সুখবর ‘শূন্যে’ উড়ালেন সৌম্য

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯ | ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

সুখবর ‘শূন্যে’ উড়ালেন সৌম্য

পরিবর্তন প্রতিবেদক ১২:৩৯ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৮, ২০১৯

সুখবর ‘শূন্যে’ উড়ালেন সৌম্য

ভারতের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজের জন্য ঘোষিত দলে ফিরেছেন তামিম ইকবাল, আরাফাত সানি, আল আমিন হোসেনরাও। তবে দলে ফেরার আনন্দটা হয়তো সবচেয়ে বেশি আনন্দদায়ক ছিল সৌম্য সরকারের জন্যই। কারণ চরম ফর্মহীনতার কারণেই ত্রিদেশিয় সিরিজের মাঝপথে দল থেকে বাদ পড়েন তিনি। সেই সৌম্য আবার দলে ফিরেছেন ফর্মে ফেরার প্রমাণ না দিয়েই! মানে ঘরোয়া ক্রিকেটে নিজেকে নতুনভাবে প্রমাণ না করেই দলে ফিরেছেন তিনি!

তাতে অন্য অনেকের মতো হয়তো তিনি নিজেও কিছুটা বিস্মিত হয়েছেন। তবে বিস্ময়ের চেয়ে হয়তো আনন্দটাই বেশি ছিল তার কাছে। কিন্তু বিস্ময়ের ঘোর লাগানো সেই আনন্দটা হাওয়ায় মানে ‘শুন্যে’ উড়ালেন সৌম্য সরকার। দলে ফেরার আনন্দ সংবাদের পর দিনই মাঠে নেমে ‘ডাক’ মারলেন ব্যাট হাতে।

সত্যিই তাই। দলে ফেরার সুখবরটা পেয়েছেন গতকাল। রাতটি খুব আনন্দেই কেটে থাকবে তার। কিন্তু আনন্দময় রাত শেষে দিনের ফুটতেই তার সেই আনন্দ ‘শূন্য’র বিষাদে চাপা। রাজশাহী বিভাগের বিপক্ষে জাতীয় ক্রিকেট লিগের ম্যাচে আজ খুলনা বিভাগের হয়ে ইনিংস ওপেন করতে নেমে শূন্য রানে আউট হয়েছেন সৌম্য।

দলে ফেরার আনন্দলগ্নে তাকে এই শূন্য উপহার দিয়েছেন রাজশাহীর পেসার শফিউল ইসলাম। সৌম্যর সঙ্গে তিনিও আছেন ভারত সফরের টি-টায়েন্টি সিরিজের দলে। শফিউলের বলে ব্যক্তি শূন্য রানে জুনায়েদ সিদ্দিকির হাতে ক্যাচ দিয়েছেন সৌম্য। এই শুন্য মারার মাধ্যমে সৌম্য কী নির্বাচকদের আস্থাটাকেই প্রশ্নবিদ্ধ করলেন?

উত্তরটা বিসিবির নির্বাচকরাই ভালো দিতে পারবেন। তবে সৌম্যর শূন্যে প্রশ্নটা উঠেই। অনেক দিন ধরেই ব্যাট হাতে ফর্মটা ভালো যাচ্ছিল না তার। আফগানিস্তান ও জিম্বাবুয়েকে নিয়ে ত্রিদেশিয় সিরিজের মাঝপথেই তাই দল থেকে বাদ পড়েন সৌম্য।

এরপর ঘরোয়া ক্রিকেটে এমন কিছু করে দেখাতে পারেননি, যা প্রমাণ করে তিনি ফর্মে ফিরেছেন। তারপরও নির্বাচকরা মহাগুরুত্বপূর্ণ ভারত সিরিজের দলে ডেকেছেন তাকে। এতে হয়তো সৌম্যর দায়িত্বটা আরও বেড়ে গিয়েছিল মাঠে নেমে নির্বাচকদের সিদ্ধান্তটাকে যৌক্তিক বলে প্রমাণ করার জন্য। উল্টো তিনি মেরে বসলেন শূন্য।

তার শূন্যে অবশ্য তারকাখচিত খুলনার বিশেষ কোনো বিপদ হয়নি। মোস্তাফিজ, রুবেল, মেহেদী মিরাজদের সমন্বয়ে গড়া খুলনার দুর্দান্ত বোলিং লাইনআপের সামনে গতকাল ম্যাচের প্রথম দিনে প্রথম ইনিংসে মাত্র ২৬১ রানেই গুটিয়ে গেছে রাজশাহী।

আজ তার জবাব দিতে নেমে তারকাখচিত খুলনা এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত ১ উইকেট হারিয়ে করেছে ৩৮ রান। সৌম্য ইনিংস শুরু করতে নামেন এনামুল হক বিজয়কে সঙ্গী করে। দুর্দান্ত একটা ইনিংস খেলে নির্বাচকদের সিদ্ধান্তটাকে সঠিক প্রমাণ করার বাসনাই হয়তো ছিল না। কিন্তু শফিউল তার সেই স্বপ্নকে দুঃস্বপ্নে পরিণত করেছেন।

সৌম্যকে হারানোর ধাক্কা সামলে খুলনাকে টেনে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে যাচ্ছেন ইমরুল কায়েস ও এনামুল হক বিজয়। আগের রাউন্ডেই ‘ডাবল’ সেঞ্চুরি করা ইমরুল ২০ ও বিজয় ব্যাট করছেন ১৮ রান নিয়ে।

কেআর

 

ক্রিকেট: আরও পড়ুন

আরও