রাহী-মেহেদী-আরিফুলদের পর্যাপ্ত সুযোগ দেওয়ার পক্ষে তামিম

ঢাকা, রবিবার, ২১ অক্টোবর ২০১৮ | ৫ কার্তিক ১৪২৫

রাহী-মেহেদী-আরিফুলদের পর্যাপ্ত সুযোগ দেওয়ার পক্ষে তামিম

পরিবর্তন ডেস্ক ৭:০৬ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০১৮

রাহী-মেহেদী-আরিফুলদের পর্যাপ্ত সুযোগ দেওয়ার পক্ষে তামিম

বাংলাদেশ জাতীয় দলের হয়ে মাত্র একটি ম্যাচ খেলেছেন, এমন ক্রিকেটারের সংখ্যাটা বেশ বড়ই। এক টি-টুয়েন্টিতেই আছেন ১২জন খেলোয়াড়। ২/৩ ম্যাচে জাতীয় দলের ক্যারিয়ার সীমাবদ্ধ অনেকের। একটা দুইটা ম্যাচে খারাপ খেললেই ছুড়ে ফেলা হয় তাদের। যদিও সাম্প্রতিক সময়ে এ সংস্কৃতি থেকে বিসিবি সরে এসেছে অনেকটাই। তারপরও যে এ প্রবণতা নেই, তাও নয়। তাই শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ডাক পাওয়া ৬ নতুন মুখের জন্য পর্যাপ্ত সুযোগ চান দলের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান তামিম ইকবাল খান। এক দুই ম্যাচের পারফরম্যান্স দিয়ে বিচার করা উচিৎ নয় বলে মনে করেন ২৮ বছর বয়সী দেশসেরা এ ওপেনার।

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে প্রথম টি-টুয়েন্টি ম্যাচের জন্য শুরুতে ৫ জন নতুন মুখকে ডাকা হয়েছিল। এবার জাকির হোসেন, মেহেদী হাসান, আবু জায়েদ রাহী, আরিফুল হক ও আফিফ হোসেনের সঙ্গে মঙ্গলবার নাজমুল ইসলাম অপু যোগ দেওয়ায় সংখ্যাটি দাঁড়ায় ৬’য়ে। অর্থাৎ শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে কমপক্ষে ২ জন খেলোয়াড়ের অভিষেক হচ্ছে। হতে পারে আরও বেশি। আন্তর্জাতিক অঙ্গনে সম্পূর্ণ নবীন এ খেলোয়াড়রা শুরুটা ভালো নাও করতে পারেন বলে মনে করেন তামিম। তাই দুই এক ম্যাচ দেখে তাদের বিবেচনা না করার অনুরোধ করেন দেশসেরা এ খেলোয়াড়।

‘আমার কাছে মনে হয় যে কোনো ক্রিকেটার লাগাতার দুই বা তিন বছর ঘরোয়াতে পারফর্ম করছে, জাতীয় দলে আসার পর তার একটা বা তিন-চারটা খারাপ ম্যাচ হতেই পারে। তাকে ওই সময় সরিয়ে দেওয়াটা আমার মনে হয় না কোনো সমাধান। যখনই তাকে নির্বাচন করা হয় ওর মধ্যে ওই সামর্থ্য আছে বলেই চিন্তা করা হয়। ওকে যথেষ্ট সুযোগ দিতে হবে। যখন একজন আসে, অন্তত সবার সন্তুষ্টির জন্য তাকে যথেষ্ট সুযোগ দেওয়া উচিত। কারণ আমার মনে হয় এখানে একটা বড় গ্যাপ থাকে। ওখানে খাপ খাইয়ে নেওয়ারও ব্যাপার আছে। তারা যদি মনে করে বাংলাদেশের হয়ে ভালো করার ওর সামর্থ্য আছে, তাকে তাহলে যথেষ্ট সুযোগ দেওয়া উচিত।’ – ৬ তরুণের সুযোগ পাওয়ার প্রসঙ্গে এমনটাই বললেন তামিম।

বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগে (বিপিএল) এবার কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের হয়ে খেলেছিলেন তামিম। গ্রুপ পর্বে দারুণ খেলেছিল দলটি। তাতে দুর্দান্ত পারফর্ম করেছিলেন তরুণ মেহেদী। আর এ পারফরম্যান্সের কারণেই জাতীয় দলে সুযোগ হয়েছে তার। আর সুযোগটা ভালোভাবেই কাজে লাগাবেন বলে আশা করছেন তামিম, ‘এই দুই ম্যাচ অথবা সামনে আরও তিন চারটা ম্যাচ দেখে ওকে বিবেচনা করা উচিত না। এটা তার জন্য খুবই নতুন। আশা করবো প্রথম ম্যাচ থেকেই নিজের একটা অবস্থান দলে করে ফেলবে।’

সুযোগ পেলেই নিজের অবস্থান গড়বেন মেহেদী, আশা তামিমের। তবে যদি না পারেন তারপরও তাকে সুযোগ দেওয়ার পক্ষে তিনি। যুক্তিটাও দেন চমৎকার, ‘যদি না করতে পারে তাহলে ওকে সময় দিতে হবে। কারণ ভালো খেলোয়াড় হলেই নিশ্চিত না যে সে প্রথম ম্যাচ বা প্রথম দুই তিন ম্যাচ ভালো খেলবে। হয়তোবা ৪ বা ৫ নাম্বার ম্যাচ থেকেও ভালো খেলতে পারে। আবার এমনও হতে পারে প্রথম ম্যাচ থেকেও ভাল খেলতে পারে। আমি নিশ্চিত যারাই ওদের নির্বাচন করেছেন এটা ভেবেই করেছেন ওদের সে সামর্থ্য আছে আন্তর্জাতিক টি-টুয়েন্টিতে ভাল খেলার জন্য।’

তবে শুধু মেহেদীতেই মুগ্ধ নন তামিম। আরিফুল ও রাহীদের খেলাতেও মুগ্ধ তিনি। ঘরোয়া ক্রিকেটে নিয়মিত এ পারফর্মারদেরও পর্যাপ্ত সুযোগ চান এ ওপেনার, ‘আমি দুই তিন জনের নাম বলি। বিশেষ করে রাহী। আমার কাছে মনে হয় সে এর দাবীদার। কারণ গত দুই বছর ধরে বিপিএলে সেরা পারফর্মার বোলার ছিল সে। তাই সে ডাক পেতেই পারে। আরিফুল হকও গত দুই তিন বছর ধরে বিপিএলে সমানভাবে ভালো খেলে যাচ্ছে। আমরা চাচ্ছিলাম ম্যাচ শেষ করে আসার জন্য একজন খেলোয়াড়, যে দরকারে বড় শটও করতে পারে।। তার সে সামর্থ্য আছে।’

আরটি/পিএ