নিদাহাস ট্রফিতে ফিরছেন লঙ্কান অধিনায়ক ম্যাথুজ

ঢাকা, শনিবার, ১৮ আগস্ট ২০১৮ | ৩ ভাদ্র ১৪২৫

নিদাহাস ট্রফিতে ফিরছেন লঙ্কান অধিনায়ক ম্যাথুজ

পরিবর্তন ডেস্ক ৪:১২ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৩, ২০১৮

print
নিদাহাস ট্রফিতে ফিরছেন লঙ্কান অধিনায়ক ম্যাথুজ

গত ১৮ মাসের বেশি সময় ধরে ইনজুরি পিছনে লেগেই আছে লঙ্কান সীমিত ওভারের ক্রিকেট অধিনায়ক অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুজের। সর্বশেষ ঢাকায় বাংলাদেশ ও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ত্রিদেশীয় সিরিজ খেলতে এসে হ্যামস্ট্রিংয়ের চোটে ছিটকে যান সিরিজ থেকেই। অধিনায়কত্ব ফিরে পাওয়ার পর মাত্র এক ম্যাচেই এই দায়িত্ব পালন করতে পেরেছেন। তবে শ্রীলঙ্কার ৭০তম স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষ্যে আয়োজিত নিদাহাস ট্রফিতে ফিরছেন তিনি। মার্চে নিজেদের মাটিতে এই ত্রিদেশীয় টি-টুয়েন্টি সিরিজে বাংলাদেশ ও ভারতের মুখোমুখি হবেন ম্যাথুজ-চান্দিমালরা।

 

এমনিতে ইনজুরি তার উপর বেশ কিছু সময় ধরে সাফল্যখরায় ভুগতে থাকা ম্যাথুজ গতবছর শ্রীলঙ্কার অধিনায়কত্ব ছেড়ে দেন। এরপর আরো কয়েকজন ক্রিকেটারকে এই দায়িত্ব দেয়া হয়, কিন্তু তারা কেউই সেভাবে সফল হননি। চন্ডিকা হাথুরুসিংহে কোচ হিসেবে আসার পর ম্যাথুজকে আবার সংক্ষিপ্ত ওভারের ক্রিকেটে অধিনায়কত্ব দেয়া হয়। কিন্তু ইনজুরির কারণে ত্রিদেশীয় সিরিজে মাত্র একটি ম্যাচ খেলেই দেশে ফিরতে হয় তাকে। বাংলাদেশের বিপক্ষে টেস্ট সিরিজেও খেলতে পারেননি। তার বদলে সিরিজের বাকি ম্যাচ ও বাংলাদেশের বিপক্ষে টি-টুয়েন্টি সিরিজে অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করছেন টেস্ট অধিনায়ক দিনেশ চান্দিমাল। এই টি-টুয়েন্টি সিরিজে অধিনায়ক হিসেবে ফেরার কথা থাকলেও চিকিৎসকদের পরামর্শে তা করছেন না ম্যাথুজ। বরং দেশের মাটিতে নিদাহাস ট্রফি দিয়েই ফিরতে চান বলে জানিয়েছেন তিনি, 'সবাই এই টুর্নামেন্টের জন্য মুখিয়ে আছেন এবং আমি ভীষণ উচ্ছ্বসিত।'

ঘন ঘন ইনজুরি সমস্যা কাটিয়ে উঠতে চিকিৎসকদের পরামর্শে নতুন পুনর্বাসন প্রক্রিয়া নিয়ে কাজ করছেন বলে জানিয়েছেন এই ৩০ বছর বয়সী অল রাউন্ডার। এজন্যই খেলছেন না বাংলাদেশের বিপক্ষে দুই ম্যাচের টি-টুয়েন্টি সিরিজ, 'আগে ইনজুরি থেকে ফিরেই খেলতে নেমে যেতাম। ক্ষতগুলো সম্পূর্ণ সুস্থ হওয়ার আগেই খেলা শুরু করতাম। এখন আমি দৌঁড়ানো, অনুশীলন সহ অন্য কাজগুলো করতে পারছি। তবে পুরোপুরি সুস্থ হওয়ার আগে আমি খেলছি না। ঘনঘন ইনজুরিতে পড়া আমার এবং দলের জন্য ক্ষতিকর।'

ম্যাথুজ শুধু ব্যাটসম্যান হিসেবে খেললে কম ইনজুরিতে পড়েন। মূলত বোলিং করতে গেলেই তার সমস্যাটা বেশি হয়। এবার ফিরে এসে বোলিং করবেন কিনা তা ছেড়ে দিয়েছেন চিকিৎসকদের হাতে, 'এটা নির্ভর করছে চিকিৎসকরা কি বলেন তার উপর। আমি বোলিং করতে চাই। কিন্তু তার আগে পুরো ফিট হওয়া জরুরী।'

এসএম

 
.


আলোচিত সংবাদ