বৈশাখে শাড়ির সাথে, কুর্তি-কামিজ

ঢাকা, রবিবার, ২০ অক্টোবর ২০১৯ | ৪ কার্তিক ১৪২৬

বৈশাখে শাড়ির সাথে, কুর্তি-কামিজ

পরিবর্তন ডেস্ক ১:৪১ অপরাহ্ণ, এপ্রিল ১৩, ২০১৯

বৈশাখে শাড়ির সাথে, কুর্তি-কামিজ

রাত পোহালেই বাঙালির প্রাণের বৈশাখ। নববর্ষকে বরণ করে নিতে বিভিন্ন ফ্যাশন হাউস নানা রঙে নানা ঢঙে উৎসবের আমেজকে মুখরিত করে তোলে। ঋতুকে প্রাধান্য দিয়ে পোশাকে আসে বৈচিত্র্য। নববর্ষের উৎসবকে রাঙিয়ে দিতে টপস-কামিজের জমিনে লেগেছে রঙের ছোঁয়া। বৈশাখ মানে রঙের বাহার। আগের মতো তা কেবল লাল-সাদায় সীমাবদ্ধ নেই। ডিজাইনাররাও ডিজাইনে আনছেন নতুনত্ব। সময়ের সঙ্গে সঙ্গে পরিবর্তন হচ্ছে, আসছে নানা রঙের নানা ঢঙের পোশাক।

প্রতিবারেই বৈশাখ আসে নানা বৈচিত্র্য নিয়ে। এ সময় প্রকৃতিতে যেমন বৈচিত্র্যের ছোঁয়া লাগে, তেমনি বৈচিত্র্যের ছোঁয়া লাগে পোশাকেও। এবার বৈশাখে পোশাকের প্রস্তুতিতে আছে বৈচিত্র্যের ছোঁয়া। শাড়ি-পাঞ্জাবি তো থাকছেই, এর পাশে অনেকেই হাতের কাছে রাখছেন হাল ফ্যাশনের টপস।

এ টপসগুলোয় যোগ হয়েছে বৈশাখী আমেজ। বিশেষ করে টিন বয়সীদের পছন্দের তালিকায় টপস থাকলেও ত্রিশের কোটায় পা রাখা অনেকেই গরম আর ভিন্নমাত্রা যোগ করতে টপস কিনতে শুরু করেছেন। ফলে ডিজাইনাররাও টিনএজদের জন্য তো অবশ্যই সেই সঙ্গে নানা বয়সী মানুষের রুচির কথা মাথায় রেখে টপস ডিজাইন করছেন।

এর সঙ্গে মিলে ফ্যাশন হাউসগুলোও এ বৈচিত্র্য নিয়ে আয়োজন রাখছে প্রচুর। এবার গরম একটু বেশি বলে ব্যবহার করা হচ্ছে আরামদায়ক কাপড় আর ঢিলেঢালা কাট। রঙের ব্যবহারও থাকছে বৈশাখী টপসে। এখন সময়োপযোগী আরামদায়ক পোশাকের দিকে নজর সবার। এসব পোশাক শুধু গতানুগতিক ধারাতেই থাকে না, বরং নিত্যনতুন ফ্যাশন যোগ করা হয়।

বৈশাখী পোশাকে শাড়ির পাশাপাশি ফ্যাশন হাউসগুলো তাদের ঝুলিতে যোগ করেছে বিভিন্ন দেশের ফ্যাশন। টপস মূলত পশ্চিমা দেশের ঐতিহ্য। তা সত্ত্বেও নিজস্ব কৃষ্টি কালচারের সঙ্গে যোগ হয়েছে পশ্চিমা পোশাক। সেই ধারাবাহিকতায় টপস এখন দেশীয় ফ্যাশনের অন্তর্ভুক্ত। যারা কামিজে স্বাচ্ছন্দ্য নয় তারা টপসকে বিকল্প হিসেবে রাখছেন।

অনেক টিনএজার এ জন্য টপসকে বাড়তি গুরুত্ব দিচ্ছেন। বৈশাখী আয়োজন থাকায় টপসে দেখতেও ভালো লাগবে, পরেও আরাম পাবে। অন্যদিকে এ পোশাকগুলোই আবার অনায়াসে মানিয়ে যাবে ত্রিশের কোটায় আছেন এমন অনেক নারীকে। তবে সে ক্ষেত্রে হয়তো কাটিং ও নকশায় কিছুটা পরিবর্তন আসবে। ছোট কাফতান না পরে একটু লম্বা কাফতান বেছে নিলেই ভালো লাগবে।

কয়েক বছর আগের কাটিংয়ের সঙ্গে নতুন কোনো কাটিং যোগ করলেই তৈরি হয়ে যায় নতুন আরেকটি ফ্যাশনেবল পোশাক। টপসের ক্ষেত্রেও তেমনটি দেখা যাচ্ছে। এবার বেশির ভাগ পোশাকই বানানো হয়েছে নিট ও সুতির কাপড় দিয়ে। তবে উৎসবের জমকালো ভাব তুলে ধরার জন্য আছে সিল্ক, জর্জেট, হাফ সিল্ক কিংবা অ্যান্ডি কাপড়। কিছু কিছু টপসে হালকা অ্যামব্রয়ডারির কাজ দেওয়া হয়েছে গলা ও হাতায়। কাফতানগুলোয় ভিন্নতা আনতে করা হয়েছে টাইডাই।

কোনো কোনো টপসে গলার কাছে কিংবা ঠিক মাঝখানটায় সোজা বরাবর অনেক কুচির ব্যবহার এখন লক্ষণীয়। বৈশাখী আয়োজনে এবার দেখা যাচ্ছে একরঙা টপস। কিছু ফ্লোরালও থাকছে। কোনোটায় আবার থাকে শেডের ছোঁয়া। বৈশাখী আমেজ আনতে অনেকে লাল রং বেছে নিতে পারেন। যারা টপস বেছে নিচ্ছেন তারা তৈরি করা টপস কেনার ক্ষেত্রে ফিটিংসের দিকে খেয়াল রাখুন। বেশি ঢিলা হলে কেনার পর দর্জির কাছ থেকে একটু ফিটিং করিয়ে নিতে পারেন। আর ঢিলেঢালা টপস বানিয়ে নিতে চাইলে দর্জিকে কাটিংটা ভালোভাবে বুঝিয়ে দিন। আর একটু বেশি করে কাপড় কিনুন। কারণ এগুলো যত ঢিলা হয় ততই ভালো।

টপস পরার পর খেয়াল করুন এটি জেগিংসের সঙ্গে ভালো লাগছে, না পালোজ্জার সঙ্গে। যেটাতে আপনাকে মানাবে প্যান্টের ক্ষেত্রে সেটিই বাছাই করুন। রোদের কারণে টপসের ওপর জড়িয়ে নিতে পারেন রঙিন একটি স্কার্ফ। এতে আরও বেশি স্টাইলিশ লাগবে। মোটিফে এসেছে বাঙালি লোকজ উপাদান ও ঐতিহ্য। মোটিফের চিত্রটা গতানুগতিক থাকলেও এবারের বৈশাখে টপস, কুর্তির বেলায় বাড়তি পাওনা কাটিং। লং কুর্তি সব ফ্যাশন হাউসে মিললেও নতুন ধরনের এই কুর্তি পাবেন মেঘ রোদ্দুর ডিজাইন কালেকশনে। আর টপসও মিলবে।

ব্র্যান্ড: পঞ্চতারা
ডিজাইনার: মেহেনাজ পারভিন
ফোটোগ্রাফার: রাহুল রয় মিশুক
মেকওভার: মৌমিতা জান্নাত সোনু ও নাবিলা চৌধুরী
মডেল: আবিদা, মৌমিতা জান্নাত সোনু, নাবিলা চৌধুরী ও নীলিমা।

ইসি/

 

ফ্যাশন: আরও পড়ুন

আরও