বর্জ্য ব্যবস্থাপনা নিয়ে জাইকা বিশেষজ্ঞ দল চট্টগ্রামে

ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৯ | ৫ অগ্রহায়ণ ১৪২৬

বর্জ্য ব্যবস্থাপনা নিয়ে জাইকা বিশেষজ্ঞ দল চট্টগ্রামে

চট্টগ্রাম ব্যুরো ১০:২৯ অপরাহ্ণ, জুন ২৪, ২০১৯

বর্জ্য ব্যবস্থাপনা নিয়ে জাইকা বিশেষজ্ঞ দল চট্টগ্রামে

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় শৃঙ্খলা আনতে চট্টগ্রামে অবস্থান করছে জাপান ইন্টারন্যাশনাল অপারেশন এজেন্সির (জাইকা) বিশেষজ্ঞ দল।

সোমবার সকালে নগরীর টাইগারপাস চসিক অস্থায়ী কার্যালয়ে সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীনের সাথে সাক্ষাৎ করতে আসেন তারা।

সম্প্রতি চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের বর্জ্য ব্যবস্থাপনায় শৃঙ্খলা আনায়নের লক্ষ্যে জাইকার এই বিশেষজ্ঞ দলকে কাজে লাগাতে অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রণালয়।

সাক্ষাৎকালে জাইকা বিশেষজ্ঞ দল আধুনিক প্রদ্ধতিতে কীভাবে কঠিন এবং তরল বর্জ্য দুর্গন্ধমুক্ত পরিবেশে অপসারণ করা যায় সে বিষয়ে মেয়রকে জানান। ইতোমধ্যে জাইকা নগরীর বর্জ্য অপসারণে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনকে বেশ কিছু যানবাহন, যন্ত্রাংশ ও ভ্যান গাড়ি দিয়েছে।

বর্তমানে বিশ্বে ময়লা অপসারণের ক্ষেত্রে পরিবেশের নিরাপত্তা ও বায়ু দূষণের বিষয়কে গুরুত্বের সাথে বিবেচনায় নেয়া হয়েছে। আধুনিক বিশ্বে থ্রি-আর বা রিসাইকেল, রিডিউস, রিইউস এই তিন পদ্ধতিতে বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কার্যক্রম পরিচালনা করা হয়। এ রকম আরো আধুনিক পদ্ধতিতে বর্জ্য ব্যবস্থাপনার কার্যক্রম আলোচনায় উঠে আসে।

নগরীতে বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কার্যক্রম, নতুন ল্যান্ড ফিল্ড, ওজন পরিমাপক এবং জাপান সরকার অনুদানে বর্জ্য আর্বজনবাহী গাড়িগুলো সম্পর্কে মেয়রের কাছ থেকে জানতে চান বিশেষজ্ঞ দল। অতিশিগগিরই বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কার্যক্রমসহ জাইকার অন্যান্য কার্যাদি দেখতে আরেকটি বিশেষজ্ঞ দল চট্টগ্রামে আসবেন বলে তারা সিটি মেয়রকে জানান।

এছাড়াও বৈঠকে তারা বর্জ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের একটি কাঠামো চসিক প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তার কাছে দেন।
সাক্ষাৎকালে সিটি মেয়র বলেন, আমি চট্টগ্রগ্রাম নগরীকে পরিচ্ছন্ন ও সুন্দর দেখতে চাই। এজন্য নগরবাসীকে ইতোমধ্যে দুর্গন্ধমুক্ত সুন্দর নির্মল ও শুভ সকাল উপহার দেয়ার জন্য রাতের বেলা ময়লা অপসারণসহ আবর্জনা পরিষ্কারে আউটসোর্সিংয়ের ভিত্তিতে অতিরিক্ত ২ হাজার পরিচ্ছন্ন সেবক নিয়োগ দিয়েছি।

তিনি বলেন, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন ১৯৮৮ সালের প্রবিধানমালা বিগত সময়ে মন্ত্রণালয় কর্তৃক অনুমোদন না হওয়ায় জনবল নিয়োগ দেয়া সম্ভব হয়নি। সম্প্রতি এই প্রবিধান মন্ত্রণালয় কর্তৃক অনুমোদিত হয়েছে। যা শিগগিরই গেজেট প্রকাশিত হবে। এই প্রবিধানমালা পদের অতিরিক্ত ১০৪৬ জন নিয়োগের জন্য মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ কর্তৃক অনুমোদিত হয়েছে।

এছাড়া পরিচ্ছন্ন বিভাগকে বর্জ্য ব্যবস্থাপনা আওতাধীন করে বর্জ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগ অনুমোদনের জন্য স্থানীয় সরকার বিভাগে দাখিল করা হয় বলে সিটি মেয়র জাইকার বিশেষজ্ঞ দলকে অবহিত করেন।

বৈঠকে সিটি মেয়র চট্টগ্রাম নগরীকে একটি বিশ্বমানের, পরিচ্ছন্ন ও পরিকল্পিত নগর গড়ার প্রত্যয়ে তার গৃহিত পরিকল্পনা বাস্তবায়নে সব মহলের সহযোগিতা কামনা করেন।

এইচআর

 

চট্টগ্রাম: আরও পড়ুন

আরও