পারভেজকে চাপা দেয়ার সময় বাস চালাচ্ছিলেন হেলপার

ঢাকা, বুধবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৯ | ২৯ কার্তিক ১৪২৬

পারভেজকে চাপা দেয়ার সময় বাস চালাচ্ছিলেন হেলপার

পরিবর্তন প্রতিবেদক ৩:৫০ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৯

পারভেজকে চাপা দেয়ার সময় বাস চালাচ্ছিলেন হেলপার

সঙ্গীত পরিচালক পারভেজ রবকে চাপা দেয়ার সময় ভিক্টর পরিবহনের বাসটির চালকের সিটে বসে ছিলেন চালকের সহকারী (হেলপার)।

ঘাতক বাসের ড্রাইভার মো. সুমন এবং হেলপার মো. আক্তার হোসেনকে গ্রেফতার করেছে ঢাকা মহানগর গোয়েন্দা পুলিশের (উত্তর) একটি দল।

শনিবার দুপুরে ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের (ডিএমপি) মিডিয়া অ্যান্ড পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মাসুদুর রহমান এ তথ্য জানান।

তিনি জানান, শুক্রবার নারায়ণগঞ্জ জেলার ফতুল্লার মাসদাইড় বাজার এলাকা থেকে বাসের চালক সুমন ও শরীয়তপুর জেলার নড়িয়ার দিনারা এলাকা থেকে হেলপার আক্তার হোসেনকে গ্রেফতার করা হয়।

ডিবি সূত্রে জানা গেছে, গ্রেফতাররা জিজ্ঞাসাবাদে জানিয়েছে ঘটনার দিন ৫ সেপ্টেম্বর সকাল ১০টায় ভিক্টর পরিবহনের বাসটির চালক সুমন তার সহকারী আক্তারকে বাস চালাতে বলেন। চালক ড্রাইভিং সিটের পাশের সিটে বসে থাকেন। বাসটির হেলপার বেপরোয়া ও দ্রুত গতিতে বাসটি চালাতে থাকেন। এক পর্যায়ে বাসটি পারভেজ রবকে চাপা দেয়। তখন বাসটি ঘটনাস্থলে ফেলেই চালক ও হেলপার পালিয়ে যায়।

প্রসঙ্গত, ওই দিন তুরাগের ধউর এলাকায় ইস্ট ওয়েস্ট মেডিকেল কলেজের সামনে মূল সড়কে উত্তর পাশে দাঁড়িয়ে পুরান ঢাকার সদর ঘাটে যেতে বাসের জন্য অপেক্ষা করছিলেন সঙ্গীত পরিচালক পারভেজ রব। এসময় ভিক্টর ক্লাসিক পরিবহনের একটি বাস এলে, সেটি থামানোর জন্য সংকেত দেন পারভেজ। কিন্তু বেপরোয়া গতির বাসটি তাকে চাপা দেয়। ওই ঘটনায় পারভেজের স্ত্রী তুরাগ থানায় একটি মামলা করেন।

মামলা হওয়ার পর ঘাতক বাসের মালিক, ম্যানেজার, ড্রাইভার ও হেলপারদের খোঁজ করতে গেলে নিহত পারভেজের ছেলে ইয়াছির আলভী রব ও ছেলের বন্ধু মেহেদী হাসান ছোটনকে ভিক্টর ক্লাসিকের অপর একটি বাস উত্তরা ৯নং সেক্টর এলাকায় গাড়ি চাপা দেয়। এসময় আলভী গুরুতর আহত হন এবং মেহেদী নিহত হন। এই ঘটনায় উত্তরা পশ্চিম থানায় অপর একটি মামলা করা হয়েছে।

পিএসএস/এসবি

 

রাজধানী: আরও পড়ুন

আরও