এক-এর জন্য চার!

ঢাকা, শুক্রবার, ১৭ আগস্ট ২০১৮ | ২ ভাদ্র ১৪২৫

এক-এর জন্য চার!

পরিবর্তন ডেস্ক ৭:০৫ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ০২, ২০১৮

print
এক-এর জন্য চার!

ফরোয়ার্ডদের ফর্মহীনতা দৃশ্যমানই। রিয়াল মাদ্রিদের আক্রমণ ত্রয়ী ‘বিবিসি’ একসঙ্গে দুঃসময়ের মুখোমুখি। নিজেদের তারকাখ্যাতির আলোকে জ্বলে উঠতে পারছেন না ক্রিস্তিয়ানো রোনালদো, করিম বেনজেমা, গ্যারেথ বেলের কেউই। এই আক্রমণ ত্রয়ীর পাশাপাশি গোলপোস্টও হয়ে উঠেছে রিয়ালের বড় মাথা ব্যাথার কারণ! এ মৌসুমে রিয়াল যে খাবি খাচ্ছে, তার পেছনে গোলরক্ষকদের ব্যর্থতা-দুর্বলতাও সমানভাবে দায়ী। রিয়াল তাই একজন বিশ্বমানের গোলরক্ষক কেনার পাকা সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছে। ফুটবলের জনপ্রিয় ওয়েবসাইট গোল ডট কমের খবর, সেই একজনের খুঁজে রিয়ালের রাডারে আছেন ৪ জন গোলরক্ষক!

তারা কে কে, সেই আলোচনায় পরে আসছি। তার আগে জেনে নেব রিয়ালের বর্তমান গোলপোস্টের সৈনিকদের অবস্থা। রিয়ালের বর্তমান একাদশে গোলরক্ষক আছেন ৩ জন। এক নম্বর কেইলর নাভাস। দুই নম্বর কিকো ক্যাসিয়া। তিন নম্বরে মোহা রামোস। কিন্তু এক নম্বর গোলরক্ষক কেইলর নাভাস ছাড়া বাকি দুজনের কারো উপরই ভরসা রাখতে পারছেন না কোচ জিনেদিন জিদান।

তাতেও হয়তো সমস্যা প্রকট হতো না। কিন্তু এক নম্বর গোলরক্ষক নাভাসও এ মৌসুমে সংগ্রাম করছেন। বিশেষ করে বাতাসে (উড়ে আসা বলে) এই কোস্টারিকানের দুর্বলতা ক্রমেই স্পষ্ট হচ্ছে। ৩১ বছর বয়সী নাভাস পাখির মতো উড়তে পারছেন না। শরীরটা যেন ভারি মনে হচ্ছে। উড়ে বলের কাছে পৌঁছানোর আগেই বল চুমু খাচ্ছে জাল!

যার খেসারত রিয়ালকে দিতে হচ্ছে হার কিংবা ড্র করে। দুর্বলতা দেখেও কোচ জিদানকে চোখ বুঝে মেনে নিতে হচ্ছে। বাধ্য হচ্ছেন ছন্দ হারিয়ে ফেলা নাভাসের উপরই। কারণ, বাকি যে দুজন আছেন, সেই কিকো ক্যাসিয়া কিংবা মোহা রামোস অনুশীলনেই আস্থা অর্জন করতে পারছেন না কোচের।

ফল, ফরোয়ার্ডদের চেয়েও গোলপোস্ট কোচ জিদান এবং ক্লাব সভাপতি ফ্লোরেন্তিনো পেরেজের রাতের ঘুম হারাম করছে বেশি। সমস্যা সমাধানে রিয়াল অবশ্য জানুয়ারিতেই অ্যাথলেতিক বিলবাওয়ের তরুণ স্প্যানিশ গোলরক্ষক কেপা আরিজাবালাগার সঙ্গে কথা-বার্তা চূড়ান্ত করে ফেলেছিল। কিন্তু শেষ মুহূর্তে এসে বেঁকে বসে বিলবাও। শুধু ধরে রাখা নয়, ২৩ বছর বয়সী কেপার সঙ্গে চুক্তিও নবায়ন করে নিয়েছে অ্যাথলেতিক বিলবাও।

কেপা হাতছাড়া হওয়াতেই রিয়ালের চিন্তা আরও বেড়েছে। এই মৌসুমের বাকি সময়টা বাধ্য হয়ে নাভাসের উপরই আস্থা রেখে চলতে হবে। কিন্তু আগামী মৌসুমে কি হবে? চিন্তায় চিন্তায় সমস্যা সমাধানের পথটাও আবিষ্কার করে ফেলেছে। গ্রীষ্মেই কিনতে হবে একজন বিশ্বসেরা গোলরক্ষক।

গোল ডট কম জানাচ্ছে, সেই একের সন্ধ্যানে রিয়ালের রাডারে এসে গেছে ৪টি নাম। তারা হলেন ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডের স্প্যানিশ গোলরক্ষক ডেভিড ডি ডেয়া, চেলসির বেলজিয়ান গোলরক্ষক থিবো কুর্তোইস, অ্যাতলেতিকো মাদ্রিদের স্লোভেনিয়ান গোলরক্ষক ইয়ান ওবলাক এবং এসি মিলানের তরুণ ইতালিয়ান গোলরক্ষক জিয়ানলুইজি দোনারুম্মা।

এই ৪ জনই আছেন দুর্দান্ত ফর্মে। প্রত্যেকেই আছেন বর্তমানের বিশ্বসেরা গোলরক্ষকদের তালিকায়। বয়সেও সবাই তরুণ। একমাত্র ডেভিড ডি গেয়ার বয়সই যা একটু বেশি, ২৭। এছাড়া থিবো কুর্তোইস ও ওবলাক, দুজনের বয়সই ২৫। জিয়ানলুইজি দোনারুম্মার বয়স তো মাত্র ১৮। তবে এই বয়সেই ইতালিয়ান তরুণ নিজের জাতটা চিনিয়েছেন। ইতালি জাতীয় দলে জায়গা করে নেওয়ার পাশাপাশি এসি মিলানেরও এক নম্বর গোলরক্ষক এখন তিনিই! 

প্রতিভা-সামর্থ না থাকলে যে রিয়ালের মতো সাফল্য পিপাসু ক্লাবের রাডারে আসতে পারতেন না, সেটা স্পষ্টই। তাছাড়া এমনি এমনিতে তো আর তাকে কিংবদন্তি গোলরক্ষক জিয়ানলূইজি বুফনের যোগ্য উত্তরসূরি ভাবা হচ্ছে না। এখন দেখার বিষয়, ৪ জনের মধ্যে থেকে কে জায়গা করে নিতে পারেন রিয়ালে, কে হন কেইলর নাভাসের উত্তরসূরি!

কেআর

 
.


আলোচিত সংবাদ