আ’লীগের ভোট ডাকাতির অভিযোগ মিথ্যা: ঊষাতন তালুকদার

ঢাকা, বুধবার, ১৯ জুন ২০১৯ | ৫ আষাঢ় ১৪২৬

আ’লীগের ভোট ডাকাতির অভিযোগ মিথ্যা: ঊষাতন তালুকদার

প্রান্ত রনি, রাঙামাটি ৮:০৮ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ১৫, ২০১৮

আ’লীগের ভোট ডাকাতির অভিযোগ মিথ্যা: ঊষাতন তালুকদার

আওয়ামী লীগের ২০১৪ সালের জাতীয় নির্বাচনে ৫৩ কেন্দ্রে ভোট ডাকাতির অভিযোগকে মিথ্যা-বানোয়াট ও ভিত্তিহীন বলে মন্তব্য করেছেন ২৯৯ নং রাঙামাটি আসনের স্বতন্ত্র ও জনসংহতি সমিতির সমর্থিত প্রার্থী ঊষাতন তালুকদার।

তিনি বলেছেন, ‘দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনে রাঙামাটি আসনে তৎকালীন নির্বাচন কমিশন ও নিটার্নিং অফিসার ভোট ডাকাতির অভিযোগ আনেন নি। বরং, নির্বাচন শান্তিপূর্ণ, সুষ্ঠু ও অবাধ হয়েছিল বলে উল্লেখ করেছিলেন।

শনিবার বিকালে রাঙামাটির শহরের কল্যাণপুর এলাকায় একটি রেস্টুরেন্টে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে এসব মন্তব্য করেন রাঙামাটির বর্তমান সংসদ সদস্য ও জনসংহতি সমিতির সহ-সভাপতি ঊষাতন তালুকদার।

তিনি বলেন, ‘বস্তুত দীপংকর তালুকদার পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তি পরিপন্থি ও গণবিরোধী ভূমিকার কারণে দশম জাতীয় নির্বাচনে রাঙামাটিবাসী তার বিরুদ্ধে ভোট বিপ্লব ঘটিয়েছিলো। তারা সেই ঘটনাকে ধামাচাপা দেওয়ার জন্যই দীপংকর তালুকদার জনসংহতি সমিতির বিরুদ্ধে এই মিথ্যা ও বানোয়াট ও উদ্দেশ্যপ্রণোদিত অপপ্রচার চালিয়ে যাচ্ছেন। যা নির্বাচন আচরণবিধির সরাসরি লঙ্ঘন ও নির্বাচন পরিবেশকে উত্তপ্ত করার সামিল।’

ঊষাতন বলেন, ‘গুম-অপহরণ, গণগ্রেপ্তার, হামলা-মামলা, সাম্প্রদায়িকতা, দুর্বৃত্তায়ন, দলীয়করণ, লুটপাট, দুর্নীতি, সভা-সমাবেশ ও বাক-স্বাধীনতার ওপর হস্তক্ষেপের কারণে সারাদেশে এক সংকটজনক অবস্থা বিরাজ করছে। অপরদিকে, পার্বত্য চট্টগ্রামে বিরাজ করছে নিরাপত্তাহীন শ্বাসরুদ্ধকর নাজুক পরিস্থিতি। শাসকগোষ্ঠীর রাষ্ট্রীয় ক্ষমতার অপব্যবহার, চরম দুর্নীতি, চাঁদাবাজি, টেন্ডারবাজি, দলীয়করণ পার্বত্য চুক্তি বাস্তবায়নে অব্যাহত গড়িমসি, পার্বত্য চুক্তি ও জুম্ম স্বার্থবিরোধী ষড়যন্ত্র, ফ্যাসিবাদি দমন-পীড়নের ফলে রাঙামাটি জেলাসহ সমগ্র পার্বত্য চট্টগ্রামে জনজীবন বিপর্যস্ত হয়ে পড়েছে।

তিনি বলেন, ‘জনসংহতি সমিতি কোনও ধরণের বৈধ বা অবৈধ অস্ত্রবাজি করে না। পার্বত্য চট্টগ্রাম চুক্তি বাস্তবায়নের দাবিতে পার্বত্যবাসীকে সঙ্গে নিয়েই গণতান্ত্রিক উপায়ে ন্যায়সঙ্গত আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছে।’

এ সময় জনসংহতি সমিতির জেএসএস) স্টাফ সদস্য জন চাকমা, স্টাফ সদস্য ও নির্বাচন পরিচালনা কমিটির চিফ এজেন্ট উদয়ন ত্রিপুরা, তথ্য ও প্রচার বিভাগের দিপায়ন খীসা, পাহাড়ি ছাত্র পরিষদের (পিসিপি) সভাপতি জুয়েল চাকমা, হিল উইমেন্স ফেডারেশনের রাঙামাটি জেলার সভাপতি রীনা চাকমা প্রমুখ।

পিআর/এএসটি