স্পেনের সম্পর্ক ছিন্ন করতে সব বিক্রি করবেন রোনালদো!

ঢাকা, বুধবার, ২৪ অক্টোবর ২০১৮ | ৮ কার্তিক ১৪২৫

স্পেনের সম্পর্ক ছিন্ন করতে সব বিক্রি করবেন রোনালদো!

পরিবর্তন ডেস্ক ৪:৪৬ অপরাহ্ণ, জুলাই ১৯, ২০১৮

স্পেনের সম্পর্ক ছিন্ন করতে সব বিক্রি করবেন রোনালদো!

এক দুই বছর নয়। তিনি রিয়াল মাদ্রিদে ছিলেন দীর্ঘ ৯টি বছর। সেই ৯টি বছরই তিনি কাটিয়েছেন স্পেনে। রাজধানী মাদ্রিদেই গড়েছিলেন বসতবাড়ি। কিনেছিলেন একটি সুরম্য প্রাসাদ। দীর্ঘ সময় ধরে বসবাসের সুবাদে স্পেনের সঙ্গে তার সম্পর্কের ডালপালা গজিয়েছে অনেক। কিন্তু স্পেনের সঙ্গে সম্পর্কের সেই সুতো একেবারে ছিঁড়ে ফেলতে চাইছেন ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো। বিক্রি করে দিতে যাচ্ছেন মাদ্রিদে তার নিজের কেনা বাড়ি, হোটেলসহ সবকিছু। স্পেনে যেহেুত থাকাই হচ্ছে না, শুধু শুধু সম্পর্কের সুতো গেথে রেখে লাভ কি!

পর্তুগিজ তারকা রিয়াল ছেড়ে যোগ দিয়েছেন ইতালিয়ান ক্লাব জুভেন্টাসে। তুরিনের এই ক্লাবটিতে যোগ দেওয়ার পর তুরিন পাহাড়ে এরই মধ্যে ছবির মতো সুন্দর একটা বাড়িও কিনে ফেলেছেন তিনি! সেটা অবশ্য অন্য প্রসঙ্গ। এখানে বরং আলোচনা বিষয় রোনালদোর সম্পর্ক ছিন্ন করার বাসনার কথা। পর্তুগালের পত্রিকা ‘এল কোরেইও দু মানহা’র এক প্রতিবেদনে দাবি করা হয়েছে, স্পেনের সঙ্গে সমস্ত সম্পর্ক ছিন্ন করতে যাচ্ছেন রোনালদো।

২০০৯ সালে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেড ছেড়ে রিয়ালে যোগ দেওয়ার পরই মাদ্রিদে নিজের একটা বাড়ি কিনেন রোনালদো। স্ত্রী-সন্তান নিয়ে রোনালদো এতোদিন সেই বাড়িতেই থাকতেন। মাঝেমধ্যে থাকতেন তার মা-বোনও। কিন্তু এল কোরেইও দু মানহা জানিয়েছে, মাদ্রিদের প্রানকেন্দ্রের এই বাড়িটা বিক্রি করার উদ্যোগ নিয়েছেন রোনালদো।

শুধু বাড়ি বিক্রি করলেই হবে না। স্পেনের সঙ্গে সম্পর্ক চুকিয়ে ফেলতে হলে রোনালদোকে সরে আসতে হবে হোটেল ব্যবসার কার্যক্রম থেকেও। মাদ্রিদেরই গ্র্যান্ড ভিয়াতে ‘সিআর৭ হোটেল’ দেওয়ার প্রকল্প হাতে নিয়েছেন তিনি। শুরু হয়েছে বিল্ডিং তৈরির কাজও। পেস্তানা গ্রুপের সঙ্গে অংশীদারিত্বের ভিত্তিতেই এই ‘সিআর৭ হোটেল’ প্রতিষ্ঠার কাজে হাত দেন তিনি। ‘এল কোরেইও দু মানহা’ বলছে, এই হোটেলটিও বিক্রি করার পরিকল্পনা হাতে সেরে ফেলেছেন ৫ বারের ব্যালন ডি’অর জয়ী।

রোনালদোর রিয়াল ছাড়ার অন্যতম কারণ, কর ফাঁকির অভিযোগে স্প্যানিশ আয়কর কর্তৃপক্ষের মামলা-মোকদ্দমা। স্পেনে আসার পর থেকেই কর ফাঁকি দেওয়ার অভিযোগে রোনালদোকে হয়রানি করে আসছে স্পেনের আয়কর কর্তৃপক্ষ। তাকে আদালতের কাঠগড়ায় দাঁড়াতে হয়েছে অনেকবার। এমনকি সর্বশেষ গত জুনে তাকে দুই বছরের জেলও দিয়েছে স্পেনের এক আদালত। তাছাড়া স্পেনের গণমাধ্যমের সঙ্গেও রোনালদোর সম্পর্কটা মধুর ছিল না।

স্পেনের কর কর্তৃপক্ষের মামলা-মোকদ্দমায় তিতিবিরক্ত হয়ে গত মৌসুমেই রিয়াল ছাড়ার পরিকল্পনা করেছিলেন রোনালদো। তবে শেষ পর্যন্ত সেই সিদ্ধান্ত থেকে সরেও আসেন তিনি। কিন্তু এবার আর সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসা নয়। রিয়াল ছেড়ে চলেই গেছেন তিনি। আর চলে যেহেতু গেছেনই, সব সম্পর্কও চুকিয়ে ফেলতে চাইছেন না।

কিন্তু প্রশ্ন হলো, রোনালদো চাইলেই কি স্পেনের সঙ্গে সম্পর্কের সব সুতো ছিঁড়ে ফেলতে পারবেন? হয়তো স্থাবর সম্পত্তি হিসেবে বাড়ি, হোটেল, দামী সব আসবাব বিক্রি করে দিতে পারবেন। কিন্তু এসবের বাইরে নাড়ির যে সম্পর্ক পাতা হয়ে গেছে, রোনালদো তা উপড়ে ফেলবেন কিভাবে?

তার সহধর্মিণী জর্জিনা রদ্রিগেজের বাড়ি স্পেনে। তাদের ঘরে যে কন্যা সন্তান আছেন, সেই আলানা মার্টিনার জন্মও স্পেনে। শুধু তাই নয়, রোনালদোর ছেড়ে ফেলে ক্রিস্তিয়ানো জুনিয়র মাদ্রিদেরই স্কুলে পড়ালেখা করে। সেই সুবাদে সেখানে জুটেছে তার অনেক বন্ধু। পড়ালেখার পাশাপাশি ক্রিস্তিয়ানো জুনিয়র ফুটবলও খেলেন মাদ্রিদেরই একটা ক্লাবে। যে ক্লাবটিতে সেই অন্যতম বড় তারকা।

এই ছেলেকেও না হয় তিনি স্পেনের পড়াশোনায় ব্রেক করে ইতালিতে নিয়ে গেলেন। ভর্তি করে দিতে পারবেন ইতালিরই কোনো স্কুল এবয় ফুটবল ক্লাবে। কিন্তু তার স্ত্রী রদ্রিগেজ এবং তার কোলজুড়ে আসা কন্যা সন্তান আলানা মার্টিনা। স্পেনের সঙ্গে এই দুজনের নাড়ীর সম্পর্ক ছিন্ন করবেন কিভাবে? তাছাড়া স্পেনে তার নিজেরও তো অনেক বন্ধু-বান্ধব আছেন। রোনালদো চাইলেই কি বন্ধুত্বের সেই সম্পর্ক ছিঁড়ে ফেলতে পারবেন?

কেআর