অপহরণের ১৮ দিন পর শ্রমিকের গলিত মরদেহ উদ্ধার

ঢাকা, বুধবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৯ | ২৯ কার্তিক ১৪২৬

অপহরণের ১৮ দিন পর শ্রমিকের গলিত মরদেহ উদ্ধার

গাজীপুর প্রতিনিধি ৬:৪৭ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৩, ২০১৯

অপহরণের ১৮ দিন পর শ্রমিকের গলিত মরদেহ উদ্ধার

গাজীপুরের কালিয়াকৈরে অপহরণের ১৮ দিন পর এক পোশাক শ্রমিকের গলিত মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

আজ শুক্রবার চান্দরা এলাকার ইয়াকুব শেখের বাড়ির সেপটিক ট্যাংক থেকে ওই শ্রমিকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

পুলিশ জানায়, নিহত শ্রমিকের নাম অহিরুল ইসলাম। তিনি পাবনার আটঘড়িয়া থানার ভরতপুর গ্রামের ফজলুল হক মোল্লার ছেলে।

অহিরুল দীর্ঘদিন কালিয়াকৈর পৌরসভার কাঠাতলা এলাকার আবদুল মালেকের বাড়িতে বাসা ভাড়ায় ছিলেন এবং স্থানীয় ময়েজ উদ্দিন টেক্সটাইল মিলে চাকরি করতেন।

এ ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য পুলিশ ৩ জনকে আটক করেছে।

এর আগে ১৫ লাখ টাকা মুক্তিপণের দাবিতে ওই পোশাক শ্রমিককে অপহরণ করে দুর্বৃত্তরা।

কালিয়াকৈর থানার উপ-পরিদর্শক মাহবুব আলম জানান, গত ৬ আগস্ট বাড়ি যাওয়ার উদ্দেশ্যে বাসা থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হয় অহিরুল ইসলাম। পরে স্বজনদের মোবাইল ফোনে অহিরুলকে অপরণ করা হয়েছে বলে জানায় দুর্বৃত্তরা। মুক্তিপণ হিসেবে ১৫ লাখ টাকা না দিলে তাকে হত্যার হুমকি দেয় অপহরণকারীরা।

তিনি জানান, গত ২০ আগস্ট নিহতের চাচাতো ভাই পাঞ্চাব আলী কালিয়াকৈর থানায় অপহরণ মামলা দায়ের করে। মামলার প্রেক্ষিতে স্থানীয় ইয়াকুব শেখের বাড়ির ভাড়াটিয়া শামীম হোসেনকে আটকের পর জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। পরে তার স্বীকারোক্তিতে আজ ভোরে পুলিশ অভিযান চালিয়ে চান্দরা এলাকার ইয়াকুব শেখের বাড়ির সেপটিক ট্যাংক থেকে অহিরুল ইসলামের গলিত মরদেহ উদ্ধার করে।

ঘটনার সাথে জড়িত থাকায় ইয়াকুব শেখ ও তার ছেলে কামরুল শেখকে আটক করে পুলিশ।    

এসবি

 

ঢাকা: আরও পড়ুন

আরও