ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় শিশু ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে বৃদ্ধ আটক

ঢাকা, ২৩ জুন, ২০১৯ | 2 0 1

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় শিশু ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে বৃদ্ধ আটক

ব্রাহ্মণবাড়িয়া প্রতিনিধি ১২:০৯ পূর্বাহ্ণ, মে ২৬, ২০১৯

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় শিশু ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে বৃদ্ধ আটক

ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় শহরে কন্যা শিশুকে ধর্ষণের চেষ্টার অভিযোগে বৃদ্ধকে আটক করেছে পুলিশ।

শনিবার বিকেলের দিকে জেলা শহরের পাওয়ার হাউজ রোড এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনার খবর পেয়ে অভিযুক্ত বাচ্চু মিয়া (৬০) নামের একজনকে তাৎক্ষণিকভাবে আটক করেছে পুলিশ।

বাচ্চু মিয়া পৌর এলাকার শিমরাইলকান্দির মৃত বদু মিয়ার ছেলে।

ওই শিশুটি স্থানীয় একটি স্কুলে ২য় শ্রেণিতে পড়াশোনা করে।

শিশুটিকে উদ্ধার করে সদর থানা পুলিশ। শিশুটি সদর থানা পুলিশ হেফাজতে রয়েছে।

শিশুটির মা ও স্থানীয়দের সূত্রে জানা যায়, জেলা শহরের পাওয়ার হাউজ রোড এলাকায় তোফায়েল আজম কিন্টার গার্টেনের সামনে ডাব বিক্রি করেন শিমরাইলকান্দি দক্ষিণপাড়া এলাকার বাসিন্দা বাচ্চু মিয়া (৬০)। শনিবার বিকেলে বাচ্চুর কাছ থেকে স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ের দ্বিতীয় শ্রেণির এক ছাত্রী ডাব কিনে বাড়ি যায়। পানি খেয়ে ডাবের ডোবা খোসা ফিরিয়ে দিতে পুনরায় বাচ্চুর কাছে যায় ওই শিশুটি। এসময় শিশুটিকে ফুসলিয়ে তোফায়েল আজম কিন্টার গার্টেনের সামনে থাকা একটি পরিত্যক্ত লেপতোশকের খালি দোকানে ভেতরে নিয়ে যান বাচ্চু। এক পর্যায়ে মেয়েটিকে ধর্ষণের চেষ্টা করেন। কিন্তু রাস্তার পাশের ওই ঘরের ভেতরে উচ্চ চিৎকার শুরু করলে বাচ্চু শিশুটিকে ছেড়ে দেয়। বাচ্চু শিশুটিকে ছেড়ে দিলে বাড়িতে গিয়ে মায়ের কাছে ঘটনা খুলে বলে।

পরে শিশুটির পরিবার স্থানীয় লোকজনের মাধ্যমে বিষয়টি সদর থানা পুলিশক খবর দেন। সদর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আব্দুল মোতালেব ঘটনাস্থলে পৌঁছে বাচ্চুকে আটক করেন। আর শিশুটিকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে যায়।

রাত ১০টার দিকে শিশুটিকে স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যায় পুলিশ।

শিশুটির মা আরো বলেন, ঘটনাটি স্থানীয় গণ্যমাণ্য ব্যক্তিদের জানিয়েছি। কিন্তু তারা কোনো সাড়া দেয়নি।

তিনি অভিযোগ করে বলেন, এ ঘটনার পর বাচ্চু নামে ওই ব্যক্তি অন্য আরেকজনকে দিয়ে ৫০০ টাকা পাঠিয়ে ঘটনাটি রফাদফা করার প্রস্তাব দিয়েছে।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মুহাম্মদ সেলিম উদ্দিন বলেন, ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে বাচ্চু নামে একজনকে আটক করা হয়েছে। স্বাস্থ্য পরীক্ষার জন্য ওই শিশুকে রাতে জেলা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এক নারী চিকিৎসকের তত্ত্বাবধানে ওই শিশুর স্বাস্থ্য পরীক্ষা করানো হবে। চিকিৎসকের প্রাথমিক প্রতিবেদনের পর অভিযোগের পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এআরই

 

চট্টগ্রাম: আরও পড়ুন

আরও