বহিরাগতদের মঙ্গলবার রাত ১২টার মধ্যে ডিএনসিসি ছাড়ার নির্দেশ

ঢাকা, বুধবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৯ | ২৯ কার্তিক ১৪২৬

বহিরাগতদের মঙ্গলবার রাত ১২টার মধ্যে ডিএনসিসি ছাড়ার নির্দেশ

জ্যেষ্ঠ প্রতিবেদক ৯:২৪ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২৫, ২০১৯

বহিরাগতদের মঙ্গলবার রাত ১২টার মধ্যে ডিএনসিসি ছাড়ার নির্দেশ

আসন্ন ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন (ডিএনসিসি)’র মেয়র পদে উপনির্বাচন ও নতুন ১৮টি ওয়ার্ডে সাধারণ নির্বাচন উপলক্ষে যারা এলাকার ভোটার নন, তাদেরকে আগামীকাল মঙ্গলবার রাত ১২টার মধ্যে এলাকা ছাড়ার নির্দেশ দিয়েছে নির্বাচন কমিশন (ইসি)।

সোমবার বিকেলে ডিএনসিসির রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. আবুল কাসেম সাংবাদিকদের এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, আগামী ২৮ ফেব্রুয়ারি ডিএনসিসি নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচনের পরিবেশ শান্তিপূর্ণ রাখতে বহিরাগতদের মঙ্গলবার (২৬ ফেব্রুয়ারি) রাত ১২টার মধ্যে ভোটার এলাকা ছাড়তে হবে।

ছাত্র-ছাত্রীদের ক্ষেত্রে করণীয় কী হবে? এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘যাদের বাড়ি ঢাকার বাইরে কিন্তু পড়াশোনা করতে ডিএনসিসিতে থাকছে, তাদের জন্য এই নির্দেশনা বলবৎ হবে না। তারা মেস বা হোস্টেলে থাকতে পারবে।’

তিনি বলেন, ‘আমাদের আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীও বোঝেন, কারা সন্ত্রাসী। সেভাবেই তারা ব্যবস্থা নেবেন।’

আবুল কাসেম বলেন, ‘নির্বাচনের দিন ডিএনসিসিতে সাধারণ ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে। এদিন উত্তরের কোনো অফিস খোলা থাকবে না। তবে কোনো পাবলিক পরীক্ষা থাকলে, সে পরীক্ষা যথানিয়মেই চলবে।’

রিটার্নিং কর্মকর্তা বলেন, ‘ভোটের আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের বিষয়ে তিনি বলেন, আমাদের সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন হয়েছে। কোনো ধরনের অনিয়মন মেনে নেয়া হবে না। কোথাও অনিয়ম হলে সঙ্গে সঙ্গে সেই কেন্দ্রে ভোটগ্রহণ বন্ধ করে দেয়া হবে।’

প্রতি সাধারণ কেন্দ্রে বিভিন্ন বাহিনীর ১৯ জন করে এবং ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্রে ২৩ জন করে ফোর্স মোতায়েন থাকবে বলে জানান তিনি।

‘নির্বাচনে পুলিশ, এপিবিএন ও ব্যাটেলিয়ান আনাসার সমন্বয়ে মোট ২৭টি মোবাইল টিম নিয়োজিত থাকবে। এছাড়া এদের ১৮টি স্ট্রাইকিং ফোর্স নিয়োজিত থাকবে। র‌্যাব থাকবে ২৭ টিম এবং বিজিবি নিয়োজিত থাকবে ২৫ প্লাটুন।’ যোগ করেন রিটার্নিং কর্মকর্তা।

‘নির্বাচনের আচরণবিধি প্রতিপালন ও অনিয়মের শাস্তি প্রদানে ৫৪ নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও আর বিচারিক ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োজিত থাকবেন ২৪ জন।’

২৮ ফেব্রুয়ারি ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের নতুন ১৮টি ওয়ার্ডেও ভোটগ্রহণ করা হবে। এই নির্বাচনেও একই হারে বিভিন্ন বাহিনীর সদস্য মোতায়েন থাকবে বলে জানান ডিএনসিসি রিটার্নিং কর্মকর্তা মো. আবুল কাসেম।

এইচকে/এইচআর

 

নির্বাচন কমিশন: আরও পড়ুন

আরও