়। কিন্তু সমস্যা হলো, ইউনাইটেড হাত বাড়িয়েছে দুজন তারকা খেলোয়াড়কেই। উসমানে ডেম্বেলে ও ইভান রাকিতিচকে। গণমাধ্যমের খবর, ডেম্বেলে ও রাকিতিচকে দিলেই কেবল পগবাকে বার্সায় পাঠাবে ইউনাইটেড!

এর মানে একটাই, ইউনাইটেড পগবাকে বিক্রি না করার সিদ্ধান্তেই অনড়। ইংলিশ ক্লাবটি আগে থেকেই বলে আসছে, পগবাকে তারা ছাড়বে না। সেই ‘না’টাই হয়তো এবার জানিয়ে দিল একটু অন্যভাবে।

গত মৌসুমেই ১৪৫ মিলিয়ন ইউরোর চুক্তিতে বরুসিয়া ডর্টমুন্ড থেকে ডেম্বেলেকে কিনে এনেছে বার্সেলোনা। বয়স হয়তো কম। হবে ফরাসি এই তরুণ তার স্বদেশি পগবার মতোই প্রতিভাবান। ২১ বছর বয়সী ডেম্বেলের মধ্যে ভবিষ্যতের বড় তারকার প্রতিচ্ছবিই দেখছেন সবাই।

অন্যদিকে ইভান রাকিতিচ বার্সেলোনার মাঝমাঠের অপরিহার্য সদস্য। ২০১৪ সালে ন্যু-ক্যাম্পে আসার পর থেকেই ক্রোয়েশিয়ান মিডফিল্ডার বার্সেলোনার শুরুর একাদশে নিজের জায়গাটা পাকা করে নিয়েছেন। ৩০ বছর বয়সী রাকিতিচ দুর্দান্ত ফর্মেও আছেন। বিশ্বকাপে ক্রোয়েশিয়াকে রানার্সআপ করার পেছনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা ছিল তার।

ইউনাইটেড তাই ভালো করেই জানে বার্সেলোনা কিছুতেই এক পগবার জন্য ডেম্বেলে ও রাকিতিচের মতো দুই তারকাকে হাতছাড়া করতে রাজি হবে না। ইংলিশ ক্লাবটি তাই অসম্ভব এই দাবি করে বসল, যাতে বার্সেলোনা পগবার পেছন থেকে সরে যায়!

বোঝাই যাচ্ছে বার্সেলোনার সঙ্গে শর্তের এই খেলাটা খেললেন ইউনাইটেড কোচ হোসে মরিনহো। ২০১৬ সালে পর্তুগিজ এই কোচই তৎকালীন রেকর্ড ১০৫ মিলিয়ন ইউরো দিয়ে জুভেন্টাস থেকে পগবাকে ইউনাইটেডে নিয়ে আসেন। গত মৌসুমে অবশ্য ফরাসি মিডফিল্ডারের সঙ্গে কোচ মরিনহোর তিক্ততা তৈরি হয়।

সেই তিক্ততার কারণেই ইউনাইটেড ছাড়ার জন্য মরিয়া হয়ে উঠেন পগবা। এমনকি এখনো তিনি ইউনাইটেড ছাড়ার ইচ্ছাতেই অনড়। কিন্তু বিশ্বকাপে অবিশ্বাস্য পারফরম্যান্স করা পগবার বিষয়ে সিদ্ধান্ত পাল্টে ফেলেছেন মরিনহো। রাশিয়ায় দ্বিতীয় বারের মতো বিশ্বকাপ জিতেছে ফ্রান্স। আর দেশকে বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন করার পেছনে পগবা রেখেছেন গুরুত্বপূর্ণ অবদান।

এমন একজন খেলোয়াড়কে মরিনহো ছেড়ে দিতে পারেন! ইউনাইটেড কোচ মরিনহো তাই পাকা সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছেন পগবাকে ধরে রাখার জন্য। এমনকি ২৬ বছর বয়সী পগবাকে সুখী করতে একটা ‘টোপ’ও ফেলেছেন তিনি। ২৬ বছর বয়সী পগবাকে বানাতে চাইছেন দলের অধিনায়ক! এর মহড়াও মমরিনহো দিয়ে ফেলেছেন গত শনিবার।

সেদিনই লেস্টার সিটির বিপক্ষে ম্যাচ দিয়ে নতুন মৌসুমে লিগ অভিযান শুরু করেছে ইউনাইটেড। তো ওই ম্যাচে কোচ মরিনহো অধিনায়কত্বের আর্মব্র্যান্ড পরিয়ে দিয়েছিলেন পগবা’র বাহুতেই। মরিনহোর এই অধিনায়ক পরিকল্পনার মধ্যেই আসলে বার্সেলোনার জন্য ‘না’ বার্তা লুকিয়ে রয়েছে। সঙ্গে এবারের এই অসম্ভব দাবি। অন্য একটি গণমাধ্যমের খবর, মরিনহো এতো সব কূটনীতিক চালের অর্থটা বুঝে গেছে বার্সেলোনাও। কাতালন ক্লাবটি নাকি তাই এরই মধ্যে পগবাকে কেনার আশা ছেড়ে দিয়েছে!

কেআর