শোচনীয় হারে সিরিজ খোয়ালো পাকিস্তান

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৯ জুলাই ২০১৮ | ৪ শ্রাবণ ১৪২৫

শোচনীয় হারে সিরিজ খোয়ালো পাকিস্তান

পরিবর্তন ডেস্ক ১১:২৫ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১৩, ২০১৮

print
শোচনীয় হারে সিরিজ খোয়ালো পাকিস্তান

কে বলবে দলটি ২০১৭ সালের চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি থেকে শুরু করে বছরের শেষ পর্যন্ত টানা ৯টি ওয়ানডেতে জিতেছে। শনিবার ডানেডিনের ইউনিভার্সিটি ওভালে পাকিস্তান যেভাবে ব্যাট করছিল একপর্যায়ে মনে হচ্ছিল ওয়ানডেতে সর্বনিম্ন দলীয় স্কোরের রেকর্ড নতুন করে লিখতে হবে। শেষপর্যন্ত তা না হলেও নিউজিল্যান্ডের দেয়া ২৫৮ রানের লক্ষ্যের জবাবে মাত্র ৭৪ রানে গুটিয়ে গেছেন সরফরাজরা। এটা তাদের তৃতীয় সর্বনিম্ন দলীয় সংগ্রহ। সিরিজের তৃতীয় ওয়ানডেতে ১৮৩ রানে হারতে হলো পাকিস্তানকে। আগের দুটি ওয়ানডেও হেরেছিল, এবার তৃতীয় ওয়ানডে হেরে পাঁচ ম্যাচের সিরিজটিই খোয়াতে হল নিউজিল্যান্ডের কাছে।

টস জিতে ব্যাটিং নিয়ে দলীয় ১৫ রানেই প্রথম উইকেট হারায় কিউইরা। এরপর তিনটি পঞ্চাশোর্ধ্ব রানের জুটিই দলটিকে ২৫৭ রানে পৌঁছানোর ভিত গড়ে দেয়। দ্বিতীয় উইকেটে ওপেনার মার্টিন গাপটিল ৬৯ রানের জুটি গড়েন অধিনায়ক কেন উইলিয়ামসনের সাথে। গাপটিল ৪৫ রান করে সাজঘরে ফেরার পর রস টেলরের সাথে উইলিয়ামসন চতুর্থ উইকেটে ৭৪ রান যোগ করেন। ১০১ বলে ৭ চারে ৭৩ রান করে কিউই অধিনায়ক যখন সাজঘরে ফেরেন দলের সংগ্রহ তখন ৩ উইকেটের বিনিময়ে ১৫৮ রান।

নতুন ব্যাটসম্যান টম ল্যাথামের সাথে ৫১ রানের জুটি গড়েন টেলর। ৫২ রান করে উইকেট হারান টেলর। এরপরের ব্যাটসম্যানরা আর কিছুই করতে পারেননি। ৪২.৩ ওভারে ৩ উইকেটে ২০৯ রান থেকে ইনিংস শেষে দলটির স্কোর দাঁড়ায় সবগুলো উইকেট হারিয়ে ২৫৭ রান। শেষ বলে আউট হওয়ার আগে ট্রেন্ট বোল্ট ১৩ রানের ইনিংস না খেললে আড়াইশো রান পার করতে পারত না নিউজিল্যান্ড। পাকিস্তানের দুই পেসার রুম্মান রইস ও হাসান আলি ৩টি করে উইকেট পান।

লক্ষ্য হিসেবে ২৫৭ রান খুব বেশি না। পাকিস্তানও ধীরে-সুস্থে ব্যাটিং শুরু করে। তবে দ্বিতীয় ওভার থেকেই তান্ডব শুরু করেন বোল্ট। তার তোপে ৪ ওভার শেষে মাত্র ২ রানে ৩ উইকেট হারায় দলটি। তিনটি উইকেটই পান বোল্ট। ৩২ রানে ৮ উইকেট হারানোর পর পাকিস্তানের অধিনায়ক সরফরাজ আহমেদের সাথে শেষ দুই ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ আমির ও রইসের যথাক্রমে ২০ ও ২২ রানের দুটি জুটি বড় লজ্জার হাত থেকে বাঁচায় দলটিকে। রইসকে আউট করে পাকিস্তানের দলীয় ইনিংস ৭৪ রানে থামিয়ে দেন বোল্ট। রইসই সর্বোচ্চ ১৬ রান করেন। আমির করেন ১৪ রান। সরফরাজ ১৪ রান করে অপরাজিত থাকেন। ১৭ রান খরচায় ৫ উইকেট পান বোল্ট। ম্যাচসেরার পুরস্কার পান তিনিই।

সিরিজের চতুর্থ ওয়ানডে অনুষ্ঠিত হবে মঙ্গলবার, ১৬ জানুয়ারি। হ্যামিল্টনের সেডন পার্কে বাংলাদেশ সময় সকাল ৭টায় শুরু হবে ম্যাচটি।

সংক্ষিপ্ত স্কোর-

নিউজিল্যান্ড : ২৫৭ (৫০ ওভার) (গাপটিল ৪৫, মুনরো ৮, উইলিয়ামসন ৭৩, টেলর ৫২, ল্যাথাম ৩৫, নিকোলস ০, স্যান্টনার ৬, অ্যাসল ৫, সাউদি ৬, ফার্গুসন ৬*, বোল্ট ১৩; আমির ০/৩৪, ফাহিম ১/২৯, রইস ৩/৫১, হাসান ৩/৫৯, শাদাব ২/৫১, মালিক ০/৩১)।

পাকিস্তান : ৭৪ (২৭.২ ওভার) (আজহার ০, ফখর ২, বাবর ৮, হাফিজ ০, মালিক ৩, সরফরাজ ১৪*, শাদাব ০, ফাহিম ১০, হাসান ১, আমির ১৪, রইস ১৬; সাউদি ০/১৯, বোল্ট ৫/১৭, মুনরো ২/১০, ফার্গুসন ২/২৮)।

ফলাফল : নিউজিল্যান্ড ১৮৩ রানে জয়ী।

ম্যাচসেরা : ট্রেন্ট বোল্ট।

এসএম

 
.



আলোচিত সংবাদ