কুমিল্লায় নিখোঁজের ৭ দিন পর বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধার

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯ | ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

কুমিল্লায় নিখোঁজের ৭ দিন পর বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধার

কুমিল্লা প্রতিনিধি ৯:৩২ অপরাহ্ণ, জুন ২৬, ২০১৯

কুমিল্লায় নিখোঁজের ৭ দিন পর বস্তাবন্দি লাশ উদ্ধার

কুমিল্লায় নিখোঁজের ৭ দিন পর নারায়ণ চন্দ্র (৫৪) নামে ব্যক্তির বস্তাবন্দি মরদেহ উদ্ধার করেছে বুড়িচংয়ের দেবপুর ফাঁড়ি পুলিশ।

এ ঘটনায় জড়িত সন্দেহে চান্দিনা উপজেলার পিহর গ্রামের হর গোবিন্দের মেয়ে উর্মিল্লা চক্রবর্তী (সুমা) (৩২) ও তার ভাই শংকরকে (২৮) আটক করা হয়েছে।

নিহত নারায়ণ চন্দ্র কুমিল্লা বুড়িচং উপজেলার মোকাম ইউনিয়নের মনিপুর এলাকার বাসিন্দা।

বুধবার কুমিল্লার বরুড়া উপজেলার বড়হাতুয়া গ্রামের রাস্তার পাশের একটি ঝোঁপ থেকে মরদেহটি উদ্ধার করা হয়।

বিষয়টি নিশ্চিত করে দেবপুর ফাঁড়ি পুলিশের এসআই শাহিন কাদির জানান, ৭ দিন আগে নারায়ন চন্দ্র এলাকা থেকে নিখোঁজ হন। পরে এ বিষয়ে থানায় একটি সাধারণ ডায়রি করে তার পরিবার।

এরপর গত ৫ দিন ধরে পুলিশ মোবাইল ট্যাকিং করে মঙ্গলবার রাতে বুড়িচং উপজেলার মোকাম ইউনিয়ন থেকে সন্দেহভাজন আসামি সুমা ও শংকরকে আটক করে। তাদের ব্যাপক জিজ্ঞাসাবাদের পর ভোররাতে হত্যাকাণ্ডে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে। পরে সকালে তাদের নিয়ে বরুড়া উপজেলার বড় হাতুয়া গ্রামের রাস্তার পাশের ঝোঁপ থেকে নিখোঁজ নারায়নের বস্তাবন্দি মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

তিনি আরো জানান, পরকিয়া সম্পর্কের জেরে নারায়নের কাছ থেকে লক্ষাধিক টাকা আত্মসাতের পর নারায়নকে কৌশলে হত্যা করে লাশ গুমের চেষ্টা করে উর্মিল্লা চক্রবর্তী (সুমা) ও তার ভাই শংকর। তাদের আরো জিজ্ঞাসাবাদ শেষে আদালতে সোপর্দ করা হবে।

এইচআর

 

চট্টগ্রাম: আরও পড়ুন

আরও