রাজকোটে বাংলাদেশের পুঁজি ১৫৩ রান

ঢাকা, বুধবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৯ | ২৯ কার্তিক ১৪২৬

রাজকোটে বাংলাদেশের পুঁজি ১৫৩ রান

পরিবর্তন ডেস্ক ৯:২৯ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ০৭, ২০১৯

রাজকোটে বাংলাদেশের পুঁজি ১৫৩ রান

শেষটা শুরুর মতো করতে পারল না বাংলাদেশ। ফলে দুর্দান্ত শুরু পেয়েও ভারতের সামনে লক্ষ্যটা খুব বেশি বড় করতে পারল তারা। প্রথমে ব্যাট করে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৫৩ রান করেছে বাংলাদেশ।

অথচ ওপেনিং জুটিতে দারুণ শুরু পেয়েছিল বাংলাদেশ। লিটন দাস ও নাঈম ইসলামের জুটিতে আসে ৬০ রান। দুই জনের মারমুখী ব্যাটিংয়ে বড় রানের স্বপ্ন দেখছিল দল।

ইনিংসের দ্বিতীয় ওভারেই খলিল আহমেদকে পর পর তিন বলে তিনটি চার মেরে ভারতীয়দের বুকে ভয় ধরিয়ে দিয়েছিলেন নাঈম। অন্যপ্রান্তে লিটন খেলছিলেন দারুণ। লিটন-নাঈমে তখন বেশ দিশেহারাই লাগছিল রোহিত শর্মাদের।

কিন্তু অষ্টম থেকে ত্রয়োদশ— এই ৫ ওভারের ৪ উইকেট হারিয়ে খেই হারিয়ে ফেলে বাংলাদেশ। শুরুটা হয় লিটনকে দিয়ে। দুই দুইবার জীবন পাওয়া লিটন শিকার হন রান আউটের। তার আগে ২১ বলে ২৯ রান করেন তিনি।

এরপর একাদশ ওভারের তৃতীয় বলে ওয়াশিংটন সুন্দরকে তুলে মারতে গিয়ে ডিপ মিডউইকেটে শ্রেয়াস আয়ারের কাছে ক্যাচ তুলে দেন নাঈম। তিনি করেছেন ৩৬ রান।

এদিন বেশিক্ষণ ক্রিজে টিকতে পারেননি মুশফিকুর রহীম। ইনিংসের ১৩তম ওভারের প্রথম বলে ব্যক্তিগত ৪ রানে ক্যাচ তুলে মাঠ ছাড়েন দিল্লির ম্যাচের নায়ক। একই ওভারের ষষ্ঠ বলে স্টাম্পিংয়ের শিকার হন সৌম্য সরকার। তার আগে ২০ বলে ৩০ রান করেছেন এই বাঁ-হাতি হার্ডহিটার।

এরপর আর রানে গতি বাড়াতে পারেনি দল। মাহমুদউল্লাহর ৩০ রানে ভর দিয়ে আড়াইশ পেরোনো রান পায় বাংলাদেশ।

ভারতের হয়ে ২৮ রানে ২ উইকেট নিয়েছেন যুজবেন্দ্র চাহাল। এছাড়া দীপক চাহার, খলিল আহমেদ ও ওয়াশিংটন সুন্দর নিয়েছেন একটি করে উইকেট।

পিএ

 

ক্রিকেট: আরও পড়ুন

আরও